আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৮ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে টেস্টের বদলে ওয়ানডে চায় নিউজিল্যান্ড

প্রকাশিত : ৫ জুন ২০১৫

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ অনেক সময় আছে। আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিলের (আইসিসি) ফিউচার ট্যুর প্রোগ্রামে (এফটিপি) আগামী বছর ফেব্রুয়ারিতে নিউজিল্যান্ড সফর রয়েছে অস্ট্রেলিয়ার। সেই সফরে তিন টেস্ট খেলার কথা রয়েছে সফরকারী অসিদের। কিন্তু তিন টেস্টের এই সিরিজের পরই ভারতে অনুষ্ঠিত হবে টি২০ বিশ্বকাপ। সে কারণে একটি টেস্ট বাদ দিয়ে তিন ওয়ানডের চ্যাপেল-হ্যাডলি সিরিজ খেলার প্রস্তাব দিয়েছে নিউজিল্যান্ড ক্রিকেট (এনজেডসি)। ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়াও (সিএ) বিষয়টি নিয়ে এখন চিন্তাভাবনা করছে। এমনটাই জানিয়েছেন এনজেডসি প্রধান নির্বাহী ডেভিড হোয়াইট।

বর্তমানে ইংল্যান্ড সফরে রয়েছে নিউজিল্যান্ড দল। দুই টেস্টের সিরিজ খেলে ফেলেছে। আর দ্বিতীয় টেস্ট চলার সময়েই এ বিষয়টি নিয়ে হোয়াইট আলোচনা করেছেন সিএ কর্মকর্তাদের সঙ্গে। এ বছর নবেম্বরে অস্ট্রেলিয়া সফরে তিন টেস্টের সিরিজ খেলার বিষয়টিও প্রস্তাব করেছেন তিনি। আর আগামী বছর ফেব্রুয়ারিতে নিউজিল্যান্ডে দু’দেশের মধ্যে অনুষ্ঠিতব্য তিন টেস্টের সিরিজে কিছুটা পরিবর্তন আনার আহ্বান জানিয়েছেন। কারণ টি২০ বিশ্বকাপের ঠিক আগ মুহূর্তে শুধু টেস্ট সিরিজ খেলে তেমন লাভবান হবে না কোন দলই। সে কারণে একটি টেস্ট কমিয়ে পরিবর্তে তিন ওয়ানডে খেলার প্রস্তাব করেছেন তিনি এনজেডসির পক্ষ থেকে। অর্থাৎ তিন টেস্টের সিরিজের পরিবর্তে সিএর কাছে এনজেডসির প্রস্তাব দুই টেস্ট ও তিন ওয়ানডের সিরিজ খেলার। হোয়াইট এ বিষয়ে বলেন, ‘এটা খুবই আকর্ষণীয় একটি আলোচনা। আমরা তিন টেস্টের সিরিজ চাই যেখানে সম্ভব এবং যখন খুশি খেলতে। এ বিষয়ে গত এক সপ্তাহে এ বিষয়ে খুব ভাল আলোচনা হয়েছে। গত বিশ্বকাপের সাফল্য মাথায় রেখে আমরা নবেম্বরে অস্ট্রেলিয়াতে তিন টেস্টের সিরিজ খেলতে চাই। আর সেক্ষেত্রে পরের সিরিজে নিউজিল্যান্ডে তিনটি চ্যাপেল-হ্যাডলি ওয়ানডে খেলাটাকে আরও সহজ করবে সিদ্ধান্ত নেয়ার ক্ষেত্রে।’ হোয়াইট জানিয়েছেন সিএ তার এই প্রস্তাব বেশ সাদরে গ্রহণ করেছে। কারণ প্রতি বছরই চ্যাপেল-হ্যাডলি ওয়ানডে সিরিজ খেলে অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ড। এমনকি বিশ্বকাপেও দু’দলের ম্যাচগুলো এই সিরিজের অন্তর্ভুক্ত হয়ে গেছে। ২০১১ ও ২০১৫ বিশ্বকাপে পরস্পরের মধ্যে খেলা ম্যাচগুলো এ সিরিজের আওতায় বিবেচনা করা হয়েছে। এবার বিশ্বকাপের গ্রুপ পর্বে একবার এবং ফাইনালে আরেকবার মুখোমুখি হয়েছিল দু’দল। গ্রুপ পর্বে লো-স্কোরিং ম্যাচে ১ উইকেটের রুদ্ধশ্বাস জয় পেয়েছিল নিউজিল্যান্ড। এটিই এখন পর্যন্ত চ্যাপেল-হ্যাডলি সিরিজের সবচেয়ে উত্তেজনাপূর্ণ ম্যাচ হিসেবে গণ্য। তবে ফাইনালে কিউইদের ৭ উইকেটে হারিয়ে প্রতিশোধ নেয়ার পাশাপাশি পঞ্চমবারের মতো বিশ্বকাপও জিতে নেয় অসিরা।

প্রকাশিত : ৫ জুন ২০১৫

০৫/০৬/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: