মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
৯ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শুক্রবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

ডি ভিলিয়ার্সের ঝড়ো সেঞ্চুরিতে ব্যাঙ্গালুরুর জয়

প্রকাশিত : ১১ মে ২০১৫

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে (আইপিএল) রবিবার এবি ডি ভিলিয়ার্সের ব্যাটিং তা-বে (৫৯ বলে ১৩৩*) বড় জয় পেয়েছে রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালুরু। মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সকে ৩৯ রানে হারিয়েছে বিরাট কোহলির দল। নির্ধারিত ২০ ওভারে ১ উইকেটে ২৩৫ রানের বিশাল স্কোর গড়ে ব্যাঙ্গালুরু। জবাবে কম যায়নি রোহিত শর্মারা; শেষ পর্যন্ত ৭ উইকেটে ১৯৬ রানে থামে মুম্বাই। দুই ক্যারিবিয়ান তারকা কাইরেন পোলার্ড ২৪ বলে ৪৯ ও লেন্ডল সিমন্স ৫৩ বলে করেন ৬৮ রান।

এর আগে চলতি আইপিএলে রেকর্ড দলীয় সংগ্রহের পথে মুম্বাই বোলারদের নিয়ে ছেলেখেলায় মেতে ওঠেন ডি ভিলিয়ার্স-কোহলি। ২০ রানে ক্রিস গেইল (১২ বলে ১৩) ফিরে যাওয়ার পর শুরু হয় তাদের ব্যাটিং তা-ব, যা চলে ইনিংসের শেষ বল পর্যন্ত। দু’জন মিলে দ্বিতীয় উইকেটে ১৬.৫ ওভারে অবিচ্ছিন্ন ২১৫ রান যোগ করেন। আইপিএল তো বটেই, যে কোন ঘরানার টি২০তেই সর্বোচ্চ জুটির নতুন রেকর্ড এটি! মাত্র ৫৯ বলে ১৯ চার ও ৪ ছক্কায় ১৩৩ রানে অপরাজিত থাকেন ডি ভিলিয়ার্স। ২৯ বলে ৬ চার ও ২ ছক্কায় হাফ সেঞ্চুরি পূর্ণ করেন দক্ষিণ আফ্রিকান তারকা। আইপিএল ইতিহাসে এটি তার দ্বিতীয় সেঞ্চুরি। এবারের আসরে তৃতীয় ‘ট্রিপল ফিগারের’ ঘটনা এটি। আগের দুই সেঞ্চুরি করেছিলেন ক্রিস গেইল (১১৭) ও ব্রেন্ডন ম্যাককুলাম (১০০*)।

আইপিএল ইতিহাসের চতুর্থ সর্বোচ্চ দলীয় সংগ্রহের পথে অবশ্য গুরুত্বপূর্ণ অবদান বিরাট কোহলির। ৫০ বলে ৬ চার ও ৪ ছক্কায় ৮২ রানে অপরাজিত থাকেন ব্যাঙ্গালুরুর অধিনায়ক। এর মধ্য দিয়ে পঞ্চম ব্যাটসম্যান হিসেবে আইপিএলে ৩ হাজার রানের মাইলফলক অতিক্রম করেন ‘ক্রেজি’ কোহলি এবং টানা ছয় আসরে ৩শ’ বা তার বেশি রান সংগ্রহ করলেন তিনি। ২৩৫/১Ñ এবারের আসরে ষষ্ঠ দুই শতাধিক ও সর্বোচ্চ দলীয় রান। আইপিএল ইতিহাসে দলীয় সর্বোচ্চ সংগ্রহের রেকর্ড অবশ্য এই ব্যাঙ্গালুরুরই! ২০১৩ আসরে ক্রিস গেইলের সেই ‘অতিমানবীয়’ ১৭৫ রানের ওপর ভর করে ৫ উইকেটে ২৬৩ রান করেছিল রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স।

ওয়ানডে ইতিহাসের দ্রুততম সেঞ্চুরির রেকর্ডধারী ডি ভিলায়ার্স বিশ্বকাপেও ছিলেন দুর্বার। ব্যাট হাতে সামনে থেকে নেতৃত্ব দিয়েও দলকে শিরোপা উপহার দিতে পারেননি। সেই খেদ ঝাড়তেই কিনা আইপিএলে ব্যাট হাতে প্রতিপক্ষ বোলারদের ওপর চড়াও ৩১ বছর বয়সী ‘প্রোটিয়া হিরো’! ১ সেঞ্চুরি ও ১ হাফ সেঞ্চুরির সাহায্যে ৬২ গড়ে ইতোমধ্যে করেছেন আসরের দ্বিতীয় সর্বাধিক ৪৩৬ রান।

স্কোর ॥ ব্যাঙ্গালুরু ২৩৫/১ (২০ ওভার; ডি ভিলিয়ার্স ১৩৩*, কোহলি ৮২*; মালিঙ্গা ১/২৭), মুম্বাই ১৯৬/৭ (২০ ওভার; সিমন্স ৬৮*, পোলার্ড ৪৯; প্যাটেল ২/৩৬, চাহাল ২/৫১)। ফল ॥ ব্যাঙ্গালুরু ৩৯ রানে জয়ী ম্যাচ সেরা ॥ ডি ভিলিয়ার্স (ব্যাঙ্গালুরু)

প্রকাশিত : ১১ মে ২০১৫

১১/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: