মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১১ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

ঘুড়ি ও চিল

প্রকাশিত : ২৫ এপ্রিল ২০১৫
  • সুজন বড়ুয়া

আমি একটি কাটা ঘুড়ি, ইচ্ছেমতো

উড়ি ঘুরি বাজাই তুড়ি। আমায় নিয়ে

জারিজুরি দেখিয়েছিলে তোমরা মিলে,

উড়িয়ে দিলে অথই নীলে দূর আকাশে

মাঠের পাশে দাঁড়িয়ে থেকে। আমি যখন

এঁকেবেঁকে উড়ছি হাওয়ায়, ভাবছি কে পায়

আমাকে আর। এমনি পোড়া কপাল আমার!

ঠিক তখনি বাধিয়ে দিলে হঠাৎ লড়াই,

করলে তোমরা বড্ডো বড়াই ও পাড়ার নীল

ঘুড়ির সাথে। কিন্তু আমি তোমার হাতে

ভালোই ছিলাম, পরিপাটি আর ছিমছাম।

শুধু ভাবতামÑ তুমিই আমার জন্মদাতা,

পিতা-মাতা, বন্ধু-ভ্রাতা, তুমিই ত্রাতা,

আমার তো আর কেউ ছিল না, আমার কোনো

বাড় ছিল না, মাঞ্জা সুতোয় ধার ছিল না।

তবুও ঘুড়ি পারছিল না আমার সাথে

বুদ্ধিবলে। ছলেবলে লড়তে গিয়ে

তলে তলে কাঁপছিল সে থরথরিয়ে,

ঘামছিল সে দরদরিয়ে। ঘামতে ঘামতে

নামতে নামতে হঠাৎ কখন কী যে হল,

আমার আসন টলোমলো। আমি দেখি

বাঁধনহারা। আমি এমন ছন্নছাড়া

হলাম তোমার জেদের বলি। কী আর করি

দলাদলি জলাঞ্জলি দিয়ে এখন একাই চলি

হাওয়ায় ভেসে নিরুদ্দেশে মেঘের মতো

অবিরত।

উড়তে উড়তে ঘুরতে ঘুরতে আকাশের ওই

আঙিনাতে চিলের সাথে হল দেখা।

চিল বলল তুমি একা আমিও একা,

তুমি ওড়ো আমিও উড়ি, তুমি ঘুড়ি

আমি তো চিল, তোমার সাথে আরো যে মিল

আছে আমার খবর কি তার রাখো তুমি?

কেন এমন ডাকো তুমিÑ বলি আমি

একটু থামি, রয়ে সয়ে ভাবিÑ এমন

আকুল হয়ে কী বলতে চাও? ভেবে না পাই

ধুত্তুরি ছাই, মিলের কথা কী বললে ভাই,

আমার ওসব জানা তো নাই। চিল বললÑ

আমিই জানাই কীভাবে সেই মিল খুঁজে পাই,

কেমন করে তুমি আমার এমন কাছের

বন্ধু মিতে ইংরেজিতে তুমি যে কওঞঊ

আমিও কওঞঊ। আমি বলিÑ অখখ জওএঐঞ,

বেশ তো তবে, আমাদেরই মধ্যে হবে

বন্ধুতা ভাব প্রীতির অভাব আর রবে না,

আর হবে না আড়াআড়ি ছাড়াছাড়ি,

করব শুধু হাসাহাসি থাকব দুজন

পাশাপাশি আমি ঘুড়ি এই তুমি চিল

দেখব আকাশ রোদ ঝিলমিল, দেখব কেমন

অনন্ত নীল। চলো আমরা উড়তে থাকি,

উড়ে উড়ে ঘুরতে থাকি, সবাই দেখুক

কা-টা কি, বন্ধু হল ঘুড়ি ও পাখি।

প্রকাশিত : ২৫ এপ্রিল ২০১৫

২৫/০৪/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: