আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৭ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বুধবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

কৃষি খাত এগিয়ে যাচ্ছে

প্রকাশিত : ৬ মার্চ ২০১৫

স্টাফ রিপোর্টার ॥ রফতানিযোগ্য পণ্যের প্রমোশন বিষয়ক এক কর্মশালার সমাপনী অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, বাংলাদেশের কৃষিখাত অত্যন্ত দ্রুততার সঙ্গে এগিয়ে যাচ্ছে। কৃষিখাতে উৎপাদিত পণ্যের রফতানির লক্ষ্যে প্রমোশন অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। দেশের কৃষি খাতের উন্নয়নের জন্য নতুন নতুন প্রযুক্তি ও জ্ঞানের ব্যবহার নিশ্চিত করতে হবে। বাংলাদেশ ইতোমধ্যে খাদ্যে নিরাপত্তা নিশ্চিত হয়েছে। নিজেদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করে আমরা আন্তর্জাতিক বাজারে চাল, আলুসহ অন্যান্য কৃষিজাত পণ্য রফতানিও করছি। এদেশ থেকে ভাল মানের অর্গানিক শাক-সবজি ও ফলমূল ইতোমধ্যে আন্তর্জাতিক বাজারে রফতানি হচ্ছে। কৃষি খাতে আমাদের সাপ্লাই চেইন, ভ্যালু চেইন এবং যথাযথ সংরক্ষণ ব্যবস্থা সুদৃঢ় করা প্রয়োজন।

বৃহস্পতিবার ঢাকা চেম্বার অব কমার্স এ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিতে (ডিসিসিআই) আয়োজিত “বাংলাদেশের রফতানিযোগ্য পণ্যের প্রমোশনঃ পণ্য নির্দেশন এবং টেকসই উন্নয়ন” শীর্ষক কর্মশালার সমাপনী অনুষ্ঠানে বক্তারা এসব কথা বলেন। ইউএসএআইডি’এর এগ্রিকালচার ভ্যালু চেইন প্রজেক্ট এবং ঢাকা চেম্বার অব কমার্স এ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি (ডিসিসিআই) যৌথভাবে ওই কর্মশালার আয়োজন করে।

আমেরিকান চেম্বার অব কমার্স ইন বাংলাদেশ (এ্যামচেম)-এর সভাপতি আফতাব-উল ইসলাম প্রধান অতিথির বক্তব্যে বলেন, কৃষি খাতে উৎপাদিত পণ্যের রফতানির লক্ষ্যে প্রমোশন অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। আমাদের দেশের কৃষি খাতের উন্নয়নের জন্য নতুন নতুন প্রযুক্তি ও জ্ঞানের ব্যবহার নিশ্চিত করতে হবে। বাংলাদেশে ইতোমধ্যে খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত হয়েছে এবং দেশ থেকে চাল, আলুসহ অন্যান্য কৃষিজাত পণ্য রফতানিও হচ্ছে। ভাল মানের অর্গানিক শাক-সবজি ও ফলমূল ইতোমধ্যে আন্তর্জাতিক বাজারে রফতানি করছে। কৃষি খাতে আমাদের সাপ্লাই চেইন, ভ্যালু চেইন এবং যথাযথ সংরক্ষণ ব্যবস্থা সুদৃঢ় করা প্রয়োজন।

ডিসিসিআই সহ-সভাপতি মোঃ শোয়েব চৌধুরী বলেন, বাংলাদেশের কৃষিখাত অত্যন্ত দ্রুততার সঙ্গে এগিয়ে যাচ্ছে। এ খাতে টেকসই উন্নয়ন নিশ্চিত করার জন্য পণ্যের বহুমুখীকরণের মাধ্যমে আন্তর্জাতিক বাজারে নিজেদের অবস্থান সুদৃঢ় করার লক্ষ্যে ব্যবস্থা নিতে হবে। বিশেষ করে এ কর্মশালায় অংশগ্রহণকারী প্রতিষ্ঠানসমূহ বিশেষত ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প উদ্যোক্তাদের আন্তর্জাতিক বাজারে নিজেদের সক্ষমতা ও সেই সঙ্গে খাদ্য নিরাপত্তা অর্জনের জন্য নতুন নতুন প্রযুক্তি অবলম্বনে সহায়তা করবে।

ইউএসএআইডি’এর এগ্রিকালচার ভ্যালু চেইন প্রজেক্ট -এর প্রধান উইলিয়াম টি লেভিন তার বক্তব্যে বলেন, এ প্রকল্পের মূল লক্ষ্য হলো বাংলাদেশের কৃষি খাতের উৎপাদন বৃদ্ধি ও উদ্ভাবনী কার্যক্রম সম্প্রসারণ। এ প্রকল্পের মাধ্যমে বাংলাদেশের কৃষিখাতে নিয়োজিতদের দক্ষতা উন্নয়নে সার্বিক সহযোগিতা প্রদান করা হবে।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ডিসিসিআই ঊর্ধ্বতন সহ-সভাপতি হুমায়ুন রশিদ, মহাসচিব এ এইচ এম রেজাউল কবির, ইউএসএআইডি’র প্রাইভেট সেক্টর এ্যাডভাইজার অনিরুদ্ধ রায়, ইন্টারন্যাশনাল ট্রেড সেন্টার (আইটিসি)-এর প্রশিক্ষক গ্রেগ স্যাম্পসন এবং পেট্রা ওয়ালটারোভা প্রমুখ। কৃষিখাতে নিয়োজিত বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের ৩০ জন প্রতিনিধি ওই কর্মশালায় যোগদান করেন। সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি আফতাব উল ইসলাম অংশগ্রহণকারীদের মাঝে সনদপত্র বিতরণ করেন।

প্রকাশিত : ৬ মার্চ ২০১৫

০৬/০৩/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: