কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

বাংলাদেশ এখন ওয়ানডের জন্য আত্মবিশ্বাসী

প্রকাশিত : ১৪ জুন ২০১৫
  • বৈরী আবহাওয়ায় হতাশ ভারতীয় শিবির

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ বৃষ্টির হানায় ফতুল্লা টেস্ট এখন পর্যন্ত যে পর্যায়ে পৌঁছেছে তাতে করে নিশ্চিতভাবেই প্রাণহীন ড্রয়ে শেষ হতে যাচ্ছে ম্যাচটি। এমনকি বাংলাদেশ দলও সম্ভাবনা দেখছে ড্রয়েরই। আজ পঞ্চম ও শেষদিনে নিজেদের অসমাপ্ত প্রথম ইনিংস শেষ করতে নামবে বাংলাদেশ দল। এখন পর্যন্ত শুধু শেষ হয়েছে ভারতের প্রথম ইনিংসটি। তবু ড্র ছাড়া নিজেদের জন্য ভয়ের অনেক কিছুই দেখছেন বাংলাদেশী ওপেনার তামিম ইকবাল। তিনি মনে করেন অনিশ্চয়তার খেলায় শেষদিনে চাপে পড়েও যেতে পারে দল ভাল ব্যাটিং করতে না পারলে। তাই আপাতত বড় জুটি গড়ে এবং ব্যক্তিগতভাবে ব্যাটসম্যানরা কিছু অর্জন করবেন এমনটাই প্রত্যাশা তামিমের। তিনি মনে করেন ভাল ব্যাটিং করতে পারলে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে বাংলাদেশ দলকে আত্মবিশ্বাস যোগাবে। তবে আবহাওয়ার জন্য টেস্ট ম্যাচের ভাগ্য পাল্টে যাওয়ায় বেশ হতাশা প্রকাশ করলেন ভারতের ওপেনার শিখর ধাওয়ান। কারণ জয়ের লক্ষ্যটা এখন একেবারেই শেষ হয়ে গেছে বলে মনে করছেন তিনি। শনিবার চতুর্থ দিনশেষে সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন তামিম-ধাওয়ান।

আট বছর পর হাবিবুল বাশারের রেকর্ড ভেঙ্গে গেল। টেস্টে বাংলাদেশের পক্ষে তার করা সর্বাধিক রানের রেকর্ডটা ছাড়িয়ে গেছেন তামিম। এরপর ড্রেসিংরুমে গিয়ে তামিমকে অভিনন্দন জানিয়েছেন হাবিবুল। এ ছাড়া সাবেক এ অধিনায়ক ও বর্তমানে জাতীয় নির্বাচক আশা প্রকাশ করেছেন টেস্টে ১০ হাজার রান করবেন তামিম। তবে তামিম এ বিষয়ে বললেন, ‘গত আট বছরে আমি মাত্র ৪০ টেস্ট খেলেছি। বছরে আমরা ৩-৪টা টেস্ট খেলি। এভাবেই যদি চলতে থাকে সেক্ষেত্রে সেটা প্রায় অসম্ভব। কারণ ৫০ গড়েও যদি রান করতে পারি আরও আট-দশ বছরেও সেটা করা সম্ভব হবে না। এ ছাড়া এর সঙ্গে ফর্ম, ফিটনেস ঠিক থাকার বিষয়টি জড়িত। কাজেই শীর্ষ পর্যায়ের যে কোন ব্যাটসম্যানের জন্যই এটা কঠিন। আমি আজকে (শনিবার) যেভাবে আউট হয়েছি তাতে হতাশ নই। কারণ সোজা ব্যাটেই খেলেছি।’ তবে তিনি মনে করছেন আগামী প্রজন্মের অনেকেই এবং বর্তমানে যেভাবে মুমিনুল হক খেলছেন তাদের মধ্যে কেউ অবশ্যই দশ হাজার রান করবেন। তামিমের বিশ্বাস বেশিদিন থাকবে না তার গড়া রেকর্ডগুলোও।

আজ পঞ্চম ও শেষদিন। বাংলাদেশের প্রথম ইনিংসে এখন পর্যন্ত উঠেছে চতুর্থ দিন শেষে ৩ উইকেটে ১১১ রান। সে কারণে নিশ্চিত ড্র হতে চলেছে ম্যাচ এমনটাই মনে করছেন তামিম। কিন্তু এখনও ম্যাচের আকর্ষণ শেষ হয়ে যায়নি। অনেক কিছুই ঘটতে পারে এবং ব্যক্তিগত অর্জনের ক্ষেত্রেও বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানদের কিছু পাওয়ার আছে। আর ভাল ব্যাটিং করতে পারলে সেটা ওয়ানডে সিরিজে দলের জন্য আত্মবিশ্বাসের কারণ হবে বলে মনে করেন তামিম। তিনি বলেন, ‘আমি মনে করি ড্র হবে। তবে ক্রিকেট খুবই হাস্যকর খেলা। টেস্ট আরও বেশি। শেষদিনে আমাদের ব্যাটসম্যানদের অনেক কিছু পাওয়ার আছে। সাকিব-ইমরুল ছাড়াও বাকি যারা ব্যাটসম্যান আছে তারা বড় স্কোর করতে পারেন। আমরা ভাল ব্যাটিং করতে পারলে সেটা ওয়ানডেতে আমাদের জন্য আত্মবিশ্বাস যোগাবে। কিন্তু সকালে দ্রুত ৩-৪ উইকেট হারালে আমরা বিপদে পড়তে পারি। সে কারণে সকালের দুয়েক ঘণ্টা খুব জরুরী। যদি ভাল জুটি গড়তে পারি তবে বলতে পারব টেস্টটা মরে গেছে। উইকেট এখনও ব্যাটিংয়ের জন্য ভাল।’ দারুণ ব্যাটিংয়ের পর বাংলাদেশকে চেপে ধরারই সুযোগ পেলেন না ভারতের বোলাররা। শুরু থেকেই তারা জয়েল আশা দেখছিল। কিন্তু বাংলাদেশের চেয়ে বৈরী আবহাওয়াটাই যেন বড় প্রতিপক্ষ হয়ে গেল ভারতীয় শিবিরের জন্য। এ বিষয়ে ধাওয়ান বলেন, ‘আমরা খুব হতাশ। জয়ের প্রত্যাশা ছিল আমাদের। কিন্তু সে চেষ্টা করার সুযোগ পেলাম না। অনেক রানও করেছিলাম। শেষদিনেও কি ঘটতে যাচ্ছে তা নির্ধারণ করবে আবহাওয়া। আমরা আরও বৃষ্টি আশা করছি। সেটা ভাল থাকলে আমাদের বোলিং শক্তি নিয়ে সর্বোচ্চ ভাল করার চেষ্টা করব ম্যাচ উপভোগ্য করে তোলার। অভিজ্ঞ স্পিনার হরভজন সিংয়ের প্রশংসা করলেন ধাওয়ান। দলের স্পিন ও পেস উভয় বিভাগের ওপর বিশ্বাস ছিল জানিয়ে তিনি বলেন, হরভজন অভিজ্ঞতা নিয়ে দলে ফিরেছেন এবং তার থাকাটা দলের অন্যদের জন্য অনুপ্রেরণা।

প্রকাশিত : ১৪ জুন ২০১৫

১৪/০৬/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: