মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১১ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

বৈশাখী মেলা ও করণীয়

প্রকাশিত : ৬ এপ্রিল ২০১৫

বৈশাখ আসতে আর মাত্র কয়েকটা দিন। রাঙা বসন্ত এখন শেষের দিকে। ছোট-বড় সব বৃক্ষরাজি নব পত্রপল্লবে সেজেছে নবযৌবনে। আর কোকিলের মিষ্টি ডাক কিছুসময় পর পর মনে করিয়ে দিচ্ছে এখন বসন্ত। আর চারদিকে সবুজের হাতছানি মনে করিয়ে দিচ্ছে কিছুদিন পরই আসছে বৈশাখ। এবার বসন্তকে বিদায় দেয়ার পালা। যদিও এবার প্রকৃতি বেশ ভালভাবেই বরণ করেছে বসন্তকে। প্রাকৃতিক নিয়মেই এবার বসন্তকে বিদায় দেয়ার পালা। কারণ গ্রীষ্মের বার্তা নিয়ে আসছে বৈশাখ। মেলায় ঢোকা ও বের হওয়ার কিছু সাধারণ নিয়ম রয়েছে। যা সবার মেনে চলা উচিত।

মেলায় যা হয়

মেলা মানেই বিশাল প্রাঙ্গণ। হইহুল্লোড়, হুটোপুটিতে ভরপুর এক খুশির আসর। সঙ্গে মন ভাল করে দেয়ার নানা উপকরণ। চারদিকে সাজানো পসরা, নতুন চমক। সঙ্গে অনেক মানুষের ঢল। আবহাওয়াটাই এমন দিশাহারা করে দেয় যে, অনেক সময় আমরা ভুলে যাই এখানেও থাকে কিছু কায়দা-কানুন, মেনে চলতে হয় কিছু ডিসিপ্লিন।

মেলায় ঢোকার সময়

টিকেট কাউন্টারের সামনে লাইন করে দাঁড়ান। বেলাইনে ঢোকার চেষ্টা করবেন না।

টিকেট বা পাস হাতে আছে বলেই অন্যদের ঠেলে-গুঁতিয়ে গেট ক্র্যাশ করবেন না।

পার্কিংয়ের নিয়ম মেনে গাড়ি পার্ক করুন।

মেলায় প্রবেশ করুন মেলা কর্তৃপক্ষের নির্দেশিত পথে।

ঢোকার সময় সংগ্রহ করে নিন মেলার গাইডবুক। কোন দিকে কিসের স্টল আছে জেনে নিলে অকারণ খুঁজে হাতড়ে বেড়াতে হবে না ।

মেলার মাঠে

মেলার মাঠটাকে পিকনিক গ্রাউন্ড করে তুলবেন না।্

খাবারের ঠোঙা, কাগজ, প্যাকেট ফেলে মেলাপ্রাঙ্গণ নোংরা করবেন না। ডাস্টবিনের সদ্ব্যবহার করুন।

মেলা মানেই শুধু ভোজন নয়, রকমারি জিনিসের দিকেও তাকান।

কোন বিশেষ ব্যক্তিত্বকে কেন্দ্র করে মেলার আয়োজন হলেও সেই বিশেষ স্টলটি দেখার সুযোগ হাতছাড়া করবেন না।

মেলায় কোন অনুষ্ঠান চলছে-দেখতে না চাইলে অযথা উঁকি-ঝুঁকি মেরে ভিড় বাড়াবেন না।

কোন আলোচনা সভা, কবিতা পাঠ বা গান-নাচের অনুষ্ঠানে থাকলে মোবাইল সাইলেন্ট মোডে রাখুন।

অনুষ্ঠানের মাঝে উচ্চৈস্বরে কথা বলবেন না।

মাঠের মধ্যে অচেনা-অজানা কোন জিনিস পড়ে থাকলে তুলবেন না। দরকারে মেলার নিরাপত্তা ব্যবস্থার ভারপ্রাপ্তদের নজরে আনুন ব্যাপারটা।

স্বেচ্ছাসেবকদের সহযোগিতা করুন। ওঁরা আপনাকে সাহায্য করার জন্যই আছেন।

নিজে অথবা সঙ্গীকে খুঁজে না পেলে কর্তৃপক্ষকে জানাতে পারেন। দু’জনেরই সঙ্গে মোবাইল ফোন থাকলে কথা বলে নিন। অকারণ হইচই করে গোলমাল বাড়াবেন না।

স্টলের মধ্যে

স্টলের ভেতর কোন দাহ্য পদার্থ নিয়ে ঢুকবেন না। দোকান বা স্টলের ভেতর কোন জিনিস দেখতে গিয়ে অকারণ ধাক্কাধাক্কি করবেন না। মেলায় জিনিস দেখে কিনবেন। স্টল থেকে জিনিস কিনে বেরোনোর সময় জিনিসের দাম ও ক্যাশমেমো চেক করে নিন।

স্টলে ভিড়ভাট্টার মধ্যে নিজের ব্যাগ ও দরকারি জিনিসপত্র সামলে রাখুন, সতর্ক থাকুন। দোকানদারের সঙ্গে সহযোগিতা করুন। যেখান থেকে জিনিস নিয়ে দেখছেন সেখানেই রেখে দিন।

স্টলে ঢোকার ও বেরোবার আলাদা এন্ট্রান্স থাকে। সেই নিয়ম মেনে চলুন। ঢোকার পথ দিয়ে বেরোবেন না। এতে স্টলের ভেতর ঠেলাঠেলি, বিশৃঙ্খলা বেড়ে যায়।

যাপিত ডেস্ক

প্রকাশিত : ৬ এপ্রিল ২০১৫

০৬/০৪/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: