রৌদ্রজ্জ্বল, তাপমাত্রা ২৩.৯ °C
 
৮ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

হেলথ টিপস্

প্রকাশিত : ২১ এপ্রিল ২০১৫

গান গাওয়ার উপকারিতা

গান গাওয়ার কিন্তু শারীরিক এবং মনস্তাত্ত্বিক উপকারিতা অনেক।

0 গান গাওয়া এক রকমের এ্যারোবিক শারীরিক ব্যায়াম। শরীরে অক্সিজেন সরবরাহ বেড়ে যায়। শরীরের উপরের মাংসপেশির ব্যায়াম হয় যথেষ্ট।

0 ‘ভাল অনুভব’ এর হরমোন এন্ডোরফিন বেড়ে যায়। আমাদের শরীরে এবং মনে আনন্দের অনুভূতি এবং আরেগের উত্তরণ ঘটে।

0 যখন এক সঙ্গে অনেকে মিলে গান করে তখন তাদের একাত্মতা বোধ, কমিউনিটি বোধ বৃদ্ধি পায়। বৃদ্ধি পায় একে অপরের সঙ্গে অংশগ্রহণের মনোবৃত্তি।

0 ফুসফুসের ক্যাপাসিটি বৃদ্ধি পায়। ফুসফুসের সমস্ত নালীপথ ও সাইনাস পরিষ্কার হয়।

0 বেশি অক্সিজেন সরবরাহে মনের সজাগ্রতা বৃদ্ধি পায়।

0 রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে।

0 ব্লাড প্রেসার কমিয়ে দেয়।

তাই শান্ত থাকুন। গেয়ে উঠুন মনের আনন্দে।

দাঁত মাজার টিপ্স

১. খাওয়ার ৩০ মিনিট পর দাঁত ব্রাশ করুন।

২. একদিক দিয়ে প্রতিবার ব্রাশ করতে শুরু করলে অন্যদিকে নজর কমে যায়। সবদিকে সমানভাবে ব্রাশ করুন।

৩. খুব হালকা আলতোভাবে ব্রাশ করুন।

৪. অন্তত ২ মিনিট ধরে ব্রাশ করুন।

৫. মোলার দাঁতের বাইরে ভাল করে মাজুন

৬. ঠিক ঠাক ব্রাশ পছন্দ করুন।

৭. ফলমূল এবং সবজি বেশি করে খান। শাকসবজি, ফলমূল দাঁতের ময়লা দূর করে।

৮. সকল সময় দাঁতের ব্রাশ পরিষ্কার রাখুন

৯. প্রতি ৩ মাসে একবার দাঁতের ব্রাশ পাল্টে ফেলুন।

১০. ফ্লস ব্যবহার করুন, দাঁতের ভেতরে খাদ্যকণিকা দূর করার জন্য।

ওজন কমানোর ১০ উপায়

১. বাড়িতে রান্না করা খাবার খান।

২. প্রতিদিন ৩ কাপ সবজি খান।

৩. আঁশ সমেত খাদ্য খান।

৪. প্রতি সপ্তাহে একবার অন্তত মাংস ছাড়া খাবার মেনু থাকুক।

৫. প্রতিদিন সকালে ১টি ভাল নাস্তা দিয়ে জীবন শুরু করুন।

৬. প্রচুর পানি পান করুন।

৭. স্বাস্থ্যকর স্নাক্স্ খান

৮. স্যাচুরেটেড ফ্যাট পরিত্যাগ করুন।

৯. মাখনতোলা দুগ্ধজাত দ্রবাদিতে অভ্যস্ত হন।

১০. আপনার প্রতিদিনের তালিকায় অধিক পরিমান মাছ ও ফলমূল যোগ করুন।

সুখের জন্য

০ অভিযোগ পরিত্যাগ করুন। সন্তুষ্টি, কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করুন।

০ দুঃখ বোধ পরিত্যাগ করুন, আশাবাদ ব্যক্ত করুন।

০ দুশ্চিন্তা দূর করুন, স্বর্গীয় জগতের চিন্তা করুন।

০ তিক্ততা দূর করুন, মাফ করে দিতে শিখুন।

০ ঘৃণা বোধ পরিত্যাগ করুন। মন্দ বোধের পরিবর্তে ভাল বোধের উন্মেষ ঘটান।

০ না বোধক চিন্তা পরিত্যাগ করুন। এর স্থলে হ্যাঁ বোধের চিন্তায় উদ্ভাসিত হন।

০ রাগ দূর করুন, ধৈর্যশীল হন।

০ ছেলেমি পরিত্যাগ করুন, পরিপক্বতা অর্জন করুন।

০ ম্লান মুখ নয়, পরিবর্তে চারদিকের সৌন্দর্যকে উপভোগ করুন।

০ হিংসা পরিত্যাগ করুন। বিশ্বাসে বিশ্বাস স্থাপন করুন।

০ গল্প করা পরিত্যাগ করুন, আপনার জিহবাকে সংযত করুন।

০ পাপ কাজ থেকে দূরে থাকুন, পুণ্য করার চেষ্টা করুন।

০ সবকিছু সহজে পরিত্যাগ করা বাদ দিন। বরং লেগে থাকুন।

প্রকাশিত : ২১ এপ্রিল ২০১৫

২১/০৪/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: