কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

মায়ামি ওপেনের কোয়ার্টারে সেরেনা

প্রকাশিত : ১ এপ্রিল ২০১৫
মায়ামি ওপেনের কোয়ার্টারে সেরেনা

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ টানা তৃতীয়বার মায়ামি ওপেন শিরোপা জয়ের পথে এগিয়ে চলেছেন সেরেনা উইলিয়ামস। বিশ্বের এক নম্বর এ টেনিস তারকা ক্র্যানডন পার্কে গত দুইবার জিতে গেছেন। এবারও সেভাবেই এগিয়ে চলেছেন। বেশ স্বাচ্ছন্দ্যেই মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের টেনিসে এ কৃষ্ণকন্যা কোয়ার্টার ফাইনালে পা রেখেছেন। চতুর্থ রাউন্ডে মাত্র ৭৩ মিনিট স্থায়ী লড়াইয়ে রাশিয়ার সভেতলনা কুজনেতসোভাকে সরাসরি ৬-২, ৬-৩ সেটে হারিয়েছেন। হার্ডকোর্ট এ আসরে রেকর্ড অষ্টম শিরোপা জয় হবে তার এবার জিততে পারলে। সেরেনার জ্যেষ্ঠ সহদোরা ভেনাস উইলিয়ামসও শেষ আটে পা রেখেছেন। তিনি চার নম্বর বাছাই ডেনমার্কের ক্যারোলিন ওজনিয়াকিকে ৬-৩, ৭-৬ (৭-১) সেটে হারিয়ে দিয়েছেন। মায়ামি ওপেনে দু’বোন মিলিয়ে এখন পর্যন্ত ১০ বার শিরোপা জিতেছেন। এবার আরেকটি যোগ করতে দু’জনই এগিয়ে চলেছেন। ২০০২, ২০০৩ ও ২০০৪ সালে শিরোপা জয়ের পর আবারও সেরেনার হ্যাটট্রিকের সুযোগ। আর মাত্র একজনই টানা তিনবার মায়ামিতে খেতাব জিতেছিলেন। তিনি বিশ্বের সাবেক এক নম্বর জার্মান তারকা স্টেফিগ্রাফ। তিনি ১৯৯৪, ১৯৯৫ ও ১৯৯৬ সালে শিরোপা জিতেছিলেন মায়ামিতে। শিরোপার হ্যাটট্রিক গড়ার দ্বিতীয় সুযোগ এবার সেরেনার জন্য। সুযোগ মায়ামিতে রেকর্ড ৮ বার চ্যাম্পিয়ন হওয়ার। চতুর্থ রাউন্ডে সেরেনার প্রতিপক্ষ ছিলেন কুজনেতসোভা। ২০০৬ সালে মায়ামি ওপেন জিতেছিলেন এ রাশিয়ান তারকা। কিন্তু এদিন কোন সুযোগই পাননি প্রতিদ্বন্দ্বিতার। তাকে উড়িয়েই দিয়েছেন সেরেনা। মাত্র ১ ঘণ্টা ১৩ মিনিটের লড়াইয়ে সরাসরি ৬-২, ৬-৩ সেটের জয় ছিনিয়ে নেয়ার পর ৩৩ বছর বয়সী সেরেনা বলেন, ‘যাদের বিরুদ্ধে খেলতে হচ্ছে তারা সবাই অনেক ভাল খেলোয়াড়। যখন ভেনাস আমার পাশাপাশি খেলতে থাকে তখন তার ফলাফল জানার জন্য খুব উত্তেজিত থাকি। কিন্তু সাধারণত আমি তার সব ম্যাচ আমি দেখতে পারি না নিজে ভাল খেলার জন্য অনুশীলনে মনোনিবেশ করি বলে। কিন্তু সবসময় নিজেকে সুখী মনে হয় যখন সে জিতে যায়।’ আসরের ষোড়শ বাছাই ভেনাসও দারুণভাবে এগিয়ে যাচ্ছেন। ৩৪ বছর বয়সী এ তারকা এবার বিদায় করে দিয়েছেন চার নম্বর ড্যানিশ কন্যা ওজনিয়াকিকে। উঠে গেছেন কোয়ার্টার ফাইনালে। দুই বোন এভাবে জিততে থাকলে একবারে ফাইনালে গিয়েই মুখোমুখি হবেন পরস্পরের। দীর্ঘদিন ক্রনিক সিনড্রোমে ভোগা ভেনাস একেবারেই হারিয়ে গিয়েছিলেন। তবে এ বছরের শুরুতেই নিজেকে মেলে ধরতে শুরু করেছেন। অকল্যান্ডে জানুয়ারি মাসে শিরোপা দিয়ে শুরু করেছেন এবং পরবর্তীতে অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে খেলেছেন কোয়ার্টার। ভেনাসের বিষয়ে সেরেনা বলেন, ‘তিনি সত্যিই অনেক ভাল খেলছেন এবং অনেক আক্রমণাত্মক মনোভাব নিয়েই খেলছেন। আমি সবসময়ই বলে থাকি যদি ভেনাস অগ্রসর হয় সেক্ষেত্রে আমিও অনুপ্রাণিত হই।’ ওজনিয়াকির বিরুদ্ধে কখনই হারেননি ভেনাস। এ নিয়ে ড্যানিশ তারকার বিরুদ্ধে ৭-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেলেন তিনি। এছাড়া মায়ামি ওপেনের শেষ আটে উঠেছেন জার্মানির দুই তারকা সাবিনে লিসিকি ও আন্দ্রেয়া পেটকোভিচ, রোমানিয়ার সিমোনা হ্যালেপ, যুক্তরাষ্ট্রের সেøায়ান স্টিফেন্স, স্পেনের কার্লা সুয়ারেজ নাভারো ও চেক প্রজাতন্ত্রের ক্যারোলিনা পিসকোভা।

প্রকাশিত : ১ এপ্রিল ২০১৫

০১/০৪/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: