রৌদ্রজ্জ্বল, তাপমাত্রা ২৩.৯ °C
 
৮ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

সবার নজর সেরেনা-শারাপোভায়

প্রকাশিত : ২৪ মে ২০১৫

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ বর্তমান বিশ্ব টেনিসের সেরা দুই তারকা সেরেনা উইলিয়ামস ও মারিয়া শারাপোভা। গত একদশক ধরে পাদপ্রদীপের আলোয় তারা। আজ থেকে শুরু মৌসুমের দ্বিতীয় গ্র্যান্ডস্লাম টুর্নামেন্টেও তার ব্যতিক্রম নয়। টেনিসপ্রেমীদের সবারই নজর এই দুই তারকার দিকে। বিশ্ব টেনিস র‌্যাঙ্কিংয়ের নাম্বার ওয়ান তারকা সেরেনা উইলিয়ামস। শুক্রবারের ড্র অনুযায়ী ফ্রেঞ্চ ওপেনের শীর্ষ বাছাই নির্বাচিত হয়েছেন তিনি। অন্যদিকে র‌্যাঙ্কিং অনুযায়ী টুর্নামেন্টের দ্বিতীয় বাছাই হয়েছেন রুশ সুন্দরী শারাপোভা। দু’জনই রোঁলা গ্যারোয় দুইবার করে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করেছেন। তাই এবার একজন আরেকজনকে ছাড়িয়ে যাওয়ার চ্যালেঞ্জ নিয়েই কোর্টের লড়াই শুরু করবেন।

বর্তমান সময়ে টেনিস কোর্টের রানী বলা হয় সেরেনা উইলিয়ামসকে। বড় টুর্নামেন্টের আগে ফেবারিটের তকমাটা সবসময়ই গায়ে মাখানো থাকে তার। কিন্তু ফ্রেঞ্চ ওপেনেই যেন একটু বেশি চিন্তিত থাকেন আমেরিকান তারকা। এর পেছনে কারণটাও সুস্পষ্ট। অস্ট্রেলিয়ান ওপেন, উইম্বলডন কিংবা ইউএস ওপেন সবটিতেই পাঁচ বা তার অধিক শিরোপা জয়ের রেকর্ড রয়েছে তার। মৌসুমের দ্বিতীয় গ্র্যান্ডস্লাম টুর্নামেন্টেই মাত্র দুইবার চ্যাম্পিয়ন। ২০০২ সালে প্রথমবারের মতো শিরোপা জয়ের হাসি হাসেন তিনি। দ্বিতীয়টি এক যুগ পর। তাই এখানে আরও বেশি ভাল করার প্রত্যয় সেরেনা উইলিয়ামসের কণ্ঠে- ‘আমার শোকেসে তিন গ্র্যান্ডস্লামের ট্রফিগুলো পাঁচ ও ছয়ের মধ্যে। একমাত্র ফ্রেঞ্চ ওপেনই দুটি। এখানে খুব বেশি ভাল খেলতে পারিনি। তবে এবার অতীতের পরিসংখ্যানটাকে বদলে দিতে চাই।’ বর্তমানে সেরেনা উইলিয়ামসের প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী ভাবা হয় মারিয়া শারাপোভাকে। এবার যেন দুই প্রতিদ্বন্দ্বীর উত্তাপটা আরও বেশি। কেননা ফ্রেঞ্চ ওপেনে সমান দু’বার করে শিরোপা জেতায় এবার একে অপরকে ছাড়িয়ে যাওয়ার চ্যালেঞ্জ তাদের দু’জনের সামনে। তাই সতর্ক সেরেনা উইলিয়ামস, ‘গত কয়েক বছর যাবত সব টুর্নামেন্টেই শারাপোভার প্রধান প্রতিপক্ষ ভাবা হচ্ছে আমাকে। ফ্রেঞ্চ ওপেনে তা আরও জোরালোভাবে। দু’জনেরই শিরোপা দুটি করে। যে জিতবে সেই এগিয়ে যাবে। এ বিষয়টি আমার মস্তিষ্কে আছে।’ ২০০৪ সালে প্রথম গ্র্যান্ডস্লাম জিতেন শারাপোভা। সেটি ছিল উইম্বলডন। এরপর ২০০৬ সালে ইউএস ওপেন এবং ২০০৮ সালে অস্ট্রেলিয়ান ওপেন জিতেন তিনি। তবে ফ্রেঞ্চ ওপেনে শ্রেষ্ঠত্বের মুকুট পরতে পারছিলেন না এই রুশ সুন্দরী। অবশেষে ২০১২ সালে সেই আক্ষেপ ঘুচে তার। ইতালির সারা ইরানিকে হারিয়ে শিরোপা জিতেন তিনি। এরপর গত তিন বছরে দুইবার ফ্রেঞ্চ ওপেনের শিরোপা নিজের করে নেন শারাপোভা। টুর্নামেন্টের বর্তমান চ্যাম্পিয়ন হওয়ার কারণে এবারও ফেবারিট তিনি। তৃতীয় শিরোপা জয়ের ব্যাপারে বেশ আত্মবিশ্বাসী টেনিস র‌্যাঙ্কিংয়ের দুই নাম্বার এই তারকা- ‘এই টুর্নামেন্ট নিয়ে আমি অনেক বেশি রোমাঞ্চিত। কারণ শেষবার এখানে আমি চ্যাম্পিয়ন হয়েছি। আশা করি এবারও জিতব। তবে এজন্য ভাল খেলতে হবে। সেই প্রস্তুতিটাও ভালভাবে নিয়েছি।’ ফ্রেঞ্চ ওপেনের আগে গত সপ্তাহেই ইতালিয়ান ওপেনের শিরোপা জিতেন শারাপোভা।

তাই ফুরফুরে মেজাজে রয়েছেন মাশা। রোমের শিরোপা যে রোঁলা গ্যারোয় দারুণ উৎসাহ যোগাবে সেটাও স্বীকার করেছেন ২৮ বছর বয়সী এই তারকা- ‘খুবই ভাল সময় নিয়ে এখানে এসেছি। ফ্রেঞ্চ ওপেনে খেলার জন্য আমি মুখিয়ে আছি। রোমের শিরোপা আমাকে ভাল খেলতে উৎসাহিত করবে।’ এ সময় সেরেনার সঙ্গে লড়াইটা যে জম্পেশ হবে সেটাও জানিয়েছেন পাঁচটি গ্র্যান্ডস্লাম জয়ী শারাপোভা। এ বিষয়ে তার অভিমত হলো- ‘প্রতিপক্ষ হিসেবে সেরেনা অনেক বেশি শক্তিশালী। তার সঙ্গে টুর্নামেন্টে দেখা হবে কিনা তা জানি না। তবে শিরোপা জিততে পারলে তাকে যে ছাড়িয়ে যাব সেটা নিশ্চিত। আর তা করতে পারলে অন্তত এটা বলতে পারব যে সেরেনার চেয়ে একদিক দিয়ে এগিয়ে আছি আমি।’ টুর্নামেন্টের শীর্ষ দুই তারকা সেরেনা-শারাপোভা ছাড়া মহিলা এককে তেমনভাবে ফেবারিট কেউ নেই। তবে নিজেদের সেরাটা দিয়ে শিরোপা জেতার আপ্রাণ চেষ্টা করছেন তৃতীয় স্থানে থাকা রোমানিয়ার সিমোনা হ্যালেপ ও সপ্তম স্থানে থাকা সার্বিয়ার আনা ইভানোভিচ।

প্রকাশিত : ২৪ মে ২০১৫

২৪/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: