মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১১ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

সাইথিয়ান্সদের সোনার বাসন

প্রকাশিত : ২ জুন ২০১৫
সাইথিয়ান্সদের সোনার বাসন

আড়াই হাজার বছর আগে রাশিয়ায় বাস করত সাইথিয়ান্স নামক এক উপজাতি। যোদ্ধা হিসেবে বেশ সুনাম ছিল তাদের। সেই উপজাতিদের ব্যবহার করা অসংখ্য সোনার বাসনপত্র খুঁজে পেয়েছে প্রতœতত্ত্ববিদরা। তারা মাটি খুড়তে গেলে একটি বিশাল আকৃতির পাথর দেখতে পায়। পাথরটি সরাতে তাদের নাভিশ্বাস উঠে যাওয়ার মতো অবস্থা হয়। বহু কসরতের পর বিশাল আকৃতির পাথরটি সরাতেই চোখ কপালে প্রতœতাত্ত্বিকদের। নানা আকৃতির পাত্র। অনেক। বাটি, গ্লাস, বাসন, গয়না আরও কত কী। সবই খাঁটি সোনার। প্রতœতত্ত্ববিদরা ধারণা করছেন, সাইথিয়ান্স উপজাতির রাজারা বিভিন্ন আনন্দানুষ্ঠানে ওই সোনার পাত্রগুলোতে সিদ্ধি, গাঁজা সেবন করত। প্রাচীন গ্রীসের ইতিহাসবিদ হেরোডোটাস তাঁর বইতে সাইথিয়ান্সদের সম্পর্কে লিখেছিলেন, ‘সাইথিয়ান্সরা ধূমপানের জন্য গাঁজার চাষ করত এবং তাদের গলার আওয়াজের খুব জোর ছিল।’

প্রতœতত্ত্ববিদরা জানিয়েছেন, খ্রিস্টপূর্ব ৯ শতক থেকে ৪ খ্রিস্টাব্দের মাঝামাঝি কোন সময়ে বেশ কিছুকাল ইউরোপ ও এশিয়ার একটা বড় অংশ শাসন করেছিল সাইথিয়ান্স উপজাতি। এই উপজাতি রাজাদের মধ্যে গাঁজা, ভাং প্রভৃতি নানা নেশা খবুই জনপ্রিয় ছিল। বিশেষ করে অনুষ্ঠানে বা যুদ্ধের পরিকল্পনার আগে রাজাদের নেশা করার জন্য সোনার পাত্র ব্যবহার করা হতো। উদ্ধার হওয়া পাত্রগুলো ওই রাজাদেরই। সোনার পাত্র ও গয়নাগুলোকে আপাতত রাশিয়ার একটি মিউজিয়ামে রাখা হয়েছে।

সূত্র : ওয়েবসাইট

প্রকাশিত : ২ জুন ২০১৫

০২/০৬/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

প্রথম পাতা



ব্রেকিং নিউজ: