রৌদ্রজ্জ্বল, তাপমাত্রা ২৩.৯ °C
 
৮ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

শব-ই-বরাতের রান্না

প্রকাশিত : ২৫ মে ২০১৫
  • শামীমা বেগম

ছোলার ডালের সোনালি বরফি

যা লাগবে: ছোলার ডাল হাফ কেজি, ১ কেজি তরল দুধ, গুয়ঁড়া দুধ ২-৩ কাপ, গোলাপজল ১ টেঃ চামচ, চিনি হাফ কেজি, ঘি ১ কাপ, দারচিনি ৪ টুকরা।

যেভাবে করবেন : ছোলার ডাল ধুয়ে তরল দুধ হলে দুধ দিয়ে ফুটাতে হবে। ফুটে গেলে পাটায় বাটতে হবে। চিনিতে কাপ পানি দিয়ে সিরা করতে হবে। অল্প একটু দুধ দিয়ে জ্বাল দিলে ময়লা কেটে যাবে। তখন ছেঁকে নিতে হবে। পাত্রে ঘি দিয়ে চুলায় জ্বাল দিয়ে ঘি গরম হলে ডাল বাটা ও সিরা দিয়ে ভাল করে মিশিয়ে ঘির মধ্যে ছেড়ে দিয়ে নাড়াচাড়া করতে হবে, খুব ঘন ঘন। দারচিনি দিয়ে ফুটে উঠলে ঘন ঘন নেড়ে হালুয়া কষাতে হবে। হালুয়া যখন তাল বাঁধবে তখন গোলাপজল দিয়ে কষাতে হবে। হালুয়া যখন পাত্র থেকে ছেড়ে আসবে তখন নামাতে হবে। বড় একটা পাত্রে নামিয়ে ঠা-া হয়ে গেলে সমান করে চার কোণা করে বরফি আকার করে বা ছাঁট দিয়ে নক্সা করে নিতে পারেন। ইচ্ছা হলে পেস্তা বা বাদাম, কিসমিস দিয়ে পরিবেশন করুন। হয়ে যাবে মজাদার সোনালি বরফি।

চাল কুমড়ার হালুয়া

যা লাগবে : পাকা চাল কুমড়া ৪ কাপ, দারচিনি ২ টুকরা, চিনি ৩ কাপ, গোলাপজল ২ টেঃ চামচ, ঘি বা সয়াবিন ১ কাপ, জাফরান সামান্য।

যেভাবে করবেন : চাল কুমড়া খোসা ছাড়িয়ে টুকরা করবেন। বিচিসহ নরম অংশ কেটে বাদ দেবেন। টুকরা করে সেদ্ধ করবেন। পানি ঝরিয়ে বেটে নেবেন এবং কাপ দিয়ে মেপে নেবেন ৪ কাপ। কুমড়া, চিনি, ঘি, দারচিনি ও জাফরান একসঙ্গে মিশিয়ে চুলায় দেবেন। পানি শুকিয়ে গেলে নেড়ে নেড়ে কষা করতে হবে। গোলাপজল দিয়ে হালুয়া আবারও কষাতে হবে। ঘি বের হয়ে এলে নামিয়ে নিতে হবে। পেঁপে, গাজরও এভাবে হালুয়া বানানো যায়।

নারকেলের ছাপ সন্দেশ

যা লাগবে : নারকেল বাটা ২ কাপ, ঘি ১ টেঃ চামচ, গুঁড়া চিনি ১ কাপ, এলাচ ৪টি, গুঁড়া দুধ ৪ টেঃ চামচ বা কাপ।

যেভাবে করবেন: এলাচের দানা বের করে গুঁড়া করবেন একটু চিনি দিয়ে।

ফ্রাইপ্যানে সব উপকরণ একসঙ্গে নিয়ে কাঠের চামচ দিয়ে ভালভাবে মেশাতে হবে। মাঝারি আঁচে চুলায় দিয়ে নাড়তে হবে। ১০-১২ মিনিট পরে আঁচ অনেক কমিয়ে দেবেন। দানা বেঁধে উঠলে এবং আঠালো ভাব হলে নামাবেন। একটি বড় পাত্রে ঢেলে ঠা-া করতে হবে। ৪-৫মিঃ পরে সব হালুয়া একসঙ্গে গোল করে নেবেন। পিঠার ছাঁচে এক টেবিল চামচ নিয়ে চেপে নক্সা করে ছাপ সন্দেহ ট্রেতে সাজিয়ে রাখবেন। কয়েক ঘণ্টা পরে ছাপ সন্দেশ ঠিকমতো জমে যাবে। হয়ে গেল ছাপ সন্দেশ।

ডিমের স্নো বল

যা লাগবে : ডিম ২টি (বাড়াতে পারেন ইচ্ছা হলে), চিনি ২টেঃ চামচ (বাড়াতে পারেন ইচ্ছা হলে), দুধ কাপ, লেবুর রস ১ টেঃ চামচ, ঘি ২টেঃ চামচ।

যেভাবে করবেন : ডিম ফেটে দুধ, চিনি এবং লেবুর ১টেঃ চামচ মেশাতে হবে। সসপ্যানে নিয়ে মৃদু আঁচে চুলায় দিতে হবে। ঘন ঘন নাড়তে হবে। ডিম জমাটবেঁধে বুন্দিয়ার মতো ছোট ছোট গুঁটি বাঁধলে ঘি দিয়ে ভালভাবে নাড়াচাড়া করতে হবে। ঘি মিলিয়ে গেলে নামিয়ে নিতে হবে। হয়ে যাবে ডিমের স্নো বল।

ডিমের হালুয়া

যা যা লাগবে : ডিম ৪টি, এলাচ ২টি, চিনি আধাকাপ, দারচিনি ২ টুকরা, দুধ (ঘন) কাপ, গোলাপজল ২ টেঃ চামচ, ঘি কাপ, জাফরান ইচ্ছামতো।

যেভাবে করবেন : গোলাপজলে জাফরান ভিজিয়ে রাখবেন। ডিম কাঁটা চামচ দিয়ে অল্প ফেটবেন। সব উপকরণ একসঙ্গে মেশাবেন। মৃদু আঁচে চুলায় দিয়ে নাড়তে থাকবেন। খুব সাবধানে নাড়তে হবে যেন তলায় না লাগে। ডিম জমাটবেঁধে মিহি দানার মতো হবে। পানি শুকিয়ে ঘি বের হলেই নামিয়ে নাড়তে হবে। বেশিক্ষণ ভাজলে হালুয়া শক্ত হয়ে যাবে। পরিবেশন পাত্রে ঢেলে উপরে মাওয়া বা পেস্তা বাদাম কুচি দিয়ে সাজিয়ে পরিবেশন করুন।

প্রকাশিত : ২৫ মে ২০১৫

২৫/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: