কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৫ ডিসেম্বর ২০১৬, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

বোল্টের সঙ্গে লড়তে উন্মুখ গ্যাটলিন

প্রকাশিত : ১৩ মে ২০১৫
বোল্টের সঙ্গে লড়তে উন্মুখ গ্যাটলিন

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ আর মাত্র তিন মাস। এর পরই শুরু হবে এ্যাথলেটিক্স বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপস আসর। কিন্তু কিছুতেই যেন তর সইছে না মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের গতিমানব জাস্টিন গ্যাটলিনের। তিনি উন্মুখ হয়ে আছেন বিশ্ব আসরের জন্য। এ ছাড়া আর সর্বকালের সর্বসেরা গতিতারকা জ্যামাইকার উসাইন বোল্টের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের উপায় নেই। গত মৌসুমটা দুর্দান্ত কেটেছে গ্যাটলিনের। ১৮ প্রতিযোগিতায় নেমে সবটিতেই জয় তুলে নিয়েছেন। কিন্তু বোল্ট ছিলেন ট্র্যাক এ্যান্ড ফিল্ড থেকে দূরে। আগস্টে বিশ্ব আসর দিয়েই আবার ভালভাবে প্রতিযোগিতায় ফিরবেন তিনি। আর তখন বোল্ট-গ্যাটলিন লড়াইটা যে মনোমুগ্ধকর কিছু হবে সে বিষয়ে কোন সন্দেহের অবকাশ নেই।

খুব বড় ধরনের কোন প্রতিযোগিতা ছিল না। তাই ছোটখাটো ইনজুরি কাটিয়ে ওঠার জন্য গত গ্রীষ্মের পুরোটাই বিশ্রামে কাটিয়েছেন বোল্ট। ১০০ মিটার ও ২০০ মিটারে বর্তমান বিশ্বরেকর্ড তার দখলে। বোল্টের অনুপস্থিতির সময়ে নিজেকে দারুণভাবে মেলে ধরেছেন গ্যাটলিন। দু’জনের মধ্যে লড়াই হলে শেষ পর্যন্ত কে জিতবেন সেটা নিয়েও এখন এ্যাথলেটিক্স বিশ্বে চলছে জল্পনা-কল্পনা। কিন্তু বিশ্ব আসর না আসা পর্যন্ত সেটা হচ্ছে না। আগস্টে বেজিংয়ে অনুষ্ঠিত হবে পরবর্তী বিশ্ব আসর। থাকবেন আরেক মার্কিন ডোপপাপ মুক্ত টাইসন গে। আর সেখানেই হবে আকর্ষণীয় লড়াইটা। ইতোমধ্যেই আসন্ন এ লড়াই নিয়ে মৌখিক যুদ্ধ শুরু করে দিয়েছেন বোল্ট। কিছুদিন আগে তিনি বলেন, ‘একজন ডোপপাপীর বিরুদ্ধে আমাকে লড়তে হবে এটা খুবই হতাশাজনক।’ তবে বোল্ট যাই বলুন না কেন লড়াইয়ে তাকে নামতেই হবে। আপাতত টানা কয়েকটি প্রতিযোগিতায় দৌড়ে এখন বিশ্রামে আছেন গ্যাটলিন। নিজের ভেতরে থাকা শক্তিগুলো আবার জমা করছেন বড় লড়াইয়ের জন্য। সে কারণে অপেক্ষাটা আরও উদ্দীপ্ত করছে গ্যাটলিনকে।

২০০৬ সালে রক্তে উদ্দীপনা আনা নিষিদ্ধ ওষুধ সেবনের কারণে ৪ বছরের জন্য নিষেধাজ্ঞা আরোপিত হয়েছিল। সেই নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে ফিরেছেন গ্যাটলিন। তার মূল পৃষ্ঠপোষক হিসেবে নাইকি জুতো সরবরাহ করত। নিষিদ্ধ হওয়ার পর নাইকি আর থাকেনি। আবারও বিশ্বখ্যাত প্রতিষ্ঠানটি গ্যাটলিনের পৃষ্ঠপোষক হিসেবেও ফিরেছে। সবকিছু যেন ঠিক আগের মতোই হয়ে যাচ্ছে গ্যাটলিনের জন্য। সে কারণেই এখন বোল্টের সঙ্গে লড়ার জন্য উদগ্রীব হয়ে আছেন তিনি। এ বিষয়ে গ্যাটলিন বলেন, ‘উসাইন নিশ্চিতভাবেই স্বর্ণের জন্য আদর্শ। আমি এখানে বসে থেকে তাকে কখনই ছোট করার জন্য বলতে পারি না যে তুমি উপযুক্ত নও। কারণ তিনি সেই ব্যক্তি যিনি অনেক রেকর্ড ভেঙ্গেছেন এবং মানুষের মনে এই বিশ্বাসের জন্য দিয়েছেন যে এটা ভাঙ্গা অসম্ভব।’ গ্যাটলিন বর্তমানে কাতারে অবস্থান করছেন। দোহায় ডায়মন্ড লীগের ১০০ মিটারে গতবার প্রথম হয়েছিলেন। এবার সেটা ধরে রাখার লড়াই তার জন্য।

গত দুই অলিম্পিকে বোল্ট ১০০ ও ২০০ মিটার স্প্রিন্টে স্বর্ণ জিতেছিলেন। তবে এ দু’বারই গ্যাটলিন লড়তে পারেননি নিষেধাজ্ঞার কারণে। তবে নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে ফিরে এসেই তিনি দুই বছর আগে হারিয়ে দেন বোল্টকে। রোম মিটে গ্যাটলিনের কাছে বোল্টের ওই পরাজয়টা নিয়ে এখনও মানুষ ভাবছেন। তবে গ্যাটলিন এর পরও বলছেন, ‘বোল্টের যে মেধা রয়েছে সে বিষয়ে আমি যথেষ্ট সতর্ক। তাকে আমি যতটা বয় পাই তার চেয়ে বেশি আমি সতর্ক থাকি।’ আগামী মাসে অরিগনের ইউজিনে শুরু হবে ইউএস চ্যাম্পিয়নশিপস। সেখানে ১০০ মিটারে দৌড়াবেন না গ্যাটলিন।

প্রকাশিত : ১৩ মে ২০১৫

১৩/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: