কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

টেলিকম খাতে কর্পোরেট কর হার কমছে

প্রকাশিত : ২১ মে ২০১৫

অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ আসন্ন বাজেটে টেলিকম খাতে কর্পোরেট কর হার কমছে। ব্যবসায়ী সংগঠনসহ সব মহল থেকে কর্পোরেট করের হার কমানোর দাবি উঠলেও কেবলমাত্র টেলিকম খাতেই কর্পোরেট কর হার কমানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার।

আগামী ২০১৫Ñ১৬ অর্থবছরের খসড়া বাজেটে পুঁজিবাজারে তালিকা বহির্ভূত মোবাইল কোম্পানির কর্পোরেট কর ২ দশমিক ৫ শতাংশ কমানোর প্রস্তাব করা হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর) সূত্র। তবে বৃহস্পতিবার গণভবনে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে বিষয়টি চূড়ান্ত হবে জানিয়েছে সূত্র।

এনবিআর সূত্র জানায়, ব্যবসায়ীদের দাবি ও অন্য সব দেশের তুলনায় বাংলাদেশে টেলিকম খাতে করের হার অনেক বেশি হওয়ায় অর্থমন্ত্রীর নির্দেশে আগামী বাজেটে এ হার পুনর্নির্ধারণ করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। এ লক্ষ্যে খসড়া প্রস্তুত করে বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রীর কাছে দেয়া হবে।

মোবাইল কোম্পানির ক্ষেত্রে বর্তমানে করের হার পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানির ক্ষেত্রে ৪০ শতাংশ। তালিকা বহির্ভূত কোম্পানির ক্ষেত্রে ৪৫ শতাংশ নির্ধারিত রয়েছে। আগামী বাজেটে এ হার তালিকা বহির্ভূত কোম্পানির জন্য ২ দশমিক ৫ শতাংশ কমিয়ে ৪২ দশমিক ৫ শতাংশ করা হচ্ছে। আর অপরিবর্তিত থাকছে তালিকাভুক্ত কোম্পানির কর হার।

এ প্রসঙ্গে এনবিআর এক কর্মকর্তা বলেন, সব খাতে কর্পোরেট কর কমানোর পরিকল্পনা থাকলেও রাজস্ব আহরণের বিশাল লক্ষ্যমাত্রা থাকায় এ বছর শুধু টেলিকম খাতে এ কর কমানো হবে। পর্যায়ক্রমে অন্যান্য খাতে এ করের হার কমবে।

টেলিকম খাতের করের হার কমানো প্রসঙ্গে বেসরকারী গবেষণা প্রতিষ্ঠান পলিসি রিসার্চ ইনস্টিটিউট (পিআরআই) নির্বাহী পরিচালক ড. আহসান এইচ মনসুর বলেন, বাংলাদেশে কর্পোরেট করের হার অনেক বেশি। টেলিকম খাতে এ হার সবচেয়ে বেশি। তাই টেলিকম খাতে কর্পোরেট কমানো জরুরী ছিল।

তিনি বলেন, বাংলাদেশে মোবাইল ফোন কোম্পানিগুলোকে সব মিলিয়ে ৫৬ শতাংশ কর দিতে হয়। আর চীনে এ করের হার ৩ শতাংশ। প্রতিবেশী দেশ শ্রীলঙ্কায় এ হার ২৮ শতাংশ এবং পাকিস্তানে ২৪ শতাংশ।

এ বিষয়ে এ্যাসোসিয়েশন অব মোবাইল টেলিকম অপারেটস বাংলাদেশের (এমটব) সাধারণ সম্পাদক টিআইএম নুরুল কবির বলেন, মোবাইল কোম্পানিগুলো থেকে এখন স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর সিগারেটের সমান কর্পোরেট কর কাটা হয়। অথচ মোবাইল মানুষের নিত্য প্রয়োজনীয় বস্তু। এর ওপর কর্পোরেট কর সাধারণ কোম্পানির ন্যায় করা দরকার।

তিনি বলেন, মোবাইল কোম্পানিগুলো সাধারণ গ্রাহকদের কাছে একটি সিম ১৫০ থেকে ২০০ টাকা বিক্রি করলে এনবিআরকে ৩০০ টাকা সিম ট্যাক্স দিতে হয়। কর্পোরেট কর কমানোর পাশাপাশি সিম ট্যাক্স কমানো না হলে কাক্সিক্ষত মুনাফা অর্জন সম্ভব হবে না মোবাইল অপারেটরদের।

প্রকাশিত : ২১ মে ২০১৫

২১/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: