আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৬ ডিসেম্বর ২০১৬, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, মঙ্গলবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

টেক্সটাইল ভার্সিটিতে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপে সংঘর্ষ ॥ আহত ৫

প্রকাশিত : ৪ মে ২০১৫

স্টাফ রিপোর্টার ॥ গভীর রাতে হঠাৎ হৈ-চৈ শুনে ঘুম ভেঙ্গে যায় আবাসিক ছাত্রদের। কাঁচা ঘুমভাঙ্গা চোখে নিরাপদে বসে জানালা দিয়ে তারা দেখতে পায়, দু’পক্ষই ছাত্রলীগের। হাতে রড, লাঠি, রামদা ও কাঠের মুগুর। চলে ধাওয়া পাল্টাধাওয়া। ছড়ায় ব্যাপক উত্তেজনা। এতে পাঁচ জন আহত হয়। এ সময় নিরীহ আবাসিক ছাত্ররা দরজা বন্ধ করে থানায় ফোন করে। তারপর পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

শনিবার গভীর রাতে রাজধানীর তেজগাঁও এলাকার বাংলাদেশ টেক্সটাইল বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের মধ্যে এমনই এক ভীতিকর সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। নবীন শিক্ষার্থীদের শহীদ আজিজ হলে ওঠানো নিয়ে এ ঘটনা ঘটে। এতে অন্তত পাঁচজন আহত হন। তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল থানার পুিলশ রাত তিনটার দিকে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

বিশ্ববিদ্যালয় সূত্র জানায়, শহীদ আজিজ হলের আধিপত্য নিয়ে হল শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি শাহাদত হোসেন শিশির ও সাধারণ সম্পাদক নাজমুস সাকিব খানের সমর্থকদের মধ্যে আগে থেকেই বিরোধ ছিল। ৪১তম ব্যাচের নবীন শিক্ষার্থীদের নিজেদের দলে টেনে শহীদ আজিজ হলে তোলা নিয়ে রাতে তাদের মধ্যে উত্তেজনা তৈরি হয়। দুই পক্ষের নেতাকর্মীরাই রড, লাঠি, রামদাসহ বিভিন্ন দেশী অস্ত্র হাতে মুখোমুখি অবস্থান নিলে শিক্ষার্থীদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল থানার ওসি মোঃ সালাউদ্দিন বলেন, পরিস্থিতি পুলিশের নিয়ন্ত্রণে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের ফ্যাশন ডিজাইনিং বিভাগের এক শিক্ষার্থী জানান, ৪১তম ব্যাচের নবীন শিক্ষার্থীদের নিজেদের দলে টেনে শহীদ আজিজ হলে তোলা নিয়ে রাতে তাদের মধ্যে উত্তেজনা তৈরি হয়। দুই পক্ষের নেতাকর্মীরা রড, লাঠি, রামদাসহ বিভিন্ন অস্ত্র হাতে মুখোমুখি অবস্থান নিলে হলে শিক্ষার্থীদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। হলের প্রধান ফটক তালাবদ্ধ ছিল। আমি কোনভাবে বেরিয়ে আসতে পেরেছিলাম। বাইরে দাঁড়িয়ে অন্তত ১০/১২ রাউন্ড গুলির শব্দ শুনেছি। শহীদ আজিজ হল শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক নাজমুস সাকিব খান সাংবাদিকদের বলেন, পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। শিক্ষার্থীদের মধ্যে কেউ গুরুতর আহত হয়নি।

সভাপতি শাহাদত হোসেন শিশির সাংবাদিকদের বলেন, হল কমিটি বিলুপ্ত হয়ে গেছে। তাই এটি ছাত্রলীগের কোন ঘটনা নয়। হলে ছাত্র তোলা নিয়ে সাকিবের ছেলেরা আমাদের ওপর হামলা করেছে।

এদিকে হল কমিটির শাখা বিলুপ্তি বিষয়ে কেন্দ্রীয়ভাবে কিছু জানা সম্ভব না হলেও ‘বাংলাদেশ টেক্সটাইল বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ’ নামে একটি ফেসবুক পেজে শনিবার রাতে একটি পোস্টে বলা হয়, ‘বাংলাদেশ টেক্সটাইল বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ শহীদ আজিজ হল শাখার কমিটি অনির্দিষ্টকালের জন্যে স্থগিত ঘোষণা করা হলো।’

প্রকাশিত : ৪ মে ২০১৫

০৪/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

প্রথম পাতা



ব্রেকিং নিউজ: