কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৪ ডিসেম্বর ২০১৬, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

শেয়ার বাজারে সূচক বেড়েছে কমেছে লেনদেন

প্রকাশিত : ৭ জুন ২০১৫
  • সাপ্তাহিক বাজার পর্যালোচনা

অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ গত সপ্তাহে শেয়ারবাজারে ইতিবাচকতা দেখা গেছে। আগের সপ্তাহের ধারাবাহিকতায় গত সপ্তাহেও বেড়েছে সূচক, তবে কমেছে লেনদেনের পরিমাণ। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) সূত্রে এ তথ্য পাওয়া গেছে। তথ্য পর্যালোচনায় দেখা যাচ্ছে, গত সপ্তাহে (৩১ মে থেকে ৪ জুন) ডিএসইর মূল্যসূচক বেড়েছে ৪৬.৭২ পয়েন্ট বা ১.০৩ শতাংশ। আগের সপ্তাহের ৪৫৪৪.৭১ পয়েন্ট থেকে ডিএসইর মূল্যসূচক বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৪৫৯১.৪৩-এ। গত সপ্তাহে লেনদেনের পরিমাণ কমেছে ১৯.৩০ শতাংশ। আগের সপ্তাহের ৩৭৩৫ কোটি ৯৭ লাখ টাকার লেনদেন কমে গত সপ্তাহে হয়েছে ৩০১৫ কোটি ২ লাখ টাকা। তবে লেনদেন কমার অন্যতম কারণ আগের সপ্তাহে পাঁচ দিন লেনদেন হলেও গত সপ্তাহে হয়েছে চার দিন। কারণ এক দিন সরকারী ছুটি ছিল। গত সপ্তাহে মোট ৩২৪টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের লেনদেন হয়েছে। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১০৬টির, কমেছে ১৮৯টির ও অপরিবর্তিত ছিল ২৬টির দর।

এদিকে অধিকাংশ কোম্পানির শেয়ার দর কমলেও গত সপ্তাহে ডিএসইর বাজার মূলধনের পরিমাণ বেড়েছে। সপ্তাহের শুরুতে ডিএসইর বাজার মূলধনের পরিমাণ ছিল ৩ লাখ ২০ হাজার ৩৮০ কোটি টাকা। সপ্তাহ শেষে তা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩ লাখ ২২ হাজার ৫১০ কোটি টাকায়। গত সপ্তাহে বাজার মূলধন বাড়ার হার ০.৬৬ শতাংশ। সপ্তাহজুড়ে লেনদেনের শীর্ষে ছিল সামিট পাওয়ার। কোম্পানিটির শেয়ার লেনদেন হয়েছে ১৬৮ কোটি ৪ লাখ ৩৩ হাজার টাকার। সপ্তাহের মোট লেনদেনের ৫.৫৭ শতাংশই লেনদেন হয়েছে এ কোম্পানির। আগের সপ্তাহের তুলনায় কোম্পানিটির শেয়ার লেনদেন বেড়েছে ২৮.৬৫ শতাংশ। ১৬০ কোটি ৩৩ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়ে দ্বিতীয় অবস্থানে খুলনা পাওয়ার। লেনদেনের তৃতীয় স্থানে থাকা বেক্সিমকো লিমিটেডের সপ্তাহজুড়ে ১১৫ কোটি ৮৪ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। এছাড়া লেনদেনের শীর্ষ দশে থাকা অন্য কোম্পানিগুলো হলো- ইউনাইটেড পাওয়ার, গ্রামীণফোন, সাইফ পাওয়ারটেক, সামিট পূর্বাঞ্চল পাওয়ার, বাংলাদেশ সাবমেরিন কেবল, আরএকে সিরামিকস ও বারাকা পাওয়ার লিমিটেড।

প্রকাশিত : ৭ জুন ২০১৫

০৭/০৬/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: