কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

ডিএসইতে বছরের সর্বোচ্চ লেনদেন

প্রকাশিত : ১২ মে ২০১৫

অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ সূচক বৃদ্ধির পাশাপাশি দেশের শেয়ারবাজারে লেনদেনের পালেও হাওয়া লেগেছে। সোমবার দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) লেনদেন হয়েছে ৬০০ কোটি টাকার কাছাকাছি। দিনশেষে লেনদেন হয়েছে ৫৯৬ কোটি ৭১ লাখ টাকা। যা চলতি বছরে ডিএসইর সর্বোচ্চ লেনদেন। এর আগে গত ১৯ এপ্রিল ডিএসইতে সর্বোচ্চ ৫৬৩ কোটি টাকার লেনদেন হয়েছিল। অপরদিকে ১৯ মার্চ সর্বনিম্ন ১৬৬ কোটি টাকার লেনদেন হয়েছিল।

বাজার বিশ্লেষণে দেখা গেছে, চলতি মাসের দ্বিতীয় কার্যদিবস থেকে শেয়ারবাজারে ধারাবাহিকভাবে সূচক ও লেনদেন বাড়ছে। ৫ মে ৩২৭ কোটি টাকা লেনদেন হলেও মাত্র ৪ দিনের ব্যবধানে তা প্রায় ৬০০ কোটি টাকায় পৌঁছেছে। রবিবার লেনদেন হয়েছিল ৫২০ কোটি টাকা। ৭৫ কোটি ৮৯ লাখ টাকা বেড়ে সোমবার তা হয়েছে ৫৯৬ কোটি ৭১ লাখ টাকা। সোমবার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে মোট ১৭ কোটি ৩০ লক্ষ ৩৮ হাজার ১০৮টি শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের লেনদেন হয়েছে। ডিএসইতে মোট লেনদেনের পরিমাণ ৫৯৬ কোটি ৭১ লাখ ১২ হাজার ৩৩৫ টাকা। যা আগের দিনের চেয়ে ৭৫ কোটি ৮৯ লাখ টাকা বেশি। সংশ্লিষ্টরা জানান, সঞ্চয়পত্রের সুদের হার কমানো, প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের বিনিয়োগ অব্যাহত রাখার ঘোষণার পাশাপাশি শেয়ারবাজারে ব্যাংকের বিনিয়োগসীমা নিয়ে সৃষ্ট জটিলতা অবসানে বিএসিইসির কার্যকর উদ্যোগ গ্রহণের আশ্বাস; সব মিলিয়ে শেয়ারবাজারে ইতিবাচক প্রভাব পড়ছে। উপরন্তু প্রধানমন্ত্রীর তথ্য উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়ের বিদেশী মিউচ্যুয়াল ফান্ডের মাধ্যমে দেশের শেয়ারবাজারে বিনিয়োগ বাড়ানোর ঘোষণাও শেয়ারবাজারে গতি ফেরাতে প্রভাবকের ভূমিকা পালন করছে।

এদিকে টানা ৫ দিনের মতো শেয়ারবাজারে সূচক বেড়েছে। সোমবার চলতি সপ্তাহের দ্বিতীয় কার্যদিবসে দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) সূচক ডিএসইএক্স বেড়েছে ৭২.১৬ পয়েন্ট। দিনশেষে সূচক গিয়ে দাঁড়িয়েছে ৪৩৪৯.২২ পয়েন্টে। এর ফলে ৫ দিনের ব্যবধানে সূচক বেড়েছে ৩৯০ পয়েন্ট। লেনদেনে অংশ নেয়া ৬৬ শতাংশেরও বেশি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের দর বেড়েছে। ৩১৪টি ইস্যুর মধ্যে দিনশেষে দর বেড়েছে ২০৮টির, কমেছে ৮৭টির ও অপরিবর্তিত রয়েছে ১৯টির দর। লেনদেনের শীর্ষে রয়েছে ইউনাইটেড পাওয়ার। দিনশেষে কোম্পানিটির ৪৬ কোটি ২৮ লাখ ২২ হাজার টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। লেনদেনের দ্বিতীয় স্থানে থাকা ইফাদ অটোসের লেনদেন হয়েছে ১৫ কোটি ৬৭ লাখ ৪৪ হাজার টাকা। ১৬ কোটি ১৩ লাখ ৫৫ হাজার টাকার শেয়ার লেনদেনে তৃতীয় স্থানে রয়েছে ওয়েস্টার্ন মেরিন শিপইয়ার্ড। লেনদেনে এরপর রয়েছে যথাক্রমে- মবিল যমুনা, বেক্সিমকো, খুলনা পাওয়ার, শাহজিবাজার পাওয়ার, এসিআই ফরমুলেশন্স, আর এ কে সিরামিকস, অগ্নি সিস্টেমস।

দর বৃদ্ধির শীর্ষে প্রধান ১০টি কোম্পানি হলো জনতা ইন্স্যুরেন্স, ৭ম আইসি, ফারইস্ট নিটিং, ফনিক্স ইন্স্যুরেন্স, প্রিমিয়ার ব্যাংক, স্ট্যান্ডার্ড ইন্স্যুরেন্স, রিপাবলিক ইন্স্যুরেন্স, আইপিডিসি, নর্দার্ন ইন্স্যুরেন্স ও মেঘনা সিমেন্ট।

প্রকাশিত : ১২ মে ২০১৫

১২/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: