কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৪ ডিসেম্বর ২০১৬, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

দিনাজপুরে ছোট যমুনা নদীর ওপর সেতু কি হবে না

প্রকাশিত : ২৯ এপ্রিল ২০১৫
  • প্রশ্ন স্থানীয়দের

স্টাফ রিপোর্টার, দিনাজপুর ॥ দিনাজপুরের পার্বতীপুরের মমিনপুর ইউনিয়নের জশাইহাট সংলগ্ন ছোট যমুনা নদীর ওপর ব্রিজ নির্মিত না হওয়ায় বাঁশের তৈরি সাঁকো দিয়ে চলাচল করছে এলাকার হাজার হাজার মানুষ। এলাকার জনসাধারণ বলছেন, আর কতদিন লাগবে ব্রিজ তৈরি হতে।

সরেজমিন গিয়ে দেখা গেছে, পার্বতীপুর উপজেলার মমিনপুর ইউনিয়নের ৪০ গ্রামের কয়েক হাজার মানুষের চলাচলের জন্য রয়েছে একমাত্র অবলম্বন একটি বাঁশের সাঁকো। যশাই হাটের পূর্ব পাশ দিয়ে বয়ে গেছে ছোট যমুনা নদী। গোবিন্দপুর, হরিপুর, চান্দিনা, সরদারপাড়া, দোলাপাড়াসহ গ্রামের মানুষ তাদের উৎপাদিত ধানসহ নানারকম কৃষিপণ্য কাঁধে করে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে বাজারে যাচ্ছেন যুগযুগ ধরে। নদীর পশ্চিম পার্শ্বের যশাই হাইস্কুল, যশাই বালিকা বিদ্যালয়, দাখিল মাদ্রাসা আর পূর্ব পাশের ২টি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়সহ মন্মমথপুর হাইস্কুল হওয়ায় প্রতিদিন শত শত ছাত্র/ছাত্রীকে হাতে হাত ধরে সতর্কতার সঙ্গে পার হতে হয় বাঁশের সাঁকো। কোমলমতি শিশুদের অভিভাবকরা এসে পার করে দিয়ে যান শিশুদের। মাত্র পাঁচ ফুট চওড়া ও ২৫০ ফুট দীর্ঘ এ সাঁকোর ওপর দিয়ে রিকশাভ্যান, মোটর সাইকেল, বাইসাইকেলসহ বিভিন্ন যানবাহন পার হচ্ছে অহরহ। নদীতে ব্রিজের প্রয়োজন ৬০ মিটার হলেও পারাপারের প্রয়োজনে সাঁকো তৈরি করা হয়েছে ২৫০ ফুটের। সাঁকোটি তৈরি করতে প্রতিবছর ইউনিয়ন চেয়ারম্যান ইজারা দিয়ে থাকেন। এ ব্যাপারে মমিনপুর ইউনিয়নে চেয়ারম্যান বলেন, অনেকবার উপজেলা প্রকৌশল বিভাগ মাপযোগ করে গেছেন। কিন্তু কি কারণে এটা হচ্ছে না তা বলতে পারব না। উপজেলা প্রকৌশলী বলেন, স্বল্প ব্যয়ে হালকা যান প্রকল্পের আওতায় ব্রিজটি নির্মাণের জন্য যাবতীয় তথ্য উর্ধতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে।

রূপগঞ্জে বিধবার বাড়িতে সন্ত্রাসী হামলা, পাঁচ নারী আহত

নিজস্ব সংবাদদাতা, রূপগঞ্জ, ২৮ এপ্রিল ॥ মোবাইল ফোন চুরির ঘটনাকে কেন্দ্র করে রূপগঞ্জে এক বিধবার বাড়িতে সন্ত্রাসীরা হামলা চালিয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ সময় সন্ত্রাসীরা ৫ নারীকে পিটিয়ে আহত করেছে। মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলার তারাব পৌর এলাকার পবনকুল গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। আহত সালমা বেগম জানান, গত দুদিন আগে একই এলাকার মাজেদার ঘর থেকে একটি মোবাইল ফোন চুরি হয়। এরপর থেকে মাজেদা সালমার ছোটভাই মাসুমকে সন্দেহ করে আসছে। এ নিয়ে গত সোমবার বিকেলে এলাকায় সালিশ বসে। সালিশে চুরির সঙ্গে জড়িত থাকার কোন প্রমাণ পায়নি মাতব্বররা। মঙ্গলবার দুপুরে মাজেদা বেগম সন্ত্রাসী আলমগীর, আতাবুর, ইমনসহ ৭/৮ সন্ত্রাসীকে ভাড়া করে বিধবা জাহানারা বেগমের বাড়িতে হামলা চালানোর জন্য উস্কে দেয়। এ সময় সন্ত্রাসীরা জাহানারা বেগমের বাড়িতে হামলা চালিয়ে সুফিয়া বেগম (৫০) সালমা বেগম (৩৫) আসমা আক্তার (২৫), আরিফা আক্তার (২০) ও নাজমা আক্তারকে (২৫) পিটিয়ে মারাত্মক আহত করে।

সাপাহার সীমান্তে বিএসএফের নির্যাতনে গরু ব্যবসায়ী নিহত

নিজস্ব সংবাদদাতা, নওগাঁ, ২৮ এপ্রিল ॥ মঙ্গলবার ভোররাতে নওগাঁর সাপাহার উপজেলার কলমুডাঙ্গার পার্শ্ববর্তী ভারতীয় সীমান্তে বিএসএফের নির্যাতনে নুরুল ইসলাম (৩৬) নামে বাংলাদেশী এক গরু ব্যবসায়ী নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে ইসলাম (৪৮) নামে আরও একজন। স্থানীয়রা আহত ইসলামকে উদ্ধার করে।

প্রকাশিত : ২৯ এপ্রিল ২০১৫

২৯/০৪/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



ব্রেকিং নিউজ: