কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৪ ডিসেম্বর ২০১৬, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

ইতিহাস গড়লেন সানিয়া মির্জা

প্রকাশিত : ১৪ এপ্রিল ২০১৫
ইতিহাস গড়লেন সানিয়া মির্জা

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ গত মৌসুম ধরেই অপ্রতিরোধ্য গতিতে ছুটছিলেন সানিয়া মির্জা। অবশেষে তার ফলও পেলেন তিনি। চার্লস্টন ডব্লিউটিএ টুর্নামেন্ট জিতে নতুন এক ইতিহাস গড়লেন সানিয়া মির্জা। ডাবলসে বিশ্ব টেনিসের শীর্ষস্থান দখল করলেন ভারতের টেনিস কুইন। প্রথম ভারতীয় মহিলা হিসেবে অসামান্য এই কৃতিত্বের অধিকারী হলেন হায়দরাবাদী তারকা সানিয়া মির্জা। সানিয়ার সঙ্গে সুইস কিংবদন্তি মার্টিনা হিঙ্গিসও দুর্বার। টানা ১৪ ম্যাচ জয়ের বিস্ময়কর কীর্তি গড়লেন সানিয়া মির্জা-মার্টিনা হিঙ্গিস জুটি। বিশ্ব টেনিসের অন্যতম সেরা তারকা মার্টিনা হিঙ্গিসের সঙ্গে জুটি বাঁধার পর এখন পর্যন্ত একটি ম্যাচও হারেননি সানিয়া। মার্টিনা হিঙ্গিসকে সঙ্গী করে সম্প্রতি ইন্ডিয়ান ওয়েলস এবং মিয়ামি ওপেন চ্যাম্পিয়ন হন সানিয়া মির্জা। রবিবার ডব্লিউটিএ চার্লস্টনের দ্বৈতে শিরোপা জিতে তৃতীয় মুকুট পরল ইন্দো-সুইশ জুটি। এদিন তারা ৬-০ এবং ৬-৪ গেমে ক্যাসি দেল্লাকুয়া-দারিজা জুরাককে হারিয়ে চার্লস্টন টুর্নামেন্ট নিজের করে নেন।

ফাইনালে ফেবারিট হিসেবেই কোর্টে নামেন ইন্দো সুইশ জুটি। বলা যায় ইতিহাস গড়ার থেকে একটি হার্ডল দূরে ছিলেন সানিয়া মির্জা। সেমিফাইনালে রাশিয়ার প্রতিপক্ষকে হারিয়ে ফাইনালের টিকেট নিশ্চিত করেছিলেন তারা। প্রতিপক্ষকে হারিয়ে শিরোপা জয়ের সঙ্গে ডাবলসের শীর্ষস্থানটিও দখল করায় উচ্ছ্বসিত সানিয়া মির্জা। তিনি এক ভিডিও বার্তায় তাকে সমর্থন করার জন্য ভক্ত-অনুরাগীদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন।

অসাধারণ এই মাইলফলক স্পর্শ করতে পেরে সানিয়া মির্জা নিজেও বেশ গর্বিত। সেইসঙ্গে ভবিষ্যতে দেশকে আরও সাফল্য উপহার দেয়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন সানিয়া। তার এই অর্জনে গোটা ভারতেই বইছে আনন্দ-উচ্ছ্বাস। হায়দরাবাদী এই তারকাকে অভিনন্দন জানিয়েছেন কংগ্রেস সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধী। অভিনন্দন বার্তায় সোনিয়া বলেন, ‘সানিয়ার এই কীর্তি গোটা দেশকে বিশ্বে গর্বিত করেছে। আশা করি তার পারফর্মেন্সের এই ধারাবাহিকতা ধরে রাখবে এবং আরও নতুন নতুন ইতিহাস রচনা করবে।’ বিশ্ব টেনিসে দ্বৈতে শীর্ষস্থান দখল করায় উচ্ছ্বাসের কোন কমতি নেই বলিউড পাড়ায়ও। সানিয়া মির্জা টেনিস দিয়ে বিশ্বে ভারতকে গৌরবান্বিত করেছে বলেও মন্তব্য করেছেন অনেক বলিউড তারকা। ২৮ বছর বয়সী ভারতের এই টেনিস তারকাকে অভিনন্দন জানিয়ে টুইট করেছেন শ্রদ্ধা কাপুর, ফারহান আখতার এবং ফারাহ খান।

দীর্ঘদিন ধরেই সানিয়া মির্জা স্বপ্ন দেখতেন বিশ্ব টেনিস র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষস্থানটি দখল করতে। আর এই প্রথম সেই স্বপ্নের বাস্তবায়ন। এতে দারুণ উচ্ছ্বসিত সেরেনা বলেন, ‘প্রত্যেকের কাছেই র‌্যাঙ্কিংয়ের ১ নাম্বার স্থানটা দখল করা স্বপ্নের মতো। আমিও সেরা হওয়ার স্বপ্ন দেখতাম। অবশেষে সেই দিনটি এলো। এতে আমি খুবই আনন্দিত এবং গর্বিত।’ মৌসুমের এখনও অনেক সময় বাকি। যে কারণে তাদের সামনে রয়েছে অনেক টুর্নামেন্ট। আর ২৮ বছর বয়সী সানিয়া মির্জার বিশ্বাস চলতি মৌসুমটা ভালভাবেই শেষ করতে পারবে তারা। এ বিষয়ে তার অভিমত হলো, ‘আমি মনে করি আমাদের সামনে এখনও অনেক টুর্নামেন্ট বাকি রয়েছে। তাই আশা করি বাকি টুর্নামেন্টগুলোতে ভাল পারফর্মেন্স করতে পারব আমরা। অসাধারণ এই সাফল্যের জন্য আমার পরিবার, ভালবাসার মানুষ, কোচ, সঙ্গী এবং যারা আমাকে দারুণভাবে সমর্থন করে গেছেন সকলের প্রতিই কৃতজ্ঞতা জানাই।’ সানিয়ার সঙ্গী মার্টিনা হিঙ্গিসের সময়টাও দারুণ কাটছে। আর এ কারণেই সুইজারল্যান্ডের ফেড কাপের দলে জায়গা পেয়েছেন তিনি। দীর্ঘদিন পর এবারই ফেড কাপের দলে যোগ দিচ্ছেন সুইস টেনিস তারকা মার্টিনা হিঙ্গিস।

নরেন্দ্র মোদির প্রশংসা

চার্লস্টনে ফ্যামিলি সার্কেল কাপের দ্বৈতে চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন সানিয়া মির্জা। সেইসঙ্গে ডব্লিউটিএ ডাবলসের র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষস্থান দখল করলেন তিনি। প্রথম ভারতীয় প্রমীলা টেনিস খেলোয়াড় হিসেবে অসামান্য এই কীর্তি গড়ায় উচ্ছ্বাসের জোয়ারে ভাসছে গোটা দেশ। আর তার এমন সাফল্যের প্রশংসায় মুগ্ধ ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি থেকে শুরু করে টেনিসের জীবন্ত কিংবদন্তি শচীন টেন্ডুলকরও। ভারতের প্রধানমন্ত্রী বর্তমানে তিনজাতির সফরে ইউরোপে অবস্থান করছেন। আর সেখান থেকেই সামাজিক যোগাযোগের অন্যতম জনপ্রিয় মাধ্যম টুইটারে অভিনন্দন জানান তিনি। এ বিষয়ে মোদি টুইটারে লিখেন, ‘সানিয়া মির্জার অসাধারণ এক অর্জন! বিশ্ব র‌্যাঙ্কিংয়ের দ্বৈতে ১ নাম্বার স্থানটি দখল করায় তোমাকে অভিনন্দন।’

টেনিসের জীবন্ত কিংবদন্তি শচীন টেন্ডুলকর বলেন, ‘এক নাম্বারের মুকুট পরায় অভিনন্দন সানিয়া মির্জা।

অসাধারণ এই অর্জন আরও সাফল্যের জন্য তাড়া করবে।’ বর্তমান ভারতীয় টেস্ট ক্রিকেটের অধিনায়ক বিরাট কোহলিও সানিয়া মির্জার এমন সাফল্যে উচ্ছ্বসিত। এতে পুরো ভারতবাসীকেই গর্বিত করেছেন বলে মন্তব্য করেন কোহলি। এ বিষয়ে তার টুইট, ‘ভারতের মেয়ে বিশ্ব দ্বৈত টেনিস র‌্যাঙ্কিংয়ের এক নাম্বার স্থানটি দখল করেছে এবং আমাদের গর্বিত করেছে। অভিনন্দন সানিয়া মির্জা।’

টেনিস বিশ্বে এশিয়ার সেরা তারকাদের একজন সানিয়া মির্জা। অসাধারণ পারফর্মেন্স করে দীর্ঘদিন ধরেই পাদপ্রদীপের আলোয় ছিলেন তিনি। ক্যারিয়ারের শুরু থেকেই টেনিস র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষ স্থানটি দখল করার স্বপ্ন দেখতেন তিনি।

অবশেষে সেই স্বপ্ন বাস্তবায়িত হলো ২৮ বছর বয়সী সানিয়ার। তবে তার সাফল্যের পেছনে আত্মবিশ্বাসকেই সম্ভব বলে মন্তব্য করেছেন সানিয়া। সেইসঙ্গে ভারতের মেয়েরা ইচ্ছে করলে যে অনেক অসম্ভবকেই সম্ভব করতে পারে এটাকে তারই বাস্তব উদাহরণ বলে এক বিবৃতিতে জানিয়েছেন সানিয়া। এ বিষয়ে তার অভিমত হলো, ‘আমি বিশ্বাস করি এই অর্জন ভারতীয় মেয়েদের মনে আত্মবিশ্বাস যোগাবে যে তারা ইচ্ছে করলেই অসম্ভবকে সম্ভব করতে পারে। আমরা যদি মানসিকভাবে এবং শারীরিকভাবে চাই তাহলে যে কোন কিছুকেই অর্জন করতে পারব। র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষে উঠে আমি সত্যিই খুব গর্বিত।’

প্রকাশিত : ১৪ এপ্রিল ২০১৫

১৪/০৪/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: