মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১০ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

ঈদের পোশাক ও কেনাকাটা এখন অনলাইনে

প্রকাশিত : ৮ জুন ২০১৫
  • এইচ এস এম আরিফ

বছর পেরিয়ে আবার আসছে আমাদের মাঝে পবিত্র রমজান মাস, আর রমজান মাস মানে অন্যান্য মাসের দিনের চেয়ে আলাদাভাবে জীবন যাপন করা। ঘুম থেকে উঠার সময় থেকে শুরু করে খাওয়া-দাওয়া, এবাদত, দৈনন্দিন কাজসহ সকল বিষয়ে ব্যাপক পরিবর্তন, এর ফলে সকলেই থাকে প্রচ- ব্যস্ত, সকলেই এত ব্যস্ততার মধ্যেও অনেক কিছু করতে পারে না। ফলে অন্যান্য মাধ্যমের সাহায্যে সে সকল কাজ সেরে নেন, আর এ সকল কাজের মাধ্যমে ঈদের কেনাকাটা, রমজান মাসের মধ্য ভাগেই অনেকেই ঈদের জন্য কেনাকাটা শুরু করে দেন, তবে এই কর্ম সম্পাদনে ব্যাপক ঝামেলা পোহাতে হয়, কারণ শহরের অত্যধিক যানজন, মার্কেটগুলোয় মানুষের প্রচ- ভিড়, পছন্দের জন্য সংগ্রহে সমস্যা, কিন্তু এসকল সমস্যা সমাধানে অনলাইন শপিং সাইটগুলো বেশ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে চলেছে। বর্তমান যুগ চলছে ডিজিটাল যুগ, এই যুগে অনেক কষ্ট কমিয়ে দিয়েছে অনলাইন শপিং সাইটগুলো। যে কোন মুহূর্তে, যে কোন স্থানে অবস্থান করেই। অনলাইন মাধ্যমে শপিং করা সম্ভব বর্তমানে অধিকাংশ জনগণের কাছে কম্পিউটার বা ল্যাপটপ থাকে, ক্ষেত্রবিশেষ এই দুটি যন্ত্রাংশ না থাকলেও স্মার্ট ফোন হাতে শোভা পায়, আর এ সকল যন্ত্রাংশ মাধ্যমে ইন্টারনেট ব্যবহার করে অনলাইন শপিং সাইটগুলোতে ঢুকে অনেক সময় ব্রাউজ করে সাধ্যের মধ্যে পছন্দের পণ্য গুণগতমান সম্পন্ন অর্ডার করে সংগ্রহ করা সম্ভব হয়। এই

পদ্ধতিতে ঘরে বসেই পছন্দের পণ্য খুব সহজেই পাওয়া যাচ্ছে। ভয়াবহ যানজট সমস্যা থেকে পরিত্রাণ ও পছন্দের পণ্য সহজেই সংগ্রহ করা সম্ভব হওয়ার কারণে বাংলাদেশে অনলাইন শপিং বেশ দ্রুত জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে। ঢাকার মধ্যে ক্লাইন্ট যদি পণ্য অর্ডার দেন তাহলে আমরা হোম ডেলিভারি দেই, আর ঢাকার বাইরের ক্রেতাদের পণ্যটি কুরিয়ার বা ডাকযোগে ডেলিভারি দেয়া হয়। কুরিয়ারের বিল ক্রেতাকেই বহন করতে হয়, ‘হোম ডেলিভারি থাকায় ঢাকায় অনলাইন শপিং অনেক পরিমাণ বৃদ্ধি পেয়েছে। আস্তে আস্তে ঢাকার বাইরে এই পদ্ধতিতে কেনাকাটা বৃদ্ধি পাচ্ছে। তবে রমজান মাস হওয়াও এবং ঈদের কেনাকাটার স্রোতে অনলাইনে কেনাকাটার পরিমাণও প্রচুর পরিমাণে বৃদ্ধি পেয়েছে। অনলাইন শপিংয়ের ক্রেতা মোঃ আরিফ বলেন ‘এই মাধ্যমে শপিংয়ে মূল্য পরিশোধে হ্যান্ড ক্যাশ ছাড়াও মাস্টার কার্ড, মোবাইল ব্যাংকিং, বিকাশ ব্যাংক এ্যাকাউন্ট বেশ সহজ মাধ্যম। দেশের তরুণ সমাজ অনলাইন শপিং সাইটগুলোর প্রতি অধিক আগ্রহ হওয়ায় শপিং সাইটগুলোয় অসংখ্য পণ্য সমাবেশ ঘটেছে। এগুলোর মধ্যে রয়েছে টি-শার্ট, পলো-টি-শার্ট, শার্ট, পাঞ্জাবি, প্যান্ট বেল্ট, মানিব্যাগ, টুপি, শাড়ি, থ্রি-পিস, টু-পিস, ফতুয়া, টপস, অর্নামেন্টস, মেকাআপসহ অন্যান্য পণ্য, বাংলাদেশের জনপ্রিয় অনলাইন শপিং সাইটগুলোর মধ্যে ঊৎৎড়ৎ, ঢ়ড়ঢ়ং, নফযরলনরলর, অঁৎমড়ৎধ, ঋধংযরড়হ, ড়িহফফযধশধনফ, মৎধভভরঃর, াবৎংড়, ভধপবনড়ড়শ এ ঢুকে এসকল সাইট সার্চ দিলেই পাওয়া যাবে অসংখ্য ডিজাইন ও মানের পোশাক এবং পণ্য, বিদেশী ভিন্নধর্মী অলঙ্কার কিনতে চাইলে ভধপবনড়ড়শ- এ সার্চ দিতে হবে ঝঢ়ধৎশষরহমঢ়রীরবং, উধুুষরহম, ঐধুব, ধহড়নং১২ বঃপবঃৎ, বষড়সবষড়.নফ ইত্যাদি অনলাইন শপিং। শপিং সাইটগুলোতে অবশ্য দেশের অধিকাংশ বুটিকস হাউস ও ব্যান্ডগুলোও এখন তাদের ভধপবনড়ড়শ ফ্যান পেইজ ও নিজস্ব ওয়েবসাইটের মাধ্যমে অনলাইনে ক্রেতাদের চাহিদা মেটাতে ব্যাপক সাহায্য করছে, তার মধ্যে চৌতি, সুইসতা, সাদাকালো, ইজি, পৌষ, রক অন্যতম, আধুনিক যুগে বাংলাদেশের ডিজিটালাইজেশনে অনলাইন শপিং সাইটগুলো স্রোতের গতিতে এগিয়ে চলেছে। যা দেশকে ও দেশের জনগণকে আরও বেশি সুযোগ-সুবিধা প্রদানে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে।

প্রকাশিত : ৮ জুন ২০১৫

০৮/০৬/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: