কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৪ ডিসেম্বর ২০১৬, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

অনন্য রেকর্ডের সামনে কুক

প্রকাশিত : ২৪ এপ্রিল ২০১৫
অনন্য রেকর্ডের সামনে কুক

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ইতিহাস গড়ার দিকে আরও একধাপ এগিয়ে গেলেন এ্যালিস্টার কুক। ইংল্যান্ডের জার্সি গায়ে টেস্টে সর্বোচ্চ রান সংগ্রহকারীদের তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে উঠে এসেছেন তিনি। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে দ্বিতীয় টেস্টের দ্বিতীয় দিন শেষে ৩৭ রানে অপরাজিত থাকেন ইংল্যান্ড অধিনায়ক। সেই সঙ্গে সাবেক ব্যাটসম্যান এ্যালেক স্টুয়ার্টকে পেছনে ফেলে ইংলিশ ক্রিকেটারদের তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে উঠে আসেন তিনি। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে তৃতীয় দিন মাঠে নামার আগে টেস্টে তার মোট রান ৮৪৮৪। পাঁচদিনের ক্রিকেটে ইংল্যান্ডের সর্বোচ্চ রানের মালিক এখনও গ্রাহাম গুচ। তাকে টপকাতে এখনও ৪১৭ রান করতে হবে কুককে। কিংবদন্তি অধিনায়ক গ্রাহাম গুচ ইংল্যান্ডের ব্যাটসম্যানদের মধ্যে সর্বোচ্চ ৮৯০০ রান করেছিলেন। বুধবার দ্বিতীয় টেস্টেও দ্বিতীয় দিনের শুরুতেই ক্যারিবিয়ানদের ২৯৯ রানে ধরাশায়ী করে সফরকারী ইংল্যান্ড। ২৪ ওভার বল করে ৬১ রানের বিনিময়ে স্টুয়ার্ট ব্রড একাই ৪ উইকেট দখল করেন। এছাড়া জেমস এ্যান্ডারসন ও ক্রিস জর্ডান ২টি করে উইকেট তুলে নেন। তাদের বিধ্বংসী বোলিংয়েই তিন শ’র কোটা পূর্ণ করার আগেই গুটিয়ে যায় ক্যারিবীয়দের ইনিংস।

ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে দ্বিতীয় টেস্টে আলো ছড়িয়েছেন কেবল মারলন স্যামুয়েলসই। এদিন মারলন স্যামুয়েলস সর্বোচ্চ ১০৩ রানের অসাধারণ এক ইনিংস উপহার দেন। ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৩৫ রান করেন ড্যারেন ব্রাভো। জবাবে ইংলিশরা দুর্দান্ত শুরু করে। দ্বিতীয় দিন শেষে কোন উইকেট না হারিয়েই ৭৪ রান করে ইংল্যান্ড। ইংলিশ অধিনায়ক ৯২ বল খেলে ৩৭ রান করেন। যেখানে ছয় ৪ ছিল। এছাড়া তার সঙ্গে ৩২ রান নিয়ে ক্রিজে রয়েছেন জোনাথান ট্রট। দুই উদ্বোধনী ব্যাটসম্যানের লক্ষ্য এখন শুধুই সামনে এগিয়ে যাওয়া। জোনাথন ট্রটের টেস্টে মোট রান ৩৭৯৯। তবে এই টেস্টে এখন সবার চোখ এ্যালিস্টার কুকের দিকেই। কেননা গ্রাহাম গুচকে ছাড়িয়ে যেতে এখন তার প্রয়োজন আর ৪১৭ রান।

তবে টেস্ট ক্রিকেটের ইতিহাসে সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহকারীদের তালিকায় সবার শীর্ষে অবস্থান করছেন শচীন টেন্ডুলকর। সুদীর্ঘ ক্যারিয়ারে অসাধারণ পারফর্মেন্স করে নিজেকে অনন্য উচ্চতায় নিয়ে যাওয়া শচীনের দখলে ১৫ হাজার ৯২১ রান। যিনি ক্রিকেটকে বিদায় বলেছেন আরও আগেই। তবে ক্রিকেটকে বিদায় বললেও মাস্টার ব্লাস্টার এই ক্রিকেটারকে দেখে নেয়ার সুযোগ রয়েছে। শুধু তাই নয় তার পুরনো সব খেলার সরঞ্জামও। কেননা ভারতীয় ক্রিকেটের জীবন্ত কিংবদন্তি শচীন টেন্ডুলকরকে নিয়ে একটি ডকুমেন্ট্রি বানাতে যাচ্ছেন প্রযোজক রবি ভাগচ-কা। যেখানে শচীনের ক্রিকেট জীবনের নানা খুঁটি-নাটি অজানা তথ্যের সন্ধান পাবেন দর্শকরা। এর জন্য গত দুই বছর ধরেই দৌড়-ঝাঁপ করেছেন প্রযোজক রবি ভাগচ-কা। অবশেষে ক্রিকেট ঈশ্বরকে রাজি করাতে পেরেছেন তিনি। শচীন টেন্ডুলকর ২০১৩ সালে বাইশ গজ থেকে বিদায় জানান। কিন্তু ক্রিকেটকে বিদায় বললেও লিটল মাস্টারের জনপ্রিয়তা কোন অংশেই কমেনি এখনও। তার বিষয়ে জানার আগ্রহ ক্রিকেটপ্রেমীদের কখনই শেষ হবে না বলে মনে করেন ক্রিকেটবোদ্ধারা। একটি সংবাদমাধ্যমে ডকুমেন্ট্রির ফার্স্ট লুক ধরা পড়েছে, যেখানে শচীন নিজের হাতে তার ক্রিকেটের সরঞ্জাম দর্শকদের সামনে তুলে ধরছেন। তার বাড়ির ভেতরেই চলছে শূটিং। ছবিতে লিটল মাস্টারের ছোটবেলার কিছু দৃশ্যে একজন অভিনেতা অভিনয় করবেন। পরিচালক লন্ডনবাসী জেমস এ্যারস্কিন প্রথমবার ভারতে এসে কোন ছবির কাজ করছেন।

এর আগে খেলা নিয়ে চলচ্চিত্র বানিয়ে পুরস্কৃত হওয়ার অনুপ্রেরণা থেকেই এবার শচীনকে নিয়ে কাজ করছেন তিনি।

যে কারণে এই পরিচালকের হাত ধরে ডকুমেন্ট্রিটি এক অন্য মাত্রা পাবে বলে আশা করছেন প্রযোজক রবি। তবে এখন পর্যন্ত ছবিটির কোন নাম ঠিক করা হয়নি। কথা রয়েছে ২০১৬ সালে মুক্তি পাবে এই ডকুমেন্ট্রি।

প্রকাশিত : ২৪ এপ্রিল ২০১৫

২৪/০৪/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: