কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৪ ডিসেম্বর ২০১৬, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

সিটি নির্বাচনে ভোটাররা নীরব ব্যালট বিপ্লব ঘটাবেন

প্রকাশিত : ১৬ এপ্রিল ২০১৫
সিটি নির্বাচনে ভোটাররা নীরব ব্যালট বিপ্লব ঘটাবেন
  • জাসাসের অনুষ্ঠানে খালেদা জিয়া

স্টাফ রিপোর্টার ॥ সিটি নির্বাচনে নীরব ব্যালট বিপ্লব ঘটিয়ে জনগণ সরকারের পতন ত্বরান্বিত করবে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়া। তিনি বলেন, এ সরকার ক্ষমতায় আসার পর প্রতিদিন দেশে মানুষ গুম ও খুনের শিকার হচ্ছে। তাই জনগণ পরিবর্তন চায়, এ সরকারের হাত থেকে রেহাই পেতে চায়। মঙ্গলবার বিকেলে নয়াপল্টন বিএনপি কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে জাসাস আয়োজিত বর্ষবরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। এ সময় তিনি ঢাকা উত্তরে তাবিথ আউয়াল ও ঢাকা দক্ষিণে মির্জা আব্বাসকে ভোট দিতে রাজধানীবাসীর প্রতি আহ্বান জানান।

এদিকে প্রায় ২ বছর পর খালেদা জিয়া কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে যাওয়ায় সেখানে গিয়ে ভিড় করেন দলের নেতাকর্মীরা। বিএনপি নেতাকর্মীদের পাশাপাশি শরিক দল জামায়াতের কিছু নেতাকর্মীও সেখানে গিয়ে জড়ো হন। কে কাকে ঠেলে খালেদা জিয়ার কাছে গিয়ে দাঁড়াবেন এ নিয়েও চলে প্রতিযোগিতা। তবে দলের সিনিয়র নেতাদের উপস্থিতি ছিল কম। এর আগে ২০১৩ সালের ২১ মে বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব অসুস্থ রুহুল কবির রিজভীকে দেখতে বিএনপি কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে যান তিনি। তবে মঙ্গলবার অবশ্য বিএনপি কার্যালয়ের ভেতরে প্রবেশ করেননি তিনি। সরাসরি গাড়ি থেকে নেমে জাসাসের বর্ষবরণ অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে সংক্ষিপ্ত বক্তব্য শেষে গুলশানের বাসায় ফেরেন তিনি। খালেদা জিয়া নয়াপল্টনে পৌঁছার কয়েক ঘণ্টা আগে থেকেই সেখানে জাসাসের শিল্পীরা সঙ্গীত পরিবেশন করতে থাকেন।

অনুষ্ঠানে খালেদা জিয়ার পাশে অবস্থান করেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ, লে. জেনারেল (অব) মাহবুবুর রহমান, ড. আবদুল মঈন খান, ভাইস চেয়ারম্যান সেলিমা রহমান, চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা আবদুল হালিম, আদর্শ ঢাকা আন্দোলনের আহ্বায়ক ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি প্রফেসর ড. এমাজউদ্দীন আহমদ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক প্রো-ভিসি আ ফ ম ইউসুফ হায়দার, বিএনপির আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক ড. আসাদুজ্জামান রিপন, সাংস্কৃতিক সম্পাদক গাজী মাজহারুল আনোয়ার, জাসাসের সভাপতি এম এ মালেক, সাধারণ সম্পাদক মনির খান, মহিলা দলের সাধারণ সম্পাদক শিরিন সুলতানা প্রমুখ। এছাড়াও খালেদা জিয়ার সঙ্গে বিএনপি সমর্থিত ঢাকা সিটি দক্ষিণের মেয়র প্রার্থী মির্জা আব্বাসের স্ত্রী আফরোজা আব্বাস এবং ঢাকা উত্তরের বিএনপি সমর্থিত মেয়র প্রার্থী তাবিথ আউয়াল উপস্থিত ছিলেন। একপর্যায়ে খালেদা জিয়া তাদের হাত উঁচিয়ে পরিচয় করিয়ে দেন। এছাড়া তিনি মেয়রপ্রার্থী মির্জা আব্বাসের প্রতীক ‘মগ’, তাবিথ আউয়ালের প্রতীক ‘বাস’ এবং চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনে মনজুর আলমের ‘কমলালেবু’ প্রতীকের কথা উপস্থিত সকলকে জানিয়ে দেন এবং তাদের ভোট দেয়ার আহ্বান জানান।

খালেদা জিয়া বলেন, এ সরকার অবৈধ। তারা পদে পদে আইন অমান্য করছে। নির্বাচনী প্রচারে আমাদের প্রতিনিয়ত বাধা দিচ্ছে। তবে আমাদের প্রার্থীদের বিপুল ভোটে বিজয়ী করে জনগণ নীরব ব্যালট বিপ্লব ঘটাবে। তিনি বলেন, সরকারকে মনে রাখতে হবে বিএনপির আন্দোলন জাতীয় নির্বাচনের জন্য সিটি নির্বাচনের জন্য নয়। তবে সিটি নির্বাচন দিয়ে সরকার ভেবেছিল বিএনপি নির্বাচনে আসবে না।

খালেদা জিয়া বলেন, অতীতের সিটি নির্বাচনগুলোতে বিএনপি বিপুল ভোটে জয়লাভ করেছে। এবারের সিটি নির্বাচনেও বিএনপি বিপুল ভোটে জয়লাভ করবে। তিনি বলেন, ঢাকাকে আধুনিক নগরী ও মানুষের বাস উপযোগী করে গড়ে তুলতে মির্জা আব্বাস ও তাবিথ আউয়ালকে বিজয়ী করুন। তিনি বলেন, সরকারী দলের প্রার্থীরা পদে পদে আইন অমান্য করছে। আর সরকার নির্বাচনী প্রচারে আমাদের প্রতিনিয়ত বাধা দিচ্ছে।

খালেদার কাছে ভোট চান মাহী : বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার সঙ্গে দেখা করে বাংলা নববর্ষের শুভেচ্ছা জানানোর পাশাপাশি মেয়র পদে ‘ঈগল’ প্রতীকে নিজের জন্য ভোট চাইলেন ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে বিকল্প ধারার প্রার্থী মাহী বি. চৌধুরী। মঙ্গলবার রাত ১০টায় তিনি খালেদা জিয়ার গুলশানের বাসভবনে গিয়ে তার সঙ্গে দেখা করে ভোট চান বলে বিকল্প ধারার মিডিয়া উইং সদস্য জাহাঙ্গীর আলম জানান।

প্রকাশিত : ১৬ এপ্রিল ২০১৫

১৬/০৪/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

শেষের পাতা



ব্রেকিং নিউজ: