মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১১ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

সংসদের বাজেট অধিবেশন কাল শুরু

প্রকাশিত : ৩১ মে ২০১৫

সংসদ রিপোর্টার ॥ দশম জাতীয় সংসদের বাজেট অধিবেশন আগামীকাল সোমবার বিকেল সাড়ে ৫টায় শুরু হচ্ছে। এটি বর্তমান দশম জাতীয় সংসদের ষষ্ঠ অধিবেশন। গত ১১ মে রাষ্ট্রপতি মোঃ আবদুল হামিদ সংবিধানের ৭২ অনুচ্ছেদের (১) দফায় প্রদত্ত ক্ষমতাবলে এ অধিবেশন আহ্বান করেন। এ অধিবেশনে ২০১৫-১৬ অর্থবছরের বাজেট পেশ করা হবে। আগামী ৪ জুন বিকেল ৩টায় অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত এ বাজেট উপস্থাপন করবেন।

সংসদ সচিবালয়ের পক্ষ থেকে ইতোমধ্যে বাজেট অধিবেশনের সার্বিক প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে বলে জানানো হয়েছে। তবে আগামী সোমবার অধিবেশন শুরুর আগে বিকেল ৪টায় স্পীকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিতব্য সংসদের কার্যোপদেষ্টা কমিটির সভায় ষষ্ঠ অধিবেশনের মেয়াদসহ কার্যক্রম চূড়ান্ত করা হবে। তবে বাজেট অধিবেশনটি হবে দীর্ঘ। সংসদ সচিবালয় থেকে জানানো হয়, বাজেট অধিবেশনে বাজেট কার্যক্রমের বাইরে বেশ ক’টি গুরুত্বপূর্ণ বিল উত্থাপন ও পাস হতে পারে। এদিকে, একনেকের বৈঠকে স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠানসমূহের জন্য বরাদ্দসহ আগামী অর্থবছরের জন্য মোট ১ লাখ ৯৯৭ কোটি টাকার বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচী অনুমোদন দেয়া হয়েছে। গত ১৪ মে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ সভায় এ অনুমোদন দেয়া হয়। এছাড়া আগামী অর্থবছরের বাজেটের আকার ২ লাখ ৯৭ হাজার কোটি টাকার বেশি হতে পারে। এর মধ্যে মোট রাজস্ব আয় ১ লাখ ৯৭ হাজার কোটি টাকা ধরা হতে পারে। এ আয়ের মধ্যে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড খাতে ১ লাখ ৭৬ হাজার কোটি টাকা এবং বাকি অর্থ এনবিআর বহির্ভূত খাত হতে আয় ধরা হতে পারে। জিডিপির লক্ষ্যমাত্রা ৭ দশমিক ৬ নির্ধারণ করা হচ্ছে বলে জানা গেছে।

এর আগে গত ১৯ জানুয়ারি দশম জাতীয় সংসদের পঞ্চম অধিবেশন শুরু হয়ে গত ২ এপ্রিল শেষ হয়। বছরের প্রথম অধিবেশন হিসেবে সংবিধান অনুযায়ী রাষ্ট্রপতি মোঃ আবদুল হামিদ ওই দিন সংসদে ভাষণ দেন। রাষ্ট্রপতির ভাষণের ওপর ৩৭ কার্য দিবসে প্রায় ৬০ ঘণ্টা ৩০ মিনিট আলোচনা অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনায় ২৩৬ সংসদ সদস্য অংশগ্রহণ করেন। পঞ্চম অধিবেশনে মোট ৩৯ কার্যদিবসের এ অধিবেশনে সরকারী ১১টি বিলের মধ্যে ৮টি বিল পাস হয়।

কর্মক্ষেত্রে নারী বিভিন্ন সমস্যার সম্মুখীন হয়Ñ স্পীকার ॥ কর্মক্ষেত্রে নারী বিভিন্ন সমস্যার সম্মুখীন হয় উল্লেখ করে দেশের সব প্রতিষ্ঠানে নারীবান্ধব পরিবেশ নিশ্চিতের আহ্বান জানিয়েছেন জাতীয় সংসদের স্পীকার ও সিপিএ নির্বাহী কমিটির চেয়ারপার্সন ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী। বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক কাউন্সিল ভবনে শনিবার ওমেন আর্কিটেক্ট, ইঞ্জিনিয়ার্স, প্যানার্স এ্যাসোসিয়েশনের বার্ষিক সাধারণ সভা ও সনদ বিতরণ অনুষ্ঠানে তিনি এ আহ্বান জানান।

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ও ওমেন আর্কিটেক্ট, ইঞ্জিনিয়ার্স, প্যানার্স এ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি প্রফেসর খালেদা একরাম অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন। এ সময় বক্তব্য রাখেন ওমেন আর্কিটেক্ট, ইঞ্জিনিয়ার্স, প্যানার্স এ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক সেলিনা আফরোজা, প্রফেসর গোলাম রহমান এবং প্রফেসর এম এ রউফ।

নারী ক্ষমতায়নে বাংলাদেশকে বিশ্বের রোল মডেল হিসেবে তুলে ধরে স্পীকার বলেন, বাংলাদেশ জেন্ডার সমতা অর্জনে অনেকদূর এগিয়েছে। মাতৃমৃত্যু শিশুমৃত্যু হার হ্রাসসহ এমডিজির বিভিন্ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে বাংলাদেশ অনন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে। তিনি বলেন, নারী ক্ষমতায়ন ও জেন্ডার সমতা নিশ্চিত করতে হলে সমস্যাগুলো চিহ্নিত করে কর্মক্ষেত্রে নারীবান্ধব পরিবেশ নিশ্চিত করতে হবে। নারীর জন্য অধিক কর্মসংস্থান সৃষ্টির পাশাপাশি তাদের প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে।

নারী ক্ষমতায়ন ও জেন্ডার সমতা নিশ্চিতকরণে সরকার কাজ করে যাচ্ছে উল্লেখ করে শিরীন শারমিন বলেন, এ বিষয়ে সরকারের পাশাপাশি বেসরকারী প্রতিষ্ঠানকেও এগিয়ে আসতে হবে। নারীকে সব পেশায় এগিয়ে নিতে যেসব চ্যালেঞ্জ রয়েছে মোকাবেলা করে নারীর ক্ষমতায়নকে টেকসই করতে সবাইকে একযোগে কাজ করার আহ্বান জানান তিনি।

প্রকাশিত : ৩১ মে ২০১৫

৩১/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

প্রথম পাতা



ব্রেকিং নিউজ: