কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ সিঙ্গাপুর আফগানিস্তান

প্রকাশিত : ১২ মে ২০১৫
  • এশিয়ান কাপ বাছাই পর্বের প্রস্তুতি * দুটি ম্যাচই পাবে ফিফা স্বীকৃতি * ম্যাচ হবে বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে

স্পোটর্স রিপোর্টার ॥ উত্তর কোরিয়া, সিরিয়া, ভারত বা মিয়ানমার নয়, শেষ পর্যন্ত বাংলাদেশে দুটি ফিফা ফ্রেন্ডলি (টায়ার-১) ম্যাচ খেলতে ঢাকায় আসছে সিঙ্গাপুর এবং আফগানিস্তান জাতীয় ফুটবল দল। আগামী ১১ জুন কিরগিজস্তান এবং ১৬ জুন তাজিকিস্তানের বিরুদ্ধে ঢাকায় ২০১৮ সালের রাশিয়া বিশ্বকাপের বাছাই পর্বে ও ২০১৯ আরব আমিরাত এশিয়ান কাপের বাছাই পর্বের ম্যাচে অংশ নেবে বাংলাদেশ জাতীয় ফুটবল দল। সেই ম্যাচ দুটি খেলার আগে সিঙ্গাপুর ও আফগানিস্তান জাতীয় দলের সঙ্গে দুটি ম্যাচ খেলে নিজেদের ঝালিয়ে নিতে চায় ‘বেঙ্গল টাইগার্স’খ্যাত বাংলাদেশ জাতীয় ফুটবল দল। সিঙ্গাপুরের বিরুদ্ধে বাংলাদেশ মাঠে নামবে আগামী ৩০ মে, আর আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে ২ জুন। দুটি ম্যাচই অনুষ্ঠিত হবে বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে, বিকেল ৪টায়।

‘সিঙ্গাপুর জাতীয় দল আসছে আগামী ২৮ মে। আর আফগানিস্তান আসবে ৩০ বা ৩১ মে। সিঙ্গাপুরের খেলার বিষয়টি চূড়ান্ত হয়েছে আজই (সোমবার)।’ এমনটাই জানান বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের (বাফুফে) সাধারণ সম্পাদক আবু নাইম সোহাগ। তিনি আরও বলেন, ‘দুটি খেলাই চ্যানেল নাইনে সম্প্রচারের সম্ভাবনা আছে। সেক্ষেত্রে সিঙ্গাপুর দল যদি তাদের খেলাটি নিজেদের দেশে লাইভ দেখাতে চায়, তাহলে তাদের নিয়ম অনুযায়ী অর্থ প্রদান করতে হবে।’ ম্যাচটি যেন বিশ্ব ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা ফিফা আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচ হিসেবে স্বীকৃতি দেয়, সে জন্য ফিফার কাছে সোমবারই আবেদন করেছে বাফুফে, জানান সোহাগ। যদি ফিফা আবেদন মঞ্জুর করে, সেক্ষেত্রে সেটি হবে টায়ার-১ এর ম্যাচ। উল্লেখ্য, ফিফা র‌্যাঙ্কিংয়ে বাংলাদেশের (১৬৯) চেয়ে এগিয়ে আফগানিস্তান (১৩৫) এবং সিঙ্গাপুর (১৬২)। ‘সিঙ্গাপুর এবং আফগানিস্তান উভয় দলই আসবে তাদের খরচে। বাফুফে তাদের লোকাল হসপিটালিটি দেবে।’ সোহাগের ভাষ্য। আগামী ২১ মে শেষ হওয়ার কথা বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগের প্রথম পর্বের খেলা। তার পর পরই জাতীয় দলের ক্যাম্প শুরু করে দিতে পারেন ডাচ্ কোচ লোডভিক ডি ক্রুইফÑ এমনই আভাস দিলেন সোহাগ। ‘এমনও হতে পারে প্রথম লেগের খেলা শেষ হওয়ার দু’-একদিন আগেই ক্যাম্প শুরু হতে পারে। এখন ক্যাম্প কবে নাগাদ শুরু হবে এটা আমরা দ্রুতই ঠিক করে ফেলব। তবে ক্যাম্প হবে বাফুফে ভবনে, এটা মোটামুটি নিশ্চিত।’ এর আগে দুটি কারণে বাংলাদেশে এসে ১৪ মে বাংলাদেশ জাতীয় ফুটবল দলের সঙ্গে একটি প্রীতি ম্যাচে অংশ নেয়ার পরিকল্পনা বাতিল করে উত্তর কোরিয়া ফুটবল দল। অল্প সময়ের মধ্যে গ্লোবাল স্পন্সরশিপ যোগাড় করা এবং সম্প্রচার স্বত্ব বিক্রি করতে পারাই এর কারণ। উত্তর কোরিয়া সরে দাঁড়ানোয় তাদের বিকল্প দল খুঁজছিল বাফুফে। সেক্ষেত্রে ভারত ও সিঙ্গাপুরের সঙ্গে কথা চালিয়ে যাচ্ছিল বাফুফে। তবে ‘আই লীগ’-এর ব্যস্ততার কারণে ভারতের আসা বাতিল হয়ে যায়। যদিও সিঙ্গাপুরের আসা নিয়েও অনিশ্চয়তা ছিল। কারণ তাদের দাবি ছিল একাধিক। সেটা হচ্ছে থাকা-খাওয়াসহ বিমান ভাড়াও চায় তারা। কিন্তু বাফুফের অনড় অবস্থানের কারণে পিছু হটে সিঙ্গাপুর।

বাফুফের অপশনে ছিল মিয়ানমারও। তবে মিয়ানমার দাবি করেÑ তাদের দেশে গিয়ে খেলতে হবে বাংলাদেশকে। কিন্তু কন্ডিশনের সঙ্গে খাপ না খাওয়ার ফলে তাদের এই দাবি মানতে পারেনি বাফুফে। এশিয়ান কাপের বাছাই পর্বে বাংলাদেশের প্রথম খেলা আগামী ১১ জুন কিরগিজস্তানের বিরুদ্ধে। ১৬ জুন তাজিকিস্তানের বিরুদ্ধে খেলবে বাংলাদেশ। এই দুটি ম্যাচ শুরু হবে বাফুফের পছন্দমতো। দুটি ম্যাচই অনুষ্ঠিত হবে বেলা ৩টায়। পছন্দমতো সময় বেছে নেয়ার কারণ হচ্ছে কিরগিজস্তান-তাজিকিস্তান শীতপ্রধান অঞ্চলের দুই দেশ। তারা গরমে খেলে অভ্যস্ত নয়। আর এই সুবিধাটাই কাজে লাগাতে চায় বাফুফে। এ জন্যই প্রস্তুতি ম্যাচ দুটিও হবে প্রায় ওই সময়েই, জানান সোহাগ।

বিশ্ব ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা ফিফা ইদানীং নতুন নিয়ম অনুযায়ী বিশ্বকাপ বাছাই পর্ব আর এশিয়ান কাপের বাছাই পর্ব একসঙ্গে অনুষ্ঠিত হবে। বাছাই পর্বে গ্রুপ ‘বি’-তে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ তাজিকিস্তান, কিরগিজস্তান, জর্দান ও অস্ট্রেলিয়া। হোম ও এ্যাওয়ে মিলিয়ে বাংলাদেশ খেলবে আট ম্যাচে। প্রথম দুটি ম্যাচই অনুষ্ঠিত হবে ঢাকায়। আগামী ১১ জুন কিরগিজস্তান এবং ১৬ জুন তাজিকিস্তানের বিরুদ্ধে খেলবে বাংলাদেশ। আর এই দুটি ম্যাচেই জিততে চায় স্বাগতিক বাংলাদেশ। এই দুটি ম্যাচে জয় পেলে বিশ্বকাপ না হোক, অন্তত ২০১৯ সালে সংযুক্ত আরব আমিরাতে অনুষ্ঠিতব্য এশিয়ান কাপের মূলপর্বে যোগ্যতা অর্জনের পথে অনেকটা এগিয়ে যাবে বাংলাদেশ।

প্রকাশিত : ১২ মে ২০১৫

১২/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: