কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

মুন্সীগঞ্জে ইদ্রাকপুর কেল্লা সংস্কারকালে শত শত কলস উদ্ধার

প্রকাশিত : ১৩ মে ২০১৫

স্টাফ রিপোর্টার, মুন্সীগঞ্জ ॥ মুন্সীগঞ্জের পুরাকীর্তি অধিদফতর। সংস্কারের সময় শত শত মাটির কলস বেরিয়ে এসেছে। মঙ্গলবার দুপুরে মূূল কেল্লাটির শীর্ষ স্থানের মেঝের আস্তর সরাতেই উপুড় করা এসব কলস দেখতে পাওয়া যায়। এ দৃশ্য দেখতে শত শত মানুষ ভিড় করে। ১ ফুট উচ্চতার এসব কলস দেখে মনে হয় একেবারেই নতুন। এ পর্যন্ত ৩শ’ কলস সংরক্ষণ করা হলেও কিছু কলস ভেঙ্গে গিয়েছে এবং কিছু কলস মানুষ নিয়ে গেছে। পরে কলস রক্ষায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

মুন্সীগঞ্জের জেলা প্রশাসক জানিয়েছেন, উদ্ধারকৃত কলসগুলো প্রশাসনের হেফাজতে রাখা হয়েছে। মাটির তৈরি কলসের ওপর প্রায় এক ফুট ভারি চুন সুড়কির আস্তর লাগানো রয়েছে। তিনি আরও বলেন তাপমাত্রা নিয়ন্ত্রণে তৈরি প্রায় ৪শ’ বছর আগের এ নির্মাণশৈলী সকলকে বিস্মিত করেছে।

ঢাকা বিভাগের পুরাকীর্তি অধিদফতরের সহকারী পরিচালক মাহাবুব-উল-আলম জানান, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা যাচ্ছে কলসগুলো ব্রিটিশ আমলে তৈরি। ঘরের শীততাপ নিয়ন্ত্রণের জন্য সারিবদ্ধভাবে কলসগুলো ফ্লোরের নিচে রাখা হয়েছিল। তিনি জানান, আপাতত ইদ্রাকপুর কেল্লার এ অংশে কাজ বন্ধ থাকবে। অন্যান্য অংশে যথারীতি সংস্কার কাজ চলবে। উদ্ধারকৃত কলসগুলো যথাযথভাবে সংরক্ষণ করা হবে। পরে পুরাকীর্তি অধিদফতরের বিশেষজ্ঞ কমিটির সিদ্ধান্ত অনুযায়ী পরবর্তীতে এ ব্যাপরে সিদ্ধান্ত হবে।

মুঘল স্থাপত্যশৈলীর চমৎকার নিদর্শন সম্রাট আওরঙ্গজেবের শাসনামলে বাংলার সুবেদার ও সেনাপতি মীর জুমলার তৈরি ইদ্রাকপুর কেল্লা সংস্কার করছে পুরাকীর্তি অধিদফতর। সংস্কারের সময় এই কলসগুলো বেরিয়ে আসে।

সাতক্ষীরায় স্কুলছাত্রকে পিটিয়ে হত্যা ॥ বাড়ি ভাংচুর, অগ্নিসংযোগ

প্রেমঘটিত বিরোধ

স্টাফ রিপোর্টার, সাতক্ষীরা ॥ প্রেমঘটিত বিরোধকে কেন্দ্র করে সাতক্ষীরার আশাশুনি উপজেলা সদরের পাইলট হাইস্কুলের দশম শ্রেণীর ছাত্র সাকিবকে (১৫) পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে। মঙ্গলবার বেলা ১২টায় এ ঘটনা ঘটে। এ সময় আহত হয়েছে দুই জন। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য চার জনকে আটক করেছে। নিহত সাকিব উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক সেলিম রেজা মিলনের পুত্র। ক্ষুব্ধ এলাকাবাসী একটি বাড়ি ভাংচুর ও অগ্নিসংযোগ করে।

পুলিশ জানায়, আশাশুনি থানা সদরের রফিকুল মোল্যার মেয়ে টুম্পার সাথে আমিরুল মোল্যার ছেলে আশরাফুলের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। রফিকুল ও আমিরুল সম্পর্কে চাচাত ভাই। টুম্পার ভাই সোহেল বিষয়টিতে বাধসাধে। এই নিয়ে আশরাফুল ও সোহেলের মধ্যে কয়েকদফা বিরোধের পর মঙ্গলবার বেলা ১২টার দিকে আশরাফুল সোহেলকে দেখে নেয়ার হুমকি দেয়।

সোহেল পাল্টা হুমকি দেয়ার জন্য তার বন্ধু সাকিব সহ কয়েকজনকে খবর দিলে আশরাফুলের বন্ধুরা সংঘবদ্ধ হয়ে সাকিবকে লোহার রড দিয়ে মারধর করে। এতে সাকিব ঘটনাস্থলে মারা যায়। এ ঘটনায় দু’জন আহত হয়েছে। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে চারজনকে জিজ্ঞাসা বাদের জন্য আটক করেছে। বিষয়টি এলাকায় জানাজানি হলে উত্তেজিত জনতা আশরাফুলদের বাড়িঘর ভাংচুর ও অগ্নিসংযোগ করে।

প্রকাশিত : ১৩ মে ২০১৫

১৩/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



ব্রেকিং নিউজ: