কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

আহসান উল্লাহ মাস্টারের মৃত্যুবার্ষিকী আজ

প্রকাশিত : ৭ মে ২০১৫

নিজস্ব সংবাদদাতা, গাজীপুর, টঙ্গী, ৬ মে ॥ আওয়ামী লীগ ও শ্রমিকনেতা, বীর মুক্তিযোদ্ধা এবং সাবেক সংসদ সদস্য শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টারের ১১ম মৃত্যুবার্ষিকী (বৃহস্পতিবার)। এ উপলক্ষে আওয়ামী লীগ, শ্রমিক লীগ, কৃষক লীগ, ছাত্রলীগসহ বিভিন্ন সংগঠন গাজীপুরসহ বিভিন্ন এলাকায় দিনব্যাপী নানা কর্মসূচী গ্রহণ করেছে। মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে বৃহস্পতিবার সকালে গাজীপুর মহানগরের পূবাইল হায়দরাবাদ গ্রামে শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টারের কবরে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ, কোরানখানি, মিলাদ, দোয়া মাহফিল ও খাদ্য বিতরণ এবং স্মরণিকা প্রকাশ, আলোচনা ও স্মরণ সভার আয়োজন করা হয়েছে। এছাড়াও একইদিন বিকেলে টঙ্গী থানা আওয়ামী লীগ আহসান উল্লাহ মাস্টারের স্মরণে নোয়াগাঁও এম এ মজিদ মিয়া উচ্চবিদ্যালয় মাঠে এক আলোচনা সভার আয়োজন করেছে।

আহসান উল্লাহ মাস্টারের ১১তম শাহাদাত বার্ষিকী উপলক্ষে বুধবার শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার এমপি স্মৃতি পরিষদ জাতীয় প্রেসক্লাবের ভিআইপ মিলনায়তনে “সন্ত্রাস ও মাদকমুক্ত সমাজ গঠনে জনপ্রতিনিধিদের ভূমিকা” শীর্ষক এক আলোচনা ও স্মরণ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার নেতৃবৃন্দ আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন।

জনপ্রিয় নেতা আহসান উল্লাহ মাস্টার ২০০৪ সালের ৭ মে টঙ্গীর নোয়াগাঁও এম এ মজিদ মিয়া উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে সমাবেশ চলাকালে বিএনপি-জামায়াত জোট সরকারের মদদ পুষ্ট একদল সন্ত্রাসীর গুলিতে নিহত হন। ২০০৫ সালের ১৬ এপ্রিল দ্রুত বিচার আইনে আহসান উল্লাহ মাস্টার এমপি হত্যা মামলার রায় দেয়া হয়। ওই রায়ে ৩০ জন আসামির মধ্যে প্রধান আসামি বিএনপি নেতা নূরুল ইসলাম সরকারসহ ২২ জনকে ফাঁসি ও ৬ জনকে যাবজ্জীবন কারাদ- এবং ২ জনকে বেকসুর খালাস দেয়া হয়। এদের মধ্যে প্রধান আসামিসহ ১৬ জন দেশের বিভিন্ন কারাগারে বন্দী এবং বাকি ১০ জন আসামি ভারত, বেলজিয়াম, ফ্রান্স, ইতালি, কানাডা, দুবাইসহ বিভিন্ন দেশে পলাতক রয়েছে। অপর দুই জন কারাগারে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে। হাইকোর্টে বিচারক শাহেদ নুরুদ্দিনের আদালতে এ হত্যা মামলাটি বর্তমানে বিচারাধীন আছে বলে হত্যা মামলার বাদী শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টারের ছোট ভাই বর্তমানে গাজীপুর জেলা স্বেচ্ছা সেবক লীগের আহ্বায়ক মতিউর রহমান মতি জানিয়েছেন।

শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টারের বড় ছেলে জাহিদ আহসান রাসেল এমপি তার পিতার ১১তম শাহাদাত বার্ষিকীর কর্মসূচীতে গ্রামের বাড়ি হায়দরাবাদসহ টঙ্গী ও গাজীপুরের বিভিন্ন এলাকায় আওয়ামী লীগ, শ্রমিক লীগ, ছাত্রলীগ, যুবলীগ নেতাকর্মীসহ সকল স্তরের মানুষকে অংশগ্রহণ করার জন্য অনুরোধ জানিয়েছেন।

প্রকাশিত : ৭ মে ২০১৫

০৭/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



ব্রেকিং নিউজ: