আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৭ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বুধবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

দূর করুন ক্লান্তি

প্রকাশিত : ২৭ এপ্রিল ২০১৫

সেসব সুখের দিন আর নেই। যখন আমাদের সময় কাটত আয়েসে, যখন শুধু জীবন-ধারণের ভার কাঁধে চেপে বসেনি সিন্দাবাদের বুড়োর মতো। আজ আমাদের সমস্যা অনেকÑকি সংসারে, কি কর্মক্ষেত্রে। দুরন্তগতিতে অবর্তিত আজ আমাদের চারপাশ। ছুটতে ছুটতে, ঘুরপাক খেতে খেতে আজ আমাদের ভীষণ ক্লান্তিÑ শরীরেও, মনেও। মাঝে মাঝেই মন চায় সবকিছু ছেড়েছুড়ে দূরে কোথাও পালিয়ে যেতে। যেখানে পাওয়া যাবে বিশ্রাম, দেহ-মন দুইয়ে ফেলা ক্লান্তির হাত থেকে দু’দ- শান্তি। কিন্তু দীর্ঘ অবসর সোনার পাথরবাটির মতোই বস্তু। অতএব, না পালিয়ে গিয়ে ক্লান্তির মোকাবেলা করাই বুদ্ধিমানের কাজ। এবার জেনে নিন কর্মজীবীদের জন্য ‘কাজের মাঝে ক্লান্তিমুক্তির উপায়।’

কোন কোনদিন অফিসে এমন কাজের চাপ থাকে যে মাথা তোলাই দায়। অথচ কাজ করতে করতে হয়ত আপনার সারা শরীরে ক্লান্তি জড়িয়ে আসছে। খুব সহজ কয়েকটি এক্সারসাইজ আছে, যা সেই মুহূর্তে অভ্যাস করলে নিমেষে শরীর চাঙ্গা হয়ে উঠবে।

তাড়াসন

শক্ত মাটির ওপর সোজা হয়ে পা দুটি জোড়া করে দাঁড়ান। হাত দুটি আঙুলের মাধ্যমে আটকে মাথার ওপর রাখুন এবার জোড়া হাতের তালু উল্টো করে টান টান করে মাথার ওপর ধীরে ধীরে তুলুন। খেয়াল রাখবেন আপনার শিরদাড়া যেন সোজা থাকে। শরীরকে যতটা সম্ভব টান টান করা যায় করুন। এইভাবে কিছুক্ষণ থাকুন। হাত ওঠানোর সঙ্গে সঙ্গে নিঃশ্বাস নিতে হবে। হাত নিচে নামাতে থাকুন। সঙ্গে সঙ্গে নিঃশ্বাস ছাড়তে থাকবেন। শরীরকে স্বাভাবিক অবস্থায় আনতে হবে।

প্রাণিক এক্সসারসাইজ

চেয়ারে সোজা হয়ে বসুন। শিরদাঁড়া সোজা থাকবে। দৃষ্টি স্থির রাখুন সামনের দিকে। ধীরে ধীরে চোখ বন্ধ করুন। ঠোঁট দুটি বন্ধ করুন। সঙ্গে সঙ্গে এ সম্পর্কে সচেতন হওয়ার চেষ্টা করুন। চেষ্টা করার মনযোগের সঙ্গে পারিপার্শ্বিক সব শব্দ কানে শোনার, সব চেয়ে দূর থেকে ভেসে আসা ও তুলনায় সবচেয়ে কাছের শব্দ মনে দিয়ে শোনার চেষ্টা করুন। তবে কোন শব্দকেই আলাদা করে মনে ধরে রাখার প্রয়োজন নেই। এবার খেয়াল করুন কিভাবে নাক দিয়ে শ্বাস গ্রহণ করেন আপনি। তারপর খেয়াল করুন নাভিমূল থেকে কিভাবে গলা পর্যন্ত ক্রমাগত আপনার শ্বাস যাতায়াত করছে। বেশ খানিকক্ষণ এভাবে অভ্যাস করলে দেখবেন আপনার ক্লান্তি নিমেষে দূর হয়ে যাবে।

কোটি চক্রাসন

সোজা হয়ে পা দুটি ইষৎ ফাঁক করে মাটির উপর দাঁড়ান। দু’পাশে দুটি হাত সোজা করুন। এবার ধীরে ধীরে শরীরটাকে ঘুরিয়ে চেষ্টা করুন যে দিক দিয়ে শরীর ঘোরাবেন তার উল্টোদিকে পায়ের গোড়ালি দেখার।

মেমারি এক্সসার সাইজ

আরাম করে বসে বা শুয়ে এটি অভ্যাস করতে পারেন। প্রথমে দুটি হাতের তালু ঘষে গরুম করে নিন। এবার হাত দুটি চোখের ওপর রাখুন। চেষ্টা করুন সেই মুহূর্ত থেকে শুরু করে দিনের শুরু পর্যন্ত যা যা ঘটেছে তা একে একে মনে করার। এতে

স্মৃতিশক্তি ও বাড়ে, ক্লান্তি কাটে।

মেরিনা চৌধুরী

ছবি : আরিফ আহমেদ

মডেল : বিদ্যা সিনহা মীম

প্রকাশিত : ২৭ এপ্রিল ২০১৫

২৭/০৪/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: