আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৭ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বুধবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

অস্ট্রেলিয়াকে হারাতে আত্মবিশ্বাসী রোহিত

প্রকাশিত : ২৬ মার্চ ২০১৫
অস্ট্রেলিয়াকে হারাতে আত্মবিশ্বাসী রোহিত
  • সিডনির উইকেট স্পিন বা পেস সহায়ক যেমনই হোক, ভারত চ্যালেঞ্জ নিতে প্রস্তত

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডের পিচের আচরণ বেশ রহস্যজনক। চলমান বিশ্বকাপে এই ভেন্যুর চিত্র হরহামেশাই পাল্টে যেতে দেখা গেছে। এক ম্যাচে রানের পাহাড় হয়েছে তো পরের ম্যাচেই বোলাদের বিশেষ করে স্পিনারদের দাপটে অল্প রানে গুটিয়ে গেছে কোন দলের ইনিংস। এমন রহস্যঘেরা সিডনিতেই আজ বিশ্বকাপ ক্রিকেটের দ্বিতীয় সেমিফাইনালে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবে স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়া ও বর্তমান চ্যাম্পিয়ন ভারত।

ম্যাচটি সামনে রেখে বুধবার সংবাদ সম্মেলনে ভারতীয় ওপেনার রোহিত শর্মা জানিয়েছেন, সিডনির উইকেট যেমনই হোক না কেন, সেটা নিয়ে চিন্তিত নয় ভারত। ম্যাচটি জিতে দল ফাইনালে খেলতে প্রস্তুত বলে জানিয়েনে তারকা এই ব্যাটসম্যান।

স্পিন না পেস সহায়ক হবে সিডনির উইকেট? প্রশ্নটি এখন সবার মুখে মুখে। পাশাপাশি অস্ট্রেলিয়ার সেøজিং নিয়েও কম আলোচনা হচ্ছে না। ভারতকে রহস্যঘেরা উইকেটের পাশাপাশি মাইকেল ক্লার্কের দলের সেøজিংও সামলাতে হবে বলে মনে করছেন অনেকে। তবে যে যাই ভাবুক না কেন, ভারত সব চ্যালেঞ্জ নিতে প্রস্তুত বলে জানিয়েছেন রোহিত। সিডনির উইকেটের দুই রূপের খবরই জানা আছে রোহিতের। যে কোন কিছুর জন্যই ভারত তৈরি বলে মনে করেন তিনি। এ প্রসঙ্গে রোহিত বলেন, কোন ধরনের উইকেট পাব তা আমাদের ভাবাচ্ছে না। কারণ যে কোন উইকেটেই ভাল করতে আমরা আত্মবিশ্বাসী। নিজেদের বোলিং আক্রমণের ওপর বেশ আস্থা আছে রোহিতের। সেই আস্থা থাকার কারণ ব্যাখ্যা করে তিনি বলেন, সাত ম্যাচে ৭০ উইকেট নিয়েছি আমরা। প্রতিপক্ষকে প্রত্যেকবারই আমরা অলআউট করেছি। তাই আমরা জানি, আমাদের কি করতে হবে। আমাদের সিমাররা ভাল করেছে, স্পিনারাও তাই। যাই (যে ধরনের উইকেট) পাই না কেন, আমরা তৈরি। ম্যাচের আগে থেকেই অস্ট্রেলিয়ার খেলোয়াড়রা সেøজিং করার হুমকি দিয়ে যাচ্ছেন ভারতকে। মিচেল জনসন তো প্রকাশ্যেই বলে রেখেছেন, তিনি সেøজিং করতে প্রস্তুত। কিন্তু এসবকে রোহিত খুব একটা পাত্তা দিচ্ছেন। এ প্রসঙ্গে ভারতীয় ওপেনার বলেন, এটা (সেøজিং) যতক্ষণ সীমানার মধ্যে থাকবে, ততক্ষণ আমাদের সমস্যা নেই। তবে আমি আশা করছি, এটা সীমা অতিক্রম করবে না। আমরা সব পেশাদার ক্রিকেটাররাই জানি, সীমানা অতিক্রম করার প্রয়োজন নেই। সবকিছু মিলিয়ে অস্ট্রেলিয়াকে হারিয়ে মেলবোর্নে আগামী রবিবারের ফাইনাল খেলার স্বপ্ন দেখছেন রোহিত। তরুণ এই ক্রিকেটার বলেন, অবশ্যই আমরা জিততে পারি। এ নিয়ে কোন প্রশ্নই নেই।

সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডে দক্ষিণ আফ্রিকা ও শ্রীলঙ্কার কোয়ার্টার ফাইনাল ম্যাচটিতে স্পিন ভাল কাজ করেছে। দক্ষিণ আফ্রিকার ইমরান তাহির ও জেপি ডুমিনি মিলে দখল করেন ৭ উইকেট। লঙ্কানরা অলআউট হয় মাত্র ১৩৩ রানে। এর আগে গ্রুপ পর্বে অস্ট্রেলিয়া-শ্রীলঙ্কা ম্যাচটিতে আবার ব্যাটিং উইকেটই দেখেছে ক্রিকেট বিশ্ব। অস্ট্রেলিয়ার করা ৯ উইকেটে ৩৭৬ রানের জবাব দিতে গিয়ে শ্রীলঙ্কা করেছিল ৩১২ রান। গ্রুপপর্বে সিডনির আরেক ম্যাচে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে ৪০৮ রান করেছিল দক্ষিণ আফ্রিকা। ওই ম্যাচে ইমরান তাহিরের ঘূর্ণিতে ১৫১ রানেই অলআউট হয়ে যায় ক্যারিবীয়রা। ৫ উইকেট নেন তাহির।

একেক ম্যাচে একেক আচরণ করায় আজকের সেমিতে সিডনির আচরণ কেমন হয় সেটা নিয়ে কৌতূহল সবার মনেই।

প্রকাশিত : ২৬ মার্চ ২০১৫

২৬/০৩/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: