হালকা কুয়াশা, তাপমাত্রা ২২.৮ °C
 
২৭ ফেব্রুয়ারী ২০১৭, ১৫ ফাল্গুন ১৪২৩, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

নবম শ্রেণির পড়াশোনা

প্রকাশিত : ১৭ মে ২০১৫

(পূর্ব প্রকাশের পর)

৪. জাতীয় আয়ের ধারণাটি ব্যাখ্যা কর।

উত্তর : একটি নির্দিষ্ট সময়ে সাধারণত একটি আর্থিক বছরে কোন দেশে যে পরিমাণ চূড়ান্ত পর্যায়ের দ্রব্যসামগ্রী ও সেবা উৎপাদিত হয় তার মোট বাজার মূল্যকে জাতীয় উৎপাদন বা সাধারণভাবে জাতীয় আয় বলে। অর্থৎ দেশের মানুষের অফুরন্ত অভাব পূরণের জন্য নির্দিষ্ট সময়ে দেশের উৎপাদনের উপকরণগুলোর সাহায্যে যে পরিমাণ চূড়ান্ত দ্রব্য ও সেবা উৎপন্ন হয় তার মোট আর্থিক মূল্যকে জাতীয় আয় বলা হয়। জাতীয় আয়কে সূচক ধরে কোন দেশের উন্নত বা অনুন্নত অর্থনৈতিক মানদ- বিচার করা হয়।

৫. মানবসম্পদ কাকে বলে?

উত্তর : মানুষ যখন সমাজ বা রাষ্ট্রের জন্য কিছু করে তখন সে সমাজের বা রাষ্ট্রের শক্তিতে পরিণত হয়। এদের কেউ শারীরিক শ্রম দিয়ে কেউবা মেধা দিয়ে সমাজ ও রাষ্ট্রের জন্য সম্পদ উদ্ভাবন বা তৈরিতে সহায়তা করে থাকে। এভাবে যারা শ্রম বা মেধা দিয়ে দেশের কৃষি, শিল্প, সেবাসহ যে কোন খাতে অবদান রাখে তাদের দেশের মানবসম্পদ বলা হয়।

৬. জনসংখ্যাকে কিভাবে জনসম্পদে পরিণত করা যায়?

উত্তর : একটি দেশের বেশির ভাগ জনসংখ্যাই নির্ভরশীল গোষ্ঠী হিসেবে পরিগণিত হয়। দেশের উন্নয়ন করতে হলে দেশের অধিকাংশ জনগণকে জনশক্তিতে রূপান্তর করতে হয়। অদক্ষ মানুষকে শিক্ষা, প্রশিক্ষণ ইত্যাদির সাহায্যে দক্ষ মানুষ অর্থাৎ মানবসম্পদে রূপান্তর করা যায়। উপযুক্ত প্রশিক্ষণ ও শিক্ষায় শিক্ষিত করে জনসংখ্যাকে কর্মমুখী করে তুলে জনসম্পদে পরিণত করা যায়।

৭. রেমিটেন্স বলতে কী বোঝ?

উত্তর : প্রবাসে কর্মরত নাগরিকদের স্বদেশের প্রেরিত অর্থকে রেমিটেন্স বলে। বিদেশে কর্মরত শ্রমিক, কর্মচারী ও পেশাজীবীরা তাদের অর্জিত অর্থের একটা অংশ ব্যাংকের মাধ্যমে পরিবারের কাছে পাঠায়। এই অর্থ কেবল তাদের পরিবারের প্রয়োজনই মেটায় না, তাদের জীবনযাত্রার মান বৃদ্ধি করে এবং নানা ক্ষেত্রে বিনিয়োগ হয়ে দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নেও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। কোন দেশের প্রবাসীদের প্রেরিত রেমিটেন্স থেকে অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি ত্বরান্বিত হয়।

প্রকাশিত : ১৭ মে ২০১৫

১৭/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: