কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৫ ডিসেম্বর ২০১৬, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

দেশ বিদেশে বেড়ানোর আকর্ষণীয় প্যাকেজ, জরুরী সেবা

প্রকাশিত : ১১ এপ্রিল ২০১৫
দেশ বিদেশে বেড়ানোর আকর্ষণীয় প্যাকেজ, জরুরী সেবা
  • আন্তর্জাতিক পর্যটনমেলা

মোরসালিন মিজান ॥ পাতাল ফেড়ে নামব আমি/উঠব আমি আকাশ ফুঁড়ে/বিশ্বজগৎ দেখব আমি/আপন হাতের মুঠোয় পুরে। হ্যাঁ, বিশ্বজগৎ ঘুরে দেখার শখ অনেকেরই আছে। তবে চাইলেই তা হয় না। এর সঙ্গে আরও অনেক কিছু যুক্ত। আর সে অনেক কিছু নিয়েই আন্তর্জাতিক পর্যটন মেলা ঢাকা ট্রাভেল মার্ট-২০১৫। তিন দিনব্যাপী মেলা এখন চলছে হোটেল সোনারগাঁওয়ে। হোটেলের বলরুম ও বাইরের খোলা জায়গায় স্টল সাজিয়েছে জাতীয় পর্যটন সংস্থা, বিমান সংস্থা, ট্রাভেল এবং ট্যুর অপারেটর, হোটেল ও রিসোর্ট, পর্যটন স্বাস্থ্যসেবা প্রতিষ্ঠান, আর্থিক ও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। সব মিলিয়ে ৫০টি সংস্থা ও প্রতিষ্ঠান। মেলায় দর্শনার্থীদের জন্য থাকছে আকর্ষণীয় ট্যুর প্যাকেজ। বিশেষ হ্রাসকৃত মূল্যে বিমান টিকেট, বিভিন্ন পণ্য ও সেবা। দ্বাদশতম আয়োজনের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করা হয় বৃহস্পতিবার। মেলার দ্বিতীয় দিন সেখানে গিয়ে দেখা যায় উপচেপড়া ভিড়। ভ্রমণপিপাসুরা প্রতিটি স্টল ঘুরে প্রয়োজনীয় তথ্য সংগ্রহ করছিলেন। তাঁদের কাছে বিভিন্ন প্যাকেজ ও সেবার বিস্তারিত তুলে ধরছিলেন স্টলের কর্মীরা। প্যাভিলিয়নগুলোতে ছোট ছোট টেবিল চেয়ার। জরুরী মির্টিংয়ের মতো আয়োজন। আসলে প্যাকেজ সম্পর্কে জানা ও জানানোর কাজ হচ্ছিল। ছোট স্টলগুলোর সামনেও গায়ে গা লাগিয়ে দাঁড়িয়েছিলেন ভ্রমণে আগ্রহী মানুষ। মেলা থেকে দেশের অভ্যন্তরে ভ্রমণের বিভিন্ন অফার যথারীতি দেয়া হচ্ছিল। তবে এই মেলার বৈশিষ্ট্য অনুযায়ী, বিশেষ আগ্রহ ছিল আশপাশের দেশগুলো ভ্রমণে।

আশপাশের দেশ ভ্রমণের ক্ষেত্রে প্রথমেই আসে ভারত ও নেপালের কথা। অধিকাংশ স্টলে দেশ দুটি ভ্রমণে আকর্ষণীয় সব প্যাকেজ। খোঁজ নিয়ে জানা যায়, নেপাল ভ্রমণের ক্ষেত্রে ভ্রমণপিপাসুদের বেশ আস্থা কুড়িয়েছে মাউন্টেন ক্লাব ট্যুরস। মেলায় প্রতিষ্ঠানের বড় একটি প্যাভিলিয়ন। কর্মীরা দারুণ ব্যস্ত। প্রোডাক্ট ডেভেলপমেন্ট ম্যানেজার আল আমিন হোসেন জানালেন, নেপালে তাঁদের রয়েছে নিজস্ব অফিস ও স্টাফ। একাধিক ফাইভস্টার হোটেলের যৌথ মালিকানা আছে। মাউন্টেন ক্লাব নেপালে ভ্রমণ ইচ্ছুকদের সর্বোত্তম সেবা দিতে সক্ষম জানিয়ে তিনি বলেন, প্রতি মাসে আমরা ৫ শতাধিক লোক নেপাল ভ্রমণে পাঠিয়ে থাকি। দুই ঈদে তাঁদের মাধ্যমে নেপাল ভ্রমণকারীর সংখ্যা ৫ হাজার ছাড়িয়ে যায় বলেও জানান তিনি। এখন মালয়েশিয়া, সিঙ্গাপুর, থাইল্যান্ডেও বাঙালীদের প্রচুর আসা-যাওয়া। মেলায় অংশ নেয়া প্রতিষ্ঠানগুলোর প্রায় সকটি থেকেই দেশগুলো ভ্রমণে আকর্ষণীয় অফার দেয়া হচ্ছে। গ্লোরি হলিডেইজ নামের একটি প্যাভিলিয়নের সামনে বাড়তি ভিড় দেখা গেল। স্টলের এক্সিকিউটিভ শায়লা ফাতেমা জানালেন, সিঙ্গাপুর-বালি, কুয়ালালামপুর-বালি, সিঙ্গাপুর-কুয়ালালামপুর-ব্যাঙ্কক, সিঙ্গাপুর-কুয়ালালামপুর-বালিসহ বেশ কিছু প্যাকেজ রয়েছে তাঁদের। সবই ফ্যামেলি ট্যুর। এছাড়া তিনদিন ও দুই রাতের সিঙ্গাপুর প্যাকেজে থাকছে বিশেষ ছাড়।

ক্যাপ্টেন হলিডেইজ নামের একটি স্টলটি একেবারেই নতুন প্যাকেজ। এগুলোর মধ্যে রয়েছেÑ হংকং ও ভ্যান্টিয়ান ম্যাকাও প্যাকেজ, ভিয়েতনাম প্যাকেজ, লাওস প্যাকেজ ও কামবোডিয়া প্যাকেজ। প্রতিষ্ঠানের স্বত্বাধিকারী জয়ীতা। দেখতে তরুণী। তবে দেখে বোঝা হয়ে যায়, ট্যুরিজম ব্যবসা বেশ গুছিয়ে নিয়েছেন। বললেন, হাতেগোনা কয়টা দেশ আর চেনা জানা জায়গার মধ্যে পড়ে থাকতে চাইনি। তাই নতুন প্যাকেজগুলোর ব্যবস্থা করেছি। প্যাকেজগুলোর খরচও অনেক কম বলে জানান তিনি।

এদিকে ট্যুরিজমের পাশাপাশি মেলায় আছে মেডিক্যাল ট্যুরিজমের ব্যবস্থা। মেকমাইট্রিপ ডট বিডি লিমিটেডের সিনিয়র এক্সিকিউটিভ সাব্বির আহমেদ জানালেন, ভারত সিঙ্গাপুর ব্যাঙ্কক ও কুয়ালালামপুরে মেডিক্যাল ট্যুর পরিচালনা করেন তারা। এছাড়া সাধারণ প্যাকেজগুলো যারা গ্রহণ করবেন তারা প্রত্যেকেই সংশ্লিষ্ট দেশগুলোতে বিনা খরচে স্বাস্থ্য পরীক্ষা করতে পারবেন বলে জানান তিনি। মেলায় নামকরা হোটেল রিসোর্টগুলোও নিজেদের বিস্তারিত তুলে ধরছে। এয়ারলাইন্সের স্টলগুলোতেও চলছিল নানা খোঁজখবর। মালয়েশিয়ান এয়ারলাইন্সের পক্ষ থেকে দেয়া হচ্ছিল বিশেষ ছাড়। ভিসা প্রসেসিংসহ আরও নানা সেবা দেয়া হচ্ছে মেলা থেকে। সব মিলিয়ে চমৎকার আয়োজন। বাংলাদেশ ট্যুরিজম বোর্ড, বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনস এবং বাংলাদেশ পর্যটন কর্পোরেশনের সহায়তায় মেলা আয়োজন করেছে ভ্রমণবিষয়ক পাক্ষিক দ্য বাংলাদেশ মনিটর। মেলার আজ শনিবার শেষ দিন। চলবে সকাল ১০টা থেকে রাত আটটা পর্যন্ত। প্রবেশমূল্য ২৫ টাকা।

প্রকাশিত : ১১ এপ্রিল ২০১৫

১১/০৪/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

শেষের পাতা



ব্রেকিং নিউজ: