কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৫ ডিসেম্বর ২০১৬, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

গাজীপুরে নৌকায় গণধর্ষণ ॥ আটক ২ মাঝি ৫ দিনের রিমান্ডে

প্রকাশিত : ৩০ মে ২০১৫, ০১:১৪ এ. এম.

নিজস্ব সংবাদদাতা, গাজীপুর, ২৯ মে ॥ গাজীপুরের কালীগঞ্জে নৌকায় গণধর্ষণের ঘটনায় পুলিশ নৌকার দুই মাঝিকে গ্রেফতার করেছে। শুক্রবার আদালত গ্রেফতারকৃত প্রত্যেককে ৫ দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেছে। এ ঘটনায় কালীগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের হয়েছে।

কালীগঞ্জ থানার পরিদর্শক নিতাই চন্দ্র সরকার জানান, নরসিংদীর পলাশ এলাকার প্রাণ (আরএফএল) কোম্পানির এক নারী শ্রমিক কাজ শেষে সোমবার রাতে গাজীপুরের কালীগঞ্জের নারগানায় নিজ বাড়িতে ফেরার পথে সহকর্মীদের সঙ্গে ওই কোম্পানির একটি নৌকায় ওঠে। নৌকাটি শীতলক্ষ্যা নদীর ফকিরবাড়ি ঘাটে ভিড়লে আরোহীরা নেমে যায়। এ সময় নৌকার মাঝি মোক্তারপুর গ্রামের মোঃ হেলালের ছেলে আল-আমিন (২৫) ও খোরশেদ আলমের ছেলে ফাহিম (২৫) কৌশলে ওই নারী শ্রমিকের মুখে গামছা বেঁধে নৌকাসহ সাওরাইতঘাট এলাকার দিকে নিয়ে যায়। তারা মধ্যরাত পর্যন্ত নৌকাতে ওই নারীকে পালাক্রমে ধর্ষণ করে। এর পর ধর্ষকরা কোম্পানির অপর নৌকার দুই মাঝি একই গ্রামের রিপনের ছেলে ফারুক (২৪) ও রতন শেখের ছেলে শরীফকে (২৬) মুঠোফোনে সেখানে ডেকে আনে। আল আমিন ও ফাহিম ওই নারী শ্রমিককে ফারুক ও শরীফের কাছে হস্তান্তর করে চলে যায়। পরে ফারুক এবং শরীফও রাতভর নৌকায় ওই নারীকে পালাক্রমে ধর্ষণ করে। পরদিন ভোর সাড়ে চারটার দিকে সাওরাইত ঘাট এলাকায় ওই নারীকে নৌকা থেকে নামিয়ে দিয়ে পালিয়ে যায়। পরে রিকশাযোগে সেখান থেকে ওই নারী ধনবাড়ি এলাকায় তার বোনেরবাড়ি ওঠে এবং ঘটনা খুলে বলে। এ ঘটনায় ধর্ষিতা বাদী হয়ে বৃহস্পতিবার বিকেলে কালীগঞ্জ থানায় মামলা করেছে। মামলায় ওই চারজনকে আসামি করা হয়েছে। পুলিশ পরে মোক্তারপুর থেকে ধর্ষক ফারুক ও শরীফকে গ্রেফতার করে।

গাজীপুর আদালতের ইন্সপেক্টর রবিউল ইসলাম জানান, পুলিশী জিজ্ঞাসাবাদের জন্য দশদিনের রিমান্ড চেয়ে শুক্রবার দুপুরে গ্রেফতারকৃতদের গাজীপুরের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ফারজানা খানমের আদালতে হাজির করে। শুনানি শেষে আদালত তাদের প্রত্যেককে ৫ দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেছে।

প্রকাশিত : ৩০ মে ২০১৫, ০১:১৪ এ. এম.

৩০/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: