মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১০ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

বজ্রপাতে ৭ জনের মৃত্যু

প্রকাশিত : ১১ জুন ২০১৫

জনকণ্ঠ ডেস্ক ॥ বজ্রপাতে বুধবার দেশের বিভিন্ন স্থানে সাতজন মারা যাওয়ার খবর পাওয়া গেছে। আহত হয়েছেন আটজন। গাজীপুরের শ্রীপুরে মারা গেছেন একজন। সাতক্ষীরার শ্যামনগর ও ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিজয়নগরে বুধবার বজ্রপাতে পাঁচজন নিহত হয়েছেন। এর মধ্যে শ্যামনগরেই মারা গেছেন চারজন। শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার রাজনগর ইউনিয়নে মারা গেছে এক স্কুলছাত্রী। খবর স্টাফ রিপোর্টার/ নিজস্ব সংবাদদাতাদের।

গাজীপুরের শ্রীপুরে বুধবার বজ্রপাতে একজন নিহত ও একজন আহত হয়েছেন। নিহতের নাম আবুল হোসেন (৫০)। তার বাড়ি ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জ উপজেলায়। জানা গেছে, শ্রীপুর উপজেলার সাতখামাইর এলাকায় আসাদ মিয়ার বাড়িতে থেকে কৃষি শ্রমিকের কাজ করতেন আবুল হোসেন। জমিতে কাজ শেষে ঘরে ফেরার পথে হঠাৎ বজ্রপাতে তার শরীরে জ্বলসে যায় এবং ঘটনাস্থলেই আবুল হোসেন মারা যান। এছাড়া অপর ঘটনায় একই উপজেলার কাওরাইদ এলাকায় বজ্রপাতে মহসিন আহমেদ (৫০) নামের অপর এক ব্যক্তি আহত হয়েছেন। তিনি স্থানীয় কাওরাইদ ইউনিয়নের বিধাই গ্রামের আশ্রব আলীর ছেলে। তাকে শ্রীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে বলে হাসপাতালের চিকিৎসক রহিমা সুলতানা জানিয়েছেন।

সাতক্ষীরায় বুধবার সকালে বজ্রপাতের ঘটনায় পাঁচজন নিহত ও সাতজন আহত হয়েছেন। শ্যামনগরে নিহত চারজনের মধ্যে নকিপুর গ্রামের আমজাদ আলীর স্ত্রী সাজেদা খাতুন (২৫) পানি আনতে যাওয়ার সময় তারা বজ্রপাতের শিকার হন। অন্যরা হলেন তারানিপুর গ্রামের আবদুল হামিদ গাজী (৪৫), পরানপুর গ্রামের জিয়াদ আলি (৭০) এবং গাবুরা গ্রামের রহমান পাড়ের স্ত্রী নুরনাহার (২৬)। এদের মধ্যে আব্দুল হামিদ তার মাছের ঘেরে যাওয়ার সময় এবং জিয়াদ আলী ছাগল চরানোর সময় মারা যান। আহতদের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে বলে জানান শ্যামনগর থানার ওসি। এদিকে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিজয়নগর উপজেলায় নিজের ধানক্ষেতে বজ্রপাতে নিহত হন সাতগাঁও গ্রামের কৃষক মোঃ নুরুল আমিন (৫০)। বিজয়নগর থানার ওসি মোঃ আবদুর রব জানান, বজ্রপাতে ঘটনাস্থলেই মারা যান আমিন।

এদিকে শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার রাজনগর ইউনিয়নের খামারপাড়া গ্রামে বুধবার সকালে বজ্রপাতে লাকী খাতুন (১২) নামে এক স্কুলছাত্রী নিহত হয়েছে। নিহত লাকী স্থানীয় আনোয়ারুল ইসলামের মেয়ে এবং মধ্য নালিতাবাড়ী সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণীর ছাত্রী। পরিবারের আবেদনের প্রেক্ষিতে বিকেলে বিনা ময়নাতদন্তে ওই স্কুলছাত্রীর মরদেহ হস্তান্তর করা হয়েছে। জানা যায়, বুধবার সকাল সাড়ে ৬টার দিকে হালকা বৃষ্টিপাতের সময় লাকী খাতুন তাদের ঘরের বারান্দায় দাঁড়িয়েছিল। ওই সময় আকস্মিক বজ্রপাতে সে অজ্ঞান হয়ে পড়ে। তাকে দ্রুত নালিতাবাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

প্রকাশিত : ১১ জুন ২০১৫

১১/০৬/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

প্রথম পাতা



ব্রেকিং নিউজ: