কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

অনলাইনে কর পরিশোধ করবেন যেভাবে

প্রকাশিত : ১০ মে ২০১৫

অর্থ মন্ত্রণালয়, বাংলাদেশ ব্যাংক, সোনালী ব্যাংক ও কিউ ক্যাশের যৌথ ব্যবস্থাপনায় জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর) ই-পেমেন্ট সার্ভিস চালু করে। এ সেবা গ্রহণ করে যে কেউ ক্রেডিট কার্ড, ডেবিট কার্ড, ক্যাশ কার্ড বা অনলাইন ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে আয়কর, ভ্যাট ও অন্যান্য শুল্ক পরিশোধ করতে পারবেন। অন্য ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকেও কর দেয়া যাবে। এ পদ্ধতিতে কর পরিশোধের জন্য একজন গ্রাহকের ইন্টারনেট সংযোগসহ কম্পিউটার, ই-মেইল এ্যাকাউন্ট, বিজনেস এরিয়া কোড, TIN, AIN, BIN (যেটি প্রযোজ্য) ডেবিট/ক্রডিট কার্ড/অনলাইন ব্যাংকিং সুবিধা থাকতে হবে।

ই-পেমেন্ট সার্ভিসের জন্য গ্রাহককে http://www.nbrepayment.org/ সাইটে গিয়ে ’Register’ বোতামে ক্লিক করলে একটি ফরম দেখা যাবে। ফরমে নাম-ঠিকানাসহ অন্যান্য তথ্য সতর্কতার সঙ্গে পূরণ করতে হবে। এ সময় তৈরি করা পাসওয়ার্ড লিখে রাখা ভাল। কোন ঘরে তথ্য দেয়া সম্ভব না হলে পরে তথ্য জেনে দেয়া যাবে। তারকা (*) চিহ্নিত ঘরগুলো অবশ্যই পূরণ করতে হবে। তথ্য দেয়া ’I Agree and Create Accountবোতাম ক্লিক করতে হবে। এরপর গ্রাহকের ই-মেইল ঠিকানায় একটি ই-মেইল পেঁৗঁছে যাবে। ইনবক্সে ই-মেইল না পেলে জাঙ্ক বা স্প্যাম ফোল্ডারে দেখতে পারেন। ই-মেইলে পাঠানো লিংকে ক্লিক করে রেজিস্ট্রেশন সম্পন্ন করুন। রেজিস্ট্রেশন সম্পন্ন করার পর লগইন নেম এবং পাসওয়ার্ড ব্যবহার করা যাবে। লগইন করার পর ‘ঊ-চধুসবহঃ’ লিংক এবং পর্দার উপরে বাম কোণে নিজের নামসহ স্বাগত বার্তা দেখা যাবে। আয়কর, ভ্যাট এবং কাস্টমস শুল্কের জন্য আলাদা আলাদা প্রোফাইল ফরম পূরণ করতে হবে। কারও কেবল একটি ফরম প্রয়োজন হলে তিনি একটি ফরমই পূরণ করতে পারেন। এখানে গ্রাহক তার নাম, ই-মেইল ঠিকানা ইত্যাদি আপডেট করতে পারবেন। আয়কর অংশে করদাতার ধরন টিআইএন, নাম, ঠিকানা, ভ্যাট অংশে বিআইএন, নাম, ঠিকানা, টিআইএন, কাস্টমস অংশে এআইএন, নাম, ঠিকানা ইত্যাদি আপডেট করা যাবে। আপডেট সম্পন্ন হওয়ার পর গ্রাহক অনলাইনে আয়করসহ অন্যান্য কর দিতে পারবেন।

অনলাইনে আয়কর দিতে ট্যাক্স জোন, ট্যাক্স সার্কেলের, ক্রেডিট/ডেবিট কার্ড কিংবা অনলাইন ব্যাংকিংয়ের তথ্য লাগবে। তথ্য পূরণ করে লগইন করার পর করদাতা স্বয়ংক্রিয়ভাবে ইউজার এ্যাকাউন্ট হোমপেজে চলে যাবেন। এরপর ‘টঢ়ফধঃব ণড়ঁৎ চৎড়ভরষব’ সিলেক্ট করে ওহপড়সব ঞধী ওহভড় পেজে টিআইএন, পুরো নাম, ঠিকানা ইত্যাদি দিয়ে আপডেট করতে হবে এবং ইউজার এ্যাকাউন্ট হোমপেজের ‘চধু ওহপড়সব ঞধী’ বোতামে ক্লিক করে ড্রপ ডাউন লিস্ট ‘চধু ঞধী ঙহষরহব’ থেকে ট্যাক্স জোন এবং ট্যাক্স সার্কেল নির্বাচন করতে হবে। এরপর অনলাইন ট্যাক্স পেমেন্ট ফরমের সংশিষ্ট ঘরে টিআইএন, পুরো নাম এবং এ্যাকাউন্ট কোড স্বয়ংক্রিয়ভাবে প্রদর্শিত হবে। তারপর কর দেয়ার পদ্ধতি নির্বাচন করতে হবে। গ্রাহক চাইলে অগ্রিম করও দিতে পারেন। সেক্ষেত্রে ড্রপ ডাউন লিস্ট থেকে ‘অফাধহপব ঞধী’ নির্বাচন করে করের বছর এবং করের টাকার পরিমাণ ফরমের নির্ধারিত স্থানে টাইপ করতে হবে। সাবমিট বোতামে ক্লিক করার পর একটি নতুন বার্তা প্রদর্শিত হবে। তারপর ‘ঘবীঃ’-এ ক্লিক করলে পর্দায় সোনালী ব্যাংকের ওয়েবসাইট প্রদর্শিত হবে। এখান থেকে অর্থ পরিশোধের ধরন নির্বাচন করে ‘ঘবীঃ’ বোতামে ক্লিক করতে হবে। তারপর একটি ই-চালান প্রদর্শিত হবে। এখানে নাম, টিআইএন, ট্যাক্স জোন, ট্যাক্স সার্কেল, অর্থের পরিমাণ ইত্যাদি তথ্য দেয়া থাকবে। সব তথ্য ঠিক থাকলে ‘ঘবীঃ’ বোতামে ক্লিক করলে কিউ ক্যাশের ওয়েবসাইট আসবে। কম্পিউটারের পর্দায় একটি কী-বোর্ড ক্লিক করে কার্ডের তথ্য দিয়ে ‘ওকে’ বোতামে ক্লিক করার তিন মিনিটের মধ্যে এ প্রক্রিয়াটি সম্পন্ন করতে হবে।

নিরাপত্তার জন্যই এটি করা হয়েছে। একবার ‘ওকে’ বোতামে ক্লিক করলে আর পেছনে যাওয়া যাবে না। এ সময় সব তথ্য একটি বক্সে প্রদর্শিত হবে। সেখানে কার্ডের পাসওয়ার্ড বা অনলাইন ব্যাংকিং কোড প্রদান করে সাবমিট বোতামে ক্লিক করতে হবে। প্রদর্শিত ই-চালান প্রিন্ট, ডাউনলোড অথবা ই-মেইল হিসেবে নেয়া যাবে। সবশেষে ‘ফিনিশ’ বোতামে ক্লিক করতে হবে এবং সঙ্গে সঙ্গে লেনদেন সম্পন্ন হওয়ার বার্তা প্রদর্শিত হবে। এবং এর মধ্যে দিয়ে আপনি ঘরে বসেই আয়কর পরিশোধ করে দেশের প্রতি আপনার অর্পিত গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করবেন।

পারভেজ হোসেন

প্রকাশিত : ১০ মে ২০১৫

১০/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: