মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১১ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

সেমিতে মুখোমুখি আজ শেখ জামাল-শেখ রাসেল

প্রকাশিত : ১ মার্চ ২০১৫
  • ফেডারেশন কাপ ফুটবল

রুমেল খান ॥ বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে ফেডারেশন কাপ ফুটবলের প্রথম সেমিফাইনালে মুখমুখি হচ্ছে আজ শেখ জামাল ধানম-ি ও শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্র। বিটিভি ওয়ার্ল্ডে খেলাটি সরাসরি সম্প্রচার শুরু হবে বিকেল সোয়া ৫টায়।

শেষ চারের দ্বৈরথ সামনে রেখে শনিবার সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয় বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে) ভবনে। এতে উপস্থিত ছিলেন বাফুফের পেশাদার লীগ কমিটির ডেপুটি চেয়ারম্যান আব্দুর রহিম, শেখ জামাল ধানম-ির কোচ মারুফুল হক, অধিনায়ক নাসির উদ্দিন চৌধুরী এবং শেখ রাসেলের ম্যানেজার জুয়েল রানা, সাধারণ সম্পাদক আবু নাইম সোহাগ।

কোয়ার্টার ফাইনালে ব্রাদার্স ইউনিয়নের বিপক্ষে অনেক কষ্ট করে জিততে হয়েছে জামালকে। দলের খেলোয়াড়দের মনে হয়েছে ক্লান্ত। ‘আমাদের দলের বেশিরভাগ খেলোয়াড়ই জাতীয় এবং অনুর্ধ-২৩ দলের। সম্প্রতি তারা টানা আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্টে খেলার জন্য তিনদিনের বেশি বিশ্রাম করার সুযোগ পায়নি। যে কারণে গত ম্যাচে কিছুটা ক্লান্ত দেখা গেছে তাদের। তবে স্বল্প সময়ে এই সমস্যা যত সম্ভব কাটিয়ে ওঠার চেষ্টা করব। আশা করি সেমির ম্যাচে কোন সমস্যা হবে না।’ কারণ ব্যাখ্যা করেন মারুফুল। তিনি আরও বলেন, ‘আশা করি আমার খেলোয়াড়রা সেমির ম্যাচে ভাল খেলবে এবং সেরাটাই নিংড়ে দেবে।’ প্রতিপক্ষ রাসেল সম্পর্কে মারুফুলের মূল্যায়ন, ‘রাসেল ভাল দল। তাদের দলে আছে একাধিক ম্যাচ উইনার প্লেয়ার। তবে আমরা আমাদের স্বাভাবিক খেলাটা খেললে জয় পাবই। দলের সবার ফিটনেস ভাল আছে।’

অধিনায়ক নাসির উদ্দিন চৌধুরী বলেন, ‘গত আসরের চ্যাম্পিয়ন হিসেবে আমরা এবারও ট্রফিটা ধরে রাখতে চাই। ইনশাল্লাহ আমরাই জিতব সেমির ম্যাচে।’

মুঠোফোনে শেখ রাসেলের মন্টেনিগ্রোর কোচ ড্রাগান ডুকানোভিচ বলেন, ‘আমরা ভাল দল, কোন সন্দেহ নেই। আমরা আমাদের সর্বোচ্চ দিয়ে চেষ্টা করব, গত কয়েক ম্যাচে জয়ের যে ধারবাহিকতা ছিল, সেটা রক্ষা করতে সচেষ্ট থাকব। জামাল ম্যাচের আগে যেভাবে সময় পেয়েছে, আমরা সেটা পাইনি। তবে এ নিয়ে দুশ্চিন্তার কিছু নেই। জেতার জন্য আমরা সর্বাত্মক চেষ্টা করব।’ দলের অধিনায়ক মিঠুন চৌধুরী মুঠোফোনে বলেন, ‘শেখ জামাল বর্তমান চ্যাম্পিয়ন, এটাকে আমরা বড় করে দেখছি না। আমরা সম্প্রতি তাজিকিস্তানে গিয়ে এএফসি কাপের বাছাইপর্ব খেলে এসেছি। আমরা খেলার মধ্যেই ছিলাম। ইনজুরির কারণে হেমন্ত ও জাহিদ নেই। কিন্তু তাতে আমাদের শক্তির কোন কমতি হবে না। তপু, সিফাত ও লিটনের মতো তরুণ খেলোয়াড়রা প্রতিনিয়ত উন্নতি করছে। শিরোপা জেতার বিষয়ে আমরা দৃঢ়প্রতিজ্ঞ। ফেডারেশন কাপে চ্যাম্পিয়ন হয়েই আমরা মৌসুম শুরু করতে চাই।’ প্রি-ম্যাচ কনফারেন্সে রাসেলের ম্যানেজার জুয়েল রানা বলেন, ‘লক্ষ্য অবশ্যই চ্যাম্পিয়ন হওয়া। রবিবারের সেমির ম্যাচটা আমাদের জন্য ফাইনাল ম্যাচের মতোই। তবে আমাদের বেশকিছু সমস্যাও আছে। দলের নির্ভরযোগ্য চার খেলোয়াড় হেমন্ত, জাহিদ, রেজা ও জামাল হোসেনের চোটের কারণে না খেলার সম্ভাবনাই বেশি। এই টুর্নামেন্ট শুরুর আগে আমরা অন্যদের মতো পর্যাপ্ত প্রস্তুতি ম্যাচ খেলতে পারিনি। তাছাড়া শেখ জামালের বিদেশী খেলোয়াড়দের মান আমাদের চেয়ে শ্রেয়তর। তবে এত সমস্যার পরও আমরা শেখ জামালের বিরুদ্ধে লড়াই করে তাদের হারিয়ে ফাইনালে খেলতে আত্মবিশ্বাসী।’

ফেডারেশন কাপে শেখ জামাল টানা ৪ বার ফাইনাল খেলেছে (২০১০-১৩ পর্যন্ত)। শিরোপা জিতেছে ২০১১ এবং ২০১৩ সালে। এমন কৃতিত্ব আছে ঢাকা আবাহনী লিমিটেডের। সেক্ষেত্রে তারা টানা ফাইনাল খেলেছে ৫ বার (১৯৯৪ ও ৯৫ সালে রানার্সআপ, ১৯৯৭, ৯৯ ও ২০০০ সালে চ্যাম্পিয়ন)। চলমান আসরে ‘এ’ গ্রুপের চ্যাম্পিয়ন হিসেবে শেষ আটে নাম লেখায় জামাল। ২ খেলায় তাদের সংগ্রহ ৬ পয়েন্ট। গ্রুপে তারা হারায় ফেনী সকার ক্লাবকে ৪-১ এবং টিম বিজেএমসিকে ৭-০ গোলে (এই স্কোর এ আসরের এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি ব্যবধানে জয়ের রেকর্ড)। কোয়ার্টারে ব্রাদার্সকে টাইব্রেকারে হারায় ৫-৪ (২-২) গোলে (টুর্নামেন্টের সবচেয়ে বেশি ১৩ গোল জামালের। বিপরীতে হজম করেছে মাত্র ৩ গোল। টুর্নামেন্টের একমাত্র হ্যাটট্রিকটিও তাদের। করেছেন হাইতিয়ান ফরোয়ার্ড ওয়েডসন এ্যানসেলমে)। পক্ষান্তরে ‘বি’ গ্রুপের চ্যাম্পিয়ন হিসেবে কোয়ার্টার ফাইনালে ওঠে রাসেল। গ্রুপ রানার্সআপ মুক্তিযোদ্ধা সংসদের রাসেলের মতোই ২ খেলায় ছিল ৪ পয়েন্ট। কিন্তু রাসেলের গোল মুক্তির চেয়ে একটি বেশি। তাই গোল পার্থক্যে এগিয়ে থাকাতেই গ্রুপসেরা হয় রাসেল। গ্রুপ ম্যাচে তারা উত্তর বারিধারাকে ৫-০ গোলে হারায় এবং গোলশূন্য ড্র করে মুক্তিযোদ্ধার সঙ্গে। কোয়ার্টারে ২-০ গোলে হারায় চট্টগ্রাম আবাহনীকে (টুর্নামেন্টে করেছে ৭ গোল, বিপরীতে একটিও হজম করেনি)। এখন দেখার বিষয়, ফেবারিট জামালের বিরুদ্ধে সমস্যা-জর্জরিত রাসেল জিততে পারে কি না শেষ চারের ম্যাচে।

প্রকাশিত : ১ মার্চ ২০১৫

০১/০৩/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: