রৌদ্রজ্জ্বল, তাপমাত্রা ২৩.৯ °C
 
৮ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

একদিনে দুই তারকার ইনজুরি

প্রকাশিত : ৫ জুন ২০১৫
একদিনে দুই তারকার ইনজুরি
  • সিরিজ শেষ মাহমুদুল্লাহ রিয়াদের
  • সড়ক দুর্ঘটনায় হাতে ব্যান্ডেজ মাশরাফির
  • কপাল খুলল নাসিরের

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ভারতের বিপক্ষে সিরিজে খেলতে নামার আগে একদিনে দুই বাংলাদেশী ক্রিকেটার ইনজুরিতে পড়লেন। একজন, টেস্ট দলের নির্ভরযোগ্য ব্যাটসম্যান মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ। আরেকজন, ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। ফিল্ডিং করতে গিয়ে বাঁ হাতের আঙ্গুলে চোট পেয়ে গুরুতর ইনজুরিতে পড়ায় ভারতের বিপক্ষে একমাত্র টেস্ট ম্যাচ থেকে ছিটকে পড়লেন মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ। সেই সঙ্গে সম্ভবত তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ থেকেও বাদ পড়ে গেলেন। তবে সড়ক দুর্ঘটনার কবলে পড়া মাশরাফির ইনজুরি গুরুতর নয়। দুই হাত ছিলে গেছে। হাঁটু ফুলে গেছে। ওয়ানডে সিরিজ শুরু হওয়ার আগেই সেরে উঠবেন মাশরাফি। রিয়াদের পরিবর্তে টেস্টে সুযোগ পেলেনে নাসির হোসেন।

ভারতের বিপক্ষে টেস্ট ম্যাচের জন্য বুধবারই ১৪ সদস্যের বাংলাদেশ দল ঘোষণা করেছে বিসিবি (বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড)। সেই দলে আছেন মাহমুদুল্লাহ। বৃহস্পতিবারই মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে অনুশীলনের সময় সিøপে ফিল্ডিং করতে গিয়ে ইনজুরিতে পড়ে যান মাহমুদুল্লাহ। সুস্থ হতে তিন থেকে চার সপ্তাহ লাগার কথা। তাই টেস্টের সঙ্গে ভারতের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজেও যে মাহমুদুল্লাহ খেলতে পারবেন না, তা বোঝাই যাচ্ছে। ১০ জুন টেস্ট শুরু হবে। আর ১৮, ২১ ও ২৪ জুন হবে যথাক্রমে প্রথম, দ্বিতীয় ও তৃতীয় ওয়ানডে। তিন সপ্তাহও যদি ধরা হয়, সেক্ষেত্রে ২৫ জুন সেই সময়সীমা শেষ হবে। তাতেই বোঝা যাচ্ছে, ভারতের বিপক্ষে সিরিজের কোন ম্যাচই খেলতে পারবেন না মাহমুদুল্লাহ। বাসা থেকে মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে রিক্সায় করে আসছিলেন মাশরাফি। হঠাৎ বাসের ধাক্কায় রিক্সা থেকে পড়ে গিয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়েন মাশরাফি। এখনও যেহেতু ওয়ানডে সিরিজ শুরু হতে ১৩ দিন বাকি আছে, তাই মাশরাফির এর মধ্যে ঠিক হয়ে ওঠা সম্ভব। সিরিজে খেলতেও পারবেন।

মাহমুদুল্লাহ রিয়াদের আঙ্গুলে চিড় ধরেছে। রিয়াদের চোট সম্পর্কে বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের ফিজিও বায়েজিদুল ইসলাম খান বলেছেন, ‘আজ (বৃহস্পতিবার) সকালে সিøপে ফিল্ডিং অনুশীলনের সময় বাঁ হাতের তর্জনিতে আঘাত পেয়েছেন রিয়াদ। এক্সরে করানো হয়েছে, তাতে একটু চিড় দেখা গেছে। তারপর আর অনুশীলন করেনি সে। রিয়াদের আঙ্গুলে যেহেতু ফাটল দেখা গেছে, তার সুস্থ হতে তিন থেকে চার সপ্তাহ লেগে যেতে পারে। তবে দ্রুত সেরে যাবে বলে মনে করছি।’ মাশরাফিকে নিয়ে বায়েজিদুল বলেন, ‘মাশরাফি সকালে অনুশীলনে আসার সময় একটা রোড এ্যাক্সিডেন্ট হয়েছে। এটা খুব মাইনর এ্যাক্সিডেন্ট না। কিন্তু ছিলে গেছে, ওর দুইটা হাতে এবং ডান হাঁটুতে একটু ফুলে গেছে। মেজর কিছু না, এটা খুব দ্রুত রিকভার করে যাবে। ওর জন্য কোন সমস্যা নেই। পর্যাপ্ত সময় আছে সুস্থ হওয়ার জন্য। নিয়মিত ড্রেসিং করলে ওয়ানডে শুরুর আগেই সুস্থ হয়ে যাবে।’

তবে এটা ঠিক, বড় রকমের দুর্ঘটনার হাত থেকে রক্ষা পেয়েছেন দেশ সেরা পেসার মাশরাফি। দুর্ঘটনার ঘটনাটি স্টেডিয়ামে এসে নিশ্চিত করেছেন মাশরাফি নিজেই। বাসা থেকে রিক্সা যোগে মাঠে অনুশীলনের জন্য যাচ্ছিলেন মাশরাফি। এ সময় পেছন থেকে আসা একটি বাস মাশরাফিকে বহনকারী রিক্সাকে ধাক্কা দেয়। এতে রিক্সা থেকে রাস্তায় পড়ে যান তিনি। ওয়ানডে দলের অধিনায়ক মাশরাফি জানিয়েছেন, ‘বাসের ধাক্কায় পড়ে যাওয়ায় দুই হাতে আঘাত পেয়েছি। ডান হাতের বৃদ্ধাঙ্গুলির নিচে তালুতে কেটে গেছে। এ ছাড়া বাঁ হাতের তালুতেও কিছু অংশ ছিলে গেছে।’

মাশরাফির হাতের তালুর ক্ষত নিয়ে চিন্তিত হয়ে পড়েছেন প্রধান কোচ চন্দিকা হাতুরাসিংহে। বড় ধরনের বিপদ থেকে বেঁচে গেলেও তার হাতের তালুর ক্ষত নিয়ে চিন্তিত জাতীয় দলের কোচ হাতুরাসিংহে। মাশরাফির এই দুর্ঘটনাকে দুর্ভাগ্যজনক উল্লেখ করে জাতীয় দলের কোচ বলেন, ‘এমনিতে চোট বেশি গুরুতর না; কিন্তু হাতের তালু নিয়ে আমরা একটু চিন্তিত। যেহেতু টেস্ট আগে এবং ওয়ানডে সিরিজের আগে সময় আছে; আশা করি, সে সেরে উঠবে। তাকে সেরে ওঠার সর্বোচ্চ সুযোগ দেয়া হবে।’

প্রকাশিত : ৫ জুন ২০১৫

০৫/০৬/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: