আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৬ ডিসেম্বর ২০১৬, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, মঙ্গলবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

জনগণকে সঙ্গে নিয়ে অশুভ শক্তি রুখতে হবে ॥ হানিফ

প্রকাশিত : ১৭ মার্চ ২০১৫

স্টাফ রিপোর্টার ॥ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ দলের নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধ হয়ে বিএনপি-জামায়াতসহ অশুভ শক্তিকে প্রতিহতের শপথ নেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি বলেন, বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়া ও জামায়াত হলো দেশ ও জাতির শত্রু। চিহ্নিত এই অশুভ শক্তিকে রুখে দিতে হবে। আওয়ামী লীগ জনগণকে সঙ্গে নিয়ে সকল অশুভ শক্তি প্রতিহত করবে।

সোমবার বিকেলে বঙ্গবন্ধু এভিনিউর আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক বর্ধিত সভায় তিনি এ কথা বলেন। বঙ্গবন্ধুর জন্মদিন উপলক্ষে আগামীকাল বুধবার আওয়ামী লীগের আলোচনা সভা সফল করতেই ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগ এ বর্ধিত সভার আয়োজন করে।

সভা-সমাবেশের উপর নিষেধাজ্ঞা তুলে নিতে খালেদা জিয়ার আহ্বানের সমালোচনা করে তিনি বলেন, সভা-সমাবেশের উপর এই সরকার কোনদিন নিষেধাজ্ঞা জারি করেনি। ডিএমপি কমিশনার যখন সভা সমাবেশের উপর থেকে নিষেধাজ্ঞা তুলে নিলেন, তখন তারা (বিএনপি) সমাবেশ করার অবস্থান থেকে ফিরে গেছেন। হরতাল-অবরোধ দিয়ে সহিংস রাজনীতির পথে চলে গেছেন। এখন আবার সভা-সমাবেশে নিষেধাজ্ঞা তুলে নিতে বলেন। এটা ভাওতাবাজি ছাড়া আর কিছু নয়।

খাদ্যমন্ত্রী এ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম বলেন, বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব সালাহ উদ্দিন আহমদকে নিয়ে মিথ্যাচার করছে বিএনপি। কয়েকদিনের মধ্যে এটা পরিষ্কার হয়ে যাবে যে, এটা তাদের সাজানো নাটক। তারা (বিএনপি) বারবার নাটক করে ধরা পড়েছে, এবারও ধরা পড়বে।

ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এম এ আজিজের সভাপতিত্বে বর্ধিত সভায় বক্তব্য রাখেন নগরের মুকুল চৌধুরী, হাজী মোহাম্মদ সেলিম এমপি, শাহে আলম মুরাদ প্রমুখ। বর্ধিত সভায় সিদ্ধান্ত হয়, বঙ্গবন্ধুর জন্মদিন উপলক্ষে সোমবার রাত ১২টা ১ মিনিটে কেক কাটবে ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগ।

সহিংসতা উস্কে দিয়েছেন খালেদা-সুরঞ্জিত ॥ সাংবাদিক সম্মেলনের মাধ্যমে বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়া সহিংসতাকে আরও উস্কে দিয়েছেন দাবি করে আওয়ামী লীগের উপদেষ্টাম-লীর সদস্য সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত বলেছেন, এতদিন পর বেগম সাহেব সংবাদ সম্মেলনে আসলেন। মানুষ মনে করেছিল তাঁর বক্তব্যে এই সংঘর্ষ-সংঘাতের রাজনীতি পরিহারের কথা থাকবে। কিন্তু আমার কাছে মনে হলো উনি যেন এই সংঘাতের রাজনীতিকে আরও উস্কে দিলেন!

রাজধানীর ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে সোমবার দুপুরে চলমান রাজনীতি শীর্ষক এক আলোচনা সভায় তিনি এ দাবি করেন।

বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব সালাহ উদ্দিন আহমেদ খুঁজে না পাওয়া রাজনীতির জন্য অশুভ লক্ষণ অভিহিত করে সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত বলেন, রাজনীতি হবে প্রকাশ্যে। জনগণের জন্য, জনগণকে নিয়েই হবে রাজনীতি। অন্তরালের রাজনীতি না হওয়াই ভাল। অন্তরালের রাজনীতি অন্তর্ধানে পরিণত হয়েছে। এটা অন্তর্ঘাতে পরিণত হওয়াটা হবে আরও বেশি দুঃখজনক। এ ধরনের নাটকীয়তা রাজনীতির জন্য অশুভ লক্ষণ। তবে আশা করি আমরা সালাহ উদ্দিন আহমেদ সম্পর্কে একটা ভাল খবর পাব।

প্রকাশিত : ১৭ মার্চ ২০১৫

১৭/০৩/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

শেষের পাতা



ব্রেকিং নিউজ: