মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১১ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

অর্জনের ম্যাচ, কোন চাপ নেই!

প্রকাশিত : ১৯ মার্চ ২০১৫
অর্জনের ম্যাচ, কোন চাপ নেই!

ক্যারিবীয় বিশ্বকাপে তাঁর নেতৃত্বেই ভারতকে হারিয়েছিল বাংলাদেশ। এবারের দলটির সঙ্গেও ওতপ্রোতভাবে জড়িত তিনি। বাংলাদেশ দলের অন্যতম নির্বাচক বর্তমানে হাবিবুল বাশার সুমন। বিশ্বকাপে দলের নৈপুণ্যে স্বাভাবিকভাবেই খুশি তিনি। আজকের ম্যাচ নিয়ে কী ভাবছেন এই সাবেক তারকা ক্রিকেটার? আলাপচারিতায় জয়ের প্রত্যাশা, তথা ভারতকে হারানোর কথাই শোনালেন বাংলাদেশের অন্যতম সফল এই সাবেক অধিনায়ক। সাক্ষাতকারÑ তোফায়েল আহমেদ।

প্রশ্ন : লক্ষ্য পূরণের অনুভূতি দিয়েই শুরু করি। কোয়ার্টার ফাইনালে খেলার অনুভূতি কেমন?

হাবিবুল বাশার : দারুণ খুশি আমি। প্রথম লক্ষ্যটা আমাদের পূরণ হয়েছে। আমরা যে গ্রুপে ছিলাম সেখান থেকে কোয়ার্টারে কোয়ালিফাই করা খুব কঠিন ছিল। তার ওপর অস্ট্রেলিয়ান কন্ডিশন কাজটাকে বেশি কঠিন করে দিয়েছিল। সেই কাজটা আমরা খুব ভালভাবে করতে পেরেছি। বাংলাদেশ সবার কাছে প্রমাণ করতে পেরেছে আমরা সত্যিকারের ভাল দল।

প্রশ্ন : টাইগারদের সার্বিক নৈপুণ্য কিভাবে মূল্যায়ন করবেন?

বাশার : দল এবং ব্যক্তিগত দুই দিক থেকেই সবাই অনেক ভাল খেলছে। দেখার মতো বেশ কিছু ইনিংস আছে। নিজেদের ছন্দটাও তারা তুলে ধরতে পেরেছে। খারাপ সময়ে ভেঙ্গে না পড়া, বড় স্কোরে ভীত না হওয়া, সুযোগ পেলে সেটিকে ঠিকমতো ব্যবহার করাÑ এই জিনিসগুলো বাংলাদেশ এবার খুব সুন্দর উপস্থাপন করতে পেরেছে।

প্রশ্ন : মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ, সাব্বির, সৌম্য তো দারুণ খেলল। এদের বিষয়ে আলাদা করে কিছু বলবেন?

বাশার : শুধু এরা তিনজনই নয়, মুশফিক এবং সাকিবও কিন্তু খুব ভাল খেলেছে। তবে টিমে সৌম্য এবং সাব্বির আমাদের নতুন সংযোজন। সে হিসেবে ওরা চমৎকার পারফর্ম করেছে। রিয়াদের কথা আলাদা করে বলতেই হবে। কারণ সে পর পর দুটি সেঞ্চুরি করেছে। এত বড় মঞ্চে এটা মোটেও সহজ নয়। আজ আরেকটা করতে পারে কি না দেখার বিষয়। তবে তিন এবং চার নম্বর নিয়ে এতদিন আমাদের যে সংশয় ছিল সেটি মনে হয় এই বিশ্বকাপে দূর হলো। এই দুই পজিশন নিয়ে মনে হয় আর আমাদের ভাবতে হবে না।

প্রশ্ন : বিশ্বকাপে আরও একবার ইংল্যান্ড বধ। বিশ্ব ক্রিকেটকে কোন বার্তা কি দেয়া হলো?

বাশার : নতুন করে বার্তা দেয়ার কিছু আছে বলে আমি মনে করি না। গত বিশ্বকাপেও আমরা ওদের হারিয়েছি। বিশ্ব ক্রিকেটকে বার্র্তা যা দেয়ার সেটা মনে হয় তারা আগেই পেয়ে গেছে। এশিয়া কাপের মতো আসরেও কিন্তু আমরা ফাইনাল খেলেছি। বিশ্ব ক্রিকেটের কেউ কেউ হয় তো কিছু আপত্তিকর কথা বলেছে। কিছু লোক আছে যারা কথা বলবেই। তাদের নিয়ে আসলে আমি আলোচনা করতেও রাজি নই। বার্তা যা দেয়ার তা আগেই দিতে পেরেছি। এবার আরও সেটা পরিষ্কার হলো।

প্রশ্ন : কন্ডিশন এবং উইকেট নিয়ে শঙ্কা ছিল। কিন্তু টাইগাররা সেই ভয়কে জয় করেছে। এর পেছনে কোন বিষয় কাজ করেছে?

বাশার : নিশ্চিত করেই এটা প্লেয়াররা খুব ভাল খেলেছে বলে হয়েছে। তারা কন্ডিশনের সঙ্গে খুব ভালভাবে মানিয়ে নিতে পেরেছে। সঙ্গে কোচিং স্টাফ এবং ম্যানেজমেন্টও খুব ভাল কাজ করেছেন। সব কিছু মিলিয়ে সফল। বোর্ডও চেষ্টা করেছে দলের যখন যা দরকার তা পর্যাপ্তভাবে দেয়ার। যত দূর সম্ভব সুযোগ-সুবিধা নিশ্চিত করার। আসলে যখন ভাল খেলে তখন সবাই মিলে একটা টিম হিসেবে কাজ করে। সাফল্যের দাবিদার তাই সবাই।

প্রশ্ন : ব্যাটিং, বোলিং, ফিল্ডিং কোন দিকটি আলাদা করে নজর কেড়েছে?

বাশার : ব্যাটিং এবং বোলিং। ফিল্ডিংও খারাপ হয়নি। তবে ফিল্ডিংয়ে আমি আরও উন্নতি দেখতে চাই।

প্রশ্ন : আমাদের ওপেনিং জুটিটা ঠিকভাবে দাঁড়াতে পারছে না ...

বাশার : ওপেনিংয়ের এই জুটিটার প্রতিই বেশি আস্থা রাখা যায়। হয়ত কয়েকটা ম্যাচ ভাল হয়নি। কিন্তু অতীতে এরাই অনেক ভাল করেছে। এটা নিয়ে আসলে আমি খুব বেশি চিন্তিত নই। হয়ত তাদের একটু খারাপ সময় যাচ্ছে। আশা করি সেটা তারা দ্রুত কাটিয়ে উঠতে পারবে।

প্রশ্ন : কালকের (আজ) ম্যাচে কারা ফেবারিট?

হাবিবুল : ভারতই এগিয়ে থাকবে। তবে কে ফেবারিট এটা মাথায় না নিয়ে আমরা আমাদের কাজটাই মাঠে ঠিকভাবে করতে পারব বলে আশা করি।

প্রশ্ন : ভারতীয় ব্যাটিংয়ের সামনে আমাদের বোলিংটা কেমন দেখছেন?

বাশার : ওদের ব্যাটিংটা সব দলের সামনেই শক্তিশালী। এটা নতুন কিছু নয়। শুধু আমাদের নয়, ওদের ব্যাটসম্যানরা জলে ওঠলে সব বোলারকেই সমস্যায় পড়তে হয়। তবে এই ব্যাটিংকেও অনেক সময় আমরা ভেঙ্গে পড়তে দেখেছি। এতে আমি খুব বেশি চিন্তিত নই।

প্রশ্ন : ভারতের বোলাররা এবার খুব ভাল করছে। সেখানে আমাদের ব্যাটসম্যানরা কেমন করবে বলে মনে হয়?

বাশার : বিশ্বকাপে আমাদের ব্যাটসম্যানরা কিন্তু ভাল বোলিংয়ের বিরুদ্ধে খেলেই রান করেছে। এমন নয় যে আমরা দুর্বল দলের সঙ্গে খেলেছি। পুরো টুর্নামেন্টে নিউজিল্যান্ডের বোলাররা কিন্তু খুব ভাল বল করছে। আমাদের ব্যাটসম্যানরাই কিন্তু ওদের বিপক্ষে বেশি সফলতার পরিচয় দেখিয়েছে। তাই ভারতীয় বোলিং নিয়ে আমাদের কোন ভাবনা আছে বলে মনে হয় না। আমার কাছে নিজেরা কেমন খেলছি সেটাই গুরুত্বপূর্ণ। কার সঙ্গে খেলছি এটা মুখ্য বিষয় নয়।

প্রশ্ন : প্রথমবারের মতো নকআউট ম্যাচ। একটু কী চাপে থাকবে টাইগাররা?

বাশার : না। টাইগাররা কোন রকম চাপে থাকবে বলে মনে হয় না। আমাদের তো এখন শুধু অর্জনের পালা। কোয়ার্টার ফাইনালে খেলার লক্ষ্য পূরণ হয়েছে, এখন আর একটা ম্যাচ জিতলেই আমরা সেমিফাইনালে চলে যাব। কাজেই আমাদের এখন হারানোর কিছু নেই। বরং আছে শুধুই পাওয়ার। তাই চাপ নয় আমরা আজ বরং উজ্জীবিত বাংলাদেশকেই দেখব।

প্রশ্ন : মনের কথা বলুন। আসলে কারা জিতবে আজ?

বাশার : মন তো বাংলাদেশের কথা বলছে।

প্রকাশিত : ১৯ মার্চ ২০১৫

১৯/০৩/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: