কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

নীলফামারিতে জমি নিয়ে বিরোধে হামলা প্রতিমা ভাংচুর

প্রকাশিত : ২১ জুন ২০১৫

স্টাফ রিপোর্টার, নীলফামারী ॥ ষোল শতক বিরোধপূর্ণ জমির বাঁশ কাটতে বাধা দেয়ায় এক সংখ্যালঘু পরিবারের ওপর হামলা চালিয়েছে প্রতিপক্ষ মতিয়ার রহমান ও তার সন্ত্রাসী বাহিনী। এ ঘটনায় সংখ্যালঘু পরিবারের নারীসহ তিনজন আহত হয়েছে। এ সময় হামলাকারীরা ওই সংখ্যালঘু পরিবারের বাড়ির মন্দিরের মহাদেব, রাধাকৃষ্ণ ও শিব ঠাকুরের ৫টি প্রতিমা ভাংচুর করে। শনিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ঘটনাটি ঘটে নীলফামারীর সৈয়দপুর উপজেলার কাশিরাম বেলপুকুর ইউনিয়নের চওড়া পালপাড়া গ্রামে। আহতদের সৈয়দপুর একশ’ শয্যা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আহতরা হলো মৃত কৃষ্ণ চন্দ্র পালের স্ত্রী শান্তিবালা (৬৫), তার দুই পুত্র হারাধন পাল (৩০) ও নৃপেন চন্দ্র পাল (২৭)।

শ্রমিকলীগ নেতার দাপট

আমাকে গাছ কাটতে বাধা দিবেন না। আমি পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকর্তাদের কাছ থেকে টেন্ডারের মাধ্যমে ৩০ হাজার টাকায় গাছ কিনেছি। তাই গাছ কেটে নিয়ে যাচ্ছি। শনিবার সকালে তিস্তা নদীর বার্নিরঘাট বিজিপি ক্যাম্প সংলগ্ন পাটগ্রাম পাড়ায় লাখ টাকা মূল্যের বিরাট শিমুল গাছ কর্তনের সময় বাধা দিতে আসা লোকজনকে এই কথাগুলো দাপটের সঙ্গে বলছিলেন নীলফামারীর ডিমলা উপজেলার টেপাখড়িবাড়ি ইউনিয়নের শ্রমিক লীগ সভাপতি ও করাতকল মালিক সহর আলী। এই নেতা দিনদুপুরে গাছ কেটে নিয়ে যাওয়ার সময় তিনি পুনরায় দাপটের সঙ্গে মানুষজন কে শুনিয়ে বললেন আমি শ্রমিকলীগ করি। আমি ইচ্ছামতো পানি উন্নয়ন বোর্ডের গাছ কাটুম। আমার করাতকলে শত শত সরকারী গাছ পড়ে আছে। সরকারী গাছ সরকারী দলের নেতারা কাটবে এটাই বাস্তব। আপনাদের যা করার আছে করেন।

প্রকাশিত : ২১ জুন ২০১৫

২১/০৬/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



ব্রেকিং নিউজ: