মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
৯ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শুক্রবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

মুজাহিদের আপীল শুনানি এ মাসেই শেষ হতে পারে

প্রকাশিত : ১৯ মে ২০১৫

স্টাফ রিপোর্টার ॥ একাত্তরে মুক্তিযুদ্ধের সময় মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগে মৃত্যুদ-প্রাপ্ত জামায়াতের সেক্রেটারি জেনারেল আলী আহসান মোহাম্মদ মুজাহিদের আপীলের যুক্তিতর্ক শেষ হতে চার থেকে ছয় কার্যদিবস সময় লাগতে পারে বলে জানিয়েছেন এ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম। মুজাহিদের মামলায় প্রথম দিনের যুক্তি উপস্থাপন শুরু করার পরে এ্যাটর্নি জেনারেল তার কার্যালয়ে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন। এদিকে মুজাহিদের আপীলের পেপার বুক থেকে পড়া শেষ করেছেন আসামিপক্ষের আইনজীবী। রবিবার থেকে আসামিপক্ষের আইনজীবীর যুক্তিতর্ক শুরু করার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। সোমবার প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার নেতৃত্বে চার সদস্যের আপীল বিভাগ ষষ্ঠ দিনের মতো শুনানি গ্রহণ করে রবিবার এ আদেশ প্রদান করেছেন। বেঞ্চের অপর তিন সদস্য হলেন বিচারপতি নাজমুন আরা সুলতানা, বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন ও বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকী।

গত ১৫ এপ্রিল আপীল বিভাগ আপীলের ওপর শুনানির জন্য ২৮ এপ্রিল দিন ধার্য করে। তবে ঐদিন সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন উপলক্ষে সাধারণ ছুটি থাকায় শুনানি হয়নি। প্রায় ২১ মাস পর ২৯ এপ্রিল আপীলের ওপর শুনানি শুুরু হয়। এরপর ৪, ৫, ৬, ১৭ ও ১৮ মে শুনানি গ্রহণ করে আদালত। আপীল বিভাগের আদেশের পর এ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম তার কার্যালয়ে সাংবাদিকদের বলেন, মুজাহিদের আপীলের যুক্তিতর্ক শেষ হতে চার থেকে ছয় কার্যদিবস সময় লাগতে পারে। ‘আশা করি এই মাসের মধ্যেই মুজাহিদের মামলার আপীল শুনানি শেষ হতে পারে, ‘যুক্তিতর্ক শেষ হতে আমার ধারণা ৪ থেকে ৬ কার্যদিবস লাগতে পারে। যদি আসামিপক্ষের আইনজীবী ও আমরা যদি শুনানি করতে পারি। তিনি বলেন, কোন বিচারপতি যদি অসুস্থ না হয়ে যান, অন্য কোন ঘটনা না ঘটে, আইনজীবী যদি অসুস্থ না হয়ে যান, অন্য কোন গুরুত্বপূর্র্ণ মামলা মাঝখানে তালিকায় চলে না আসলে আশা করা যায় এই মাসের ভেতর আপীলের শুনানি শেষ হতে পারে।’ যেহেতু ছয় দিনে মামলায় প্রসিকিউশনের আনা সাক্ষী, অভিযোগ ও রায়ের অংশ পাঠ করে শেষ করা হয়েছে সেহেতু আসামিপক্ষ এবং আমাদের মিলিয়ে চার বা ছয় কার্যদিবস যুক্তি উপস্থাপন করলেই শেষ হতে পারে বলে অভিমত ব্যক্ত করেন মাহবুবে আলম।

সোমবার মুজাহিদের পক্ষে তার আইনজীবী এসএম শাহজাহান ট্রাইব্যুনালের মামলায় রায়, সাক্ষীদের সাক্ষ্য এবং পেপারবুক পাঠ শেষ করেন। এরপর আদালত আসামিপক্ষের আইনজীবীকে তাদের যুক্তি উপস্থাপন করতে বললে আইনজীবী কিছুটা সময় চান। এ সময় আদালত আসামিপক্ষকে যুক্তি উপস্থাপনের জন্য ২৪ মে রবিবার দিন ধার্য করে এ্যাটর্নি জেনারেলকে প্রথম যুক্তিতর্ক (আর্গুমেন্ট) উপস্থাপনের নির্দেশ দেন। ইত্তেফাকের সাংবাদিক সিরাজউদ্দিন হোসেন হত্যার অভিযোগসহ এক ও তিন নম্বর অভিযোগ বিষয়ে প্রাথমিক যুক্তিতর্ক উপস্থাপন করেন মাহবুবে আলম।

এ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম সাংবাদিকদের বলেন, আপীল বিভাগ মূলত জানতে চেয়েছিল আলী আহসান মোঃ মুজাহিদের বিরুদ্ধে দৈনিক ইত্তেফাকের তৎকালীন সম্পাদক সিরাজ উদ্দিন হোসেনকে হত্যার অভিযোগ রয়েছে। ওই অভিযোগে দায়ের করা মামলায় একটি আদালত এর আগে এক জনের বিরুদ্ধে যাবজ্জীবন সাজা ঘোষণা করেছিল। সেই হত্যার অভিযোগে মুজাহিদকে দায়ী করা হয়েছে কেন তার জবাব দিয়েছি। অন্যদিকে মুজাহিদের আইনজীবী শিশির মুনির বলেন, সিরাজ উদ্দিন হোসেনকে হত্যার অভিযোগে খলিল নামের এক ব্যক্তির যাবজ্জীবন সাজা হয়েছিল। তাই আপীল বিভাগ ওনার (এ্যাটর্র্নি জেনারেলের) কাছে একই মামলায় বিচার শেষ হওয়ার পরও কি করে আবার বিচার হয় তার ব্যাখ্যা জানতে চেয়েছেন।

প্রকাশিত : ১৯ মে ২০১৫

১৯/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

প্রথম পাতা



ব্রেকিং নিউজ: