মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১১ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

বগুড়ায় একজনের ফাঁসি কুষ্টিয়ায় ৯ আসামির যাবজ্জীবন

প্রকাশিত : ২৬ মে ২০১৫
  • হত্যা মামলা

স্টাফ রিপোর্টার, বগুড়া অফিস ॥ বগুড়ায় পাবনা মানসিক হাসপাতালের নার্স হোসনে আরা সোনালী (৩৭) হত্যা মামলায় আরিফুল বারী (৪১) নামের এক ব্যক্তির মৃত্যুদণ্ডাদেশ হয়েছে। বগুড়ার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালত সোমবার এ দণ্ডাদেশ দেন।

মামলা সূত্রে জানা যায়, পাবনা সদরের শালগাড়িয়া এলাকার বাসিন্দা সোনালী এক সময় বগুড়ার শেরপুরে ব্র্যাক হাসপাতালে চাকরি করতেন। দাম্পত্য কলহে ইতোপূর্বে স্বামীর সঙ্গে তার ডিভোর্স হয়। তার মেয়ে বগুড়ার উপশহর এলাকার একটি আবাসিক স্কুলের শিক্ষার্থী। একই স্কুলে পাবনার আটোয়া এলাকার আরিফুল বারির মেয়েও লেখাপড়া করত। সেখানে আরিফুলের সঙ্গে সোনালীর পরিচয় ও পরে গভীর সম্পর্ক গড়ে ওঠে। ২০১২ সালের ২৮ মে সোনালী ও আরিফুল বারী নিজদের স্বামী-স্ত্রীর পরিচয় দিয়ে বগুড়ার শেরপুর উপজেলার উলিপুরে শাহাদত হোসেনের বাড়িতে ওঠে। পরের দিন সকালে বাথরুমে সোনালীর লাশ পাওয়া যায়। আরিফুল ওই রাতেই ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়। মামলায় গ্রেফতারকৃত আরিফুল হত্যার কথা স্বীকার করে জবানবন্দী দেন। চার্জশীট দাখিলের পর সাক্ষ্য-প্রমাণ শেষে অভিযোগ প্রমানিত হওয়ায় আদালত মামলার রায়ে আসামি আরিফুলের মৃত্যুদণ্ডাদেশ দেন।

নিজস্ব সংবাদদাতা কুষ্টিয়া থেকে জানান, একটি হত্যা মামলায় এক মহিলাসহ ৯ আসামিকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদ- দিয়েছে কুষ্টিয়া আদালত। সোমবার দুপুরে কুষ্টিয়ার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালত-১ এর বিচারক রেজা মোহাম্মদ আলমঙ্গীর হাসান এ রায় প্রদান করেন। জেলার ভেড়ামারা উপজেলার রামকৃষ্ণপুর গ্রামের সালেহ আহমেদ শিশিরের চার বছর বয়সী শিশু আলিফকে অপহরণ ও শ্বাসরোধ করে হত্যার দায়ে আসামিদের বিরুদ্ধে ওই রায় প্রদান করা হয়। দ-প্রাপ্তরা হলেন ভেড়ামারা উপজেলার মোকারিমপুর ইউনিয়নের আক্তার গাজী ওরফে আলতাফ, ওবাইদুল আক্তার ওরফে আজাদ, রিজিয়া খাতুন, মিনহাজ, হায়তুল হোসেন, আনোয়ারুল ইসলাম, এনামুল হক, আসাদুল হক ও শাহাবুল হক। আদালত সূত্র জানায়, ২০১১ সালের ২ ফেব্রুয়ারি ভেড়ামারা উপজেলার রামকৃষ্ণপুর গ্রামের সালেহ আহমেদ শিশিরের চার বছর বয়সী শিশু আলিফ নিখোঁজ হয়। নিখোঁজের সাতদিন পরে পার্শ্ববর্তী মাঠ থেকে আলিফের লাশ উদ্ধার করা হয়। হত্যাকারীরা তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে। সাক্ষ্য-প্রমাণ শেষে আসামিদের বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় সোমবার বিচারক ৯ আসামির সশ্রম যাবজ্জীবন কারাদ- প্রদান করেন। সাজাপ্রাপ্তদের ৮ জনই কুষ্টিয়া কারাগারে রয়েছে। তবে একজন এখনও পলাতক রয়েছে।

প্রকাশিত : ২৬ মে ২০১৫

২৬/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



ব্রেকিং নিউজ: