মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১০ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

ফ্যাশনে রবীন্দ্রনাথ

প্রকাশিত : ১ মে ২০১৫
  • তৌফিক অপু

বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ২৫ বৈশাখে জন্মজয়ন্তী উদযাপনের লক্ষ্যে ইতোমধ্যে শিল্প-সাহিত্যাঙ্গনে চলছে বিপুল আয়োজন। পঁচিশে বৈশাখে এবারের রবীন্দ্র জন্মজয়ন্তীর বিশেষত্ব হলো-বাঙালীর গানের কবি রবিঠাকুরের একশত চুয়ান্নতম জন্মোৎসব। সাহিত্য, শিল্প, টিভি, মঞ্চ এবং রাষ্ট্রীয়ভাবেও বিশ্ব নন্দিত এ কবির জন্মোৎসবকে ঘিরে চলছে সাজ-সাজ আয়োজন। এ আয়োজনের মধ্য দিয়ে যেমন একজন কবিকে জাতি স্মরণ করছে শুদ্ধভাবে। পাশপাশি ব্যক্তি রবীন্দ্রনাথকেও নানা আঙ্গিক থেকে উজ্জ্বলভাবে উপস্থাপনেরও তোড়জোড়েরও যেন সীমা নেই। সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাংলাভাষার কবি রবীন্দ্রনাথ শুধু যে কবিতার বৃত্তেই নিজেকে সীমাবদ্ধ রেখেছিলেন তা নয়। তাঁর স্পর্শে উদ্ভাসিত হয়েছে শিল্পের প্রতিটি অঙ্গন, প্রতিটি শাখা।

সাহিত্য রচনায় যেমন তিনি তাঁর অবিস্মরণীয়তার রেখাকে অতিক্রম করেছেন। একইভাবে একজন রবীন্দ্রনাথের দৈনন্দিন জীবনের প্রতিটি অধ্যায় বাঙালীর জীবনধারায় মিশে গিয়ে করেছে অনবদ্য । আধুনিক মন ও মননের নান্দনিকতাকে তিনি তাঁর লাইফস্টাইলে এমন অনুকরণীয় রূপে ধারণ করেছিলেনÑ যার ছোঁয়ায় বাঙালীর জীবন বোধের স্বচ্ছ ভাবনা আরও আলোকিত আরও বর্ণোজ্জ্বল হয়ে উঠেছে। একজন রবীন্দ্রনাথ-কত মাত্রায় যে নিজেকে উপস্থাপিত করেছেনÑ সে নিরিখে এটুকু অনুধাবন করা যায় যেÑ রবীন্দ্র প্রভাব বলয়ে রবীন্দ্র উত্তর সাহিত্য যেমন আপ্লুত। একইভাবে তাঁর জীবনধারার বর্ষণে সিক্ত আজ বাঙালী মানস। তিনি যে শুধু একজন আধুনিক বোধসম্পন্ন মানুষরূপে নিজের মধ্যে আধুনিকতাকে লালন করেছেন তা নয়। তাঁর ভাবনা, তাঁর আধুনিক চিন্তাকে সাহিত্যের মধ্য দিয়েও তিনি ছড়িয়ে দিয়েছেন। তাঁর দৈনন্দিন জীবন যাপনের বিশিষ্টতাকে মিহি সমীরণে ভাসিয়ে দিয়েছেন সারা বাংলা তথা বিশ্বব্যাপী। আমাদের সাহিত্য, সঙ্গীত, নাটক রবীন্দ্রনাথের ছোঁয়ায় শুধু যে সজীব হয়ে উঠেছে তা নয়। বাংলা কবিতা, গল্প, উপন্যাস, সঙ্গীত, নাটক, নৃত্যু, চিত্রকলা পেয়েছে গভীর পূর্ণতাও। যে পূর্ণতার প্রান্তে আলোকরশ্মির মতো জ্বলে আছে তাঁর প্রতিদিনকার জীবনাচার। এ জীবনাচারের মধ্যে তাঁর পোশাক-আশাক, চলাফেরা, কথাবলা, চুলের ধরন শ্মশ্রুর মুগ্ধতা, মানবিকবোধসিক্ত মনোভাব এবং তাঁর আধুনিকাতার উৎসারণে রবীন্দ্রযুগ তো বটেইÑ এখনও তাঁর সবকিছু হয়ে আছে অনুকরণীয়। একদিকে তাঁর জাঁকজমকপূর্ণ জন্মজয়ন্তী উদযাপনের বিশাল আয়োজন। অন্যদিকে তাঁকে নিয়ে ফ্যাশন ট্রেন্ডের আয়োজনেও রয়েছে অন্যান্য বছরের তুলনায় ব্যাপক প্রস্তুতি। বিগত প্রায় এক দশক কাল ধরেই শ্রেষ্ঠ এ বিশ্ববরেণ্য কবিকে অত্যন্ত সুচারু ও সুন্দরভাবে ফ্যাশনের অনুষঙ্গ করে আসছেন। বিশেষ করে তাঁর শ্মশ্রুম-িত মায়াবী প্রতিচ্ছবি ও তাঁর নন্দিত কবিতার পঙ্ক্তি টিশার্ট, ফতুয়া, কুর্তায়, পাঞ্জাবি শার্টসহ নানা বসনে উদ্ভাসিত করার অসাধারণ সব আয়োজন এর মধ্যে অন্যতম।

প্রতিবছর পঁচিশে বৈশাখে রবীন্দ্রজয়ন্তীতে ফ্যাশন ট্রেডের প্রতিষ্ঠিত ফ্যাশন হাউসগুলো এ আয়োজন করে আসছে নিদারুণ আনন্দে। সেই আনন্দে উদ্বেল আয়োজনের মাত্রাটা যেন এবারের জন্মজয়ন্তীতে পেতে যাচ্ছে অনিন্দ্য শিল্পরূপ। যেহেতু রবীন্দ্রনাথ নিজেই শিল্পের প্রতিটি স্তরকে অতিক্রম করে হয়ে উঠেছেন শিল্পোত্তীর্ণ এক ইনস্টিটিউট। আজ সেই তাঁকে ঘিরেই চলছে শিল্পময় বিশাল আয়োজন। উৎসবী এক আমেজ যেন পেয়ে গেছে ২৫ বৈশাখ দিনটির। রবীন্দ্র ঘরানার নানা প্রেক্ষিতের কথা আমরা জানি। আমরা এও জানি যে, শিক্ষিত রুচিশীল বাঙালী তাঁর সাহিত্য ও জীবনবোধ দ্বারা কতটা প্রভাবিত, কতটা অনুপ্রাণিত। একজন রুচিশীল শিক্ষিত মানুষ অনায়াসে রবীন্দ্রবোধে দিক্ষীত হয়ে ওঠে নিজেকে সেই বোধের স্পন্দনে স্পনিন্দত করতে যেন প্রতিনিয়ত থাকেন উদগ্রীব।

আর তারই ধারাবাহিকতায় ফ্যাশন ট্রেডেও তিনি হয়ে উঠেছেন প্রাতঃস্মরণীয়তার উজ্জ্বল প্রতীক। ২৫ বৈশাখকে উপজীব্য করে পোশাকে রবীন্দ্রনাথকে ধারণের মুখরতা একটু বেশি মাত্রায় চোখে পড়লেও তাঁকে নিয়ে বছর জুড়েই চলে নানা কারুকার্যময় উচ্ছ্বসিত উদ্ভাসন।

২৫ বৈশাখে উদযাপিত হতে যাচ্ছে রবীন্দ্রনাথের জন্মজয়ন্তী। সে লক্ষ্যে বিশ্ববরেণ্য কবি রবীন্দ্রনাথের সৃষ্টিশীলতার প্রতি অপরিসীম শ্রদ্ধা রেখে ফ্যাশন হাউসগুলোতে চলছে ক্রেতাদের জন্য ব্যাপক আয়োজন। এ আয়োজনে যেমন রয়েছে পোশাক। তেমনি রয়েছে শোপিস, মগ, পোস্টার, ক্যালেন্ডারসহ বর্ণাঢ্য নানা আয়োজনও।

ছবি : নাসিফ শুভ

মডেল : রুবেল, তুলি ও সেলিম

পোশাক : নিত্য উপহার ও কাপড় ই বাংলা

প্রকাশিত : ১ মে ২০১৫

০১/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: