মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
৯ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শুক্রবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে জ্বলে উঠতে চান শিখর ধাওয়ান

প্রকাশিত : ২২ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ২০১৩ সালের জুনে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির প্রথম ম্যাচে ভারতের প্রতিপক্ষ ছিল দক্ষিণ আফ্রিকা। সেই ম্যাচে প্রথমবারের মতো রোহিত শর্মার সঙ্গে ওপেন করতে নামেন শিকর ধাওয়ান। উদ্বোধনী জুটিতেই তারা ১২৭ রান উপহার দেন ভারতকে। যার ওপর ভিত গড়েই বড় সংগ্রহ করেছিল ভারত। সেইসঙ্গে জয়ে শুরু করেছিল ধোনির দল। শেষ পর্যন্ত চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির শিরোপাটাও ঘরে তুলেছিল ভারত। বিশ্বকাপের আগে প্রস্তুতি ম্যাচে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ধাওয়ানের ব্যাট থেকে আসে ৫৯ রান। আর বিশ্বকাপের মূল মঞ্চে পাকিস্তানের বিপক্ষে নিজেদের প্রথম ম্যাচে ৭৬ বলে ৭৩ রান করেন শিখর ধাওয়ান। বিরাট কোহলির সঙ্গে গড়েন ১২৯ রানের অসাধারণ এক জুটি। যার সৌজন্যেই জয় দিয়ে বিশ্বকাপ শুরু করে ভারত। দ্বিতীয় ম্যাচে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন ভারতের প্রতিপক্ষ শক্তিশালী দক্ষিণ আফ্রিকা আর সেই ম্যাচেও জ্বলে উঠতে মরিয়া শিখর ধাওয়ান।

এ বিষয়ে ২৯ বছর বয়সী টপঅর্ডার ব্যাটসম্যান শিখর ধাওয়ান বলেন, ‘আপনি যখন কিছু সময় বিশ্রামের জন্য পাবেন তা খুবই ভাল। কেননা আপনি ম্যাচের চাপ থেকে মুক্তি পাবেন। ভাবার সময় পাবেন কিভাবে আরও ভাল করা যায়। বিরতির সময়টাতে আমিও সব ধরনের চাপমুক্ত থাকি। আর ফিরে এসেই নিজের সেরাটা ঢেলে দিতে চাই।’ শুধু শিখর ধাওয়ানই নন। চোটের শঙ্কা উড়িয়ে দিয়ে দ্বিতীয় ম্যাচে খেলতে নামবেন সেরা দুই বোলার রবিচন্দ্রন অশ্বিন এবং ভুবনেশ্বর কুমারও। এ বিষয়ে ভারতের মিডিয়া ম্যানেজার ড. বাবা বলেন, ‘ভুবনেশ্বর কুমার এবং রবিচন্দ্রন অশ্বিনের ফিটনেসের অনেক রিপোর্ট আমরা পেয়েছি। এবং সেখান থেকে নিশ্চিত হয়েছি যে বিশ্বকাপের দ্বিতীয় ম্যাচে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে তারা অবশ্যই থাকছে।’ বিশ্ব ক্রিকেটের অন্যতম শক্তিশালী দল দক্ষিণ আফ্রিকা। কিন্তু দুর্ভাগ্য, স্বপ্নের বিশ্বকাপের শিরোপাটা এখনও অধরাই রইল তাদের। তবে ২০১৫ বিশ্বকাপে ফেবারিট হিসেবেই টুর্নামেন্টে খেলতে শুরু করেছে প্রোটিয়ারা। রবিবার নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন ভারতের মুখোমুখি হবে তারা। তবে মেলবোর্ন ক্রিকেট গ্রাউন্ডে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ভারতকেই এগিয়ে রাখছেন অস্ট্রেলিয়ার সাবেক অধিনায়ক ইয়ান চ্যাপেল। এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারানোর সেরা সুযোগ ভারতের সামনে। তারা যদি পাকিস্তানের বিপক্ষে যেভাবে খেলেছে ঠিক সেই খেলাটাই খেলতে পারে তাহলেই জিতবে ভারত।’

বিশ্বকাপে পাকিস্তানের বিপক্ষে সবসময়ই জয় পায় ভারত। তার ধারাবাহিকতা ধরে রেখে বিশ্বকাপের প্রথম ম্যাচেই ভারত ৭৬ রানে হারিয়েছে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী পাকিস্তানকে। কিন্তু বিশ্বকাপে আরেকটি নিয়মও এখন প্রচলিত। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে জিতে না ভারত। চার বিশ্বকাপের একটিতেও প্রোটিয়াদের হারাতে পারেনি তারা। কিন্তু এবার প্রোটিয়া দলটা আরও বেশি শক্তিশালী। ক্রিকেটবোদ্ধারাই মনে করছেন, এবার সেরা দল নিয়েই বিশ্বকাপ অভিযানে নেমেছে প্রোটিয়াসরা। নিজেদের প্রথম ম্যাচে জিম্বাবুইয়ের বিপক্ষে ৬২ রানের সহজ জয়ও পেয়েছে তারা। কিন্তু এসব পরিসংখ্যানকে পাত্তা দিচ্ছেন না ভারতের সাবেক কোচ ইয়ান চ্যাপেল।

এ বিষয়ে তার অভিমত হলো, ‘লোকমুখে আমি শুনেছি যে এবার সেরা আক্রমণভাগ নিয়েই প্রতিযোগিতায় নেমেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। কিন্তু এতে আমি মোটেও নিশ্চিত না। ডেল স্টেইন খুবই ভাল বোলার, এ বিষয়ে কোন সন্দেহ নেই। কিন্তু মরনে মরকেলের বর্তমান পারপর্মেন্স একেবারেই নিষ্প্রভ, ভারনন ফিল্যান্ডার এতটা চতুর নয়। আর সম্প্রতি অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ইমরান তাহির বাজে পারফর্মেন্স উপহার দিয়েছে। তাছাড়া ভারত স্পিনে সবসময়ই খুব ভাল খেলে। আর এটাই দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে জয়ের জন্য ভারতের বড় সুযোগ।’ তবে ভারত নাকি দক্ষিণ আফ্রিকা? কে জিতবে মেলবোর্নের সেই কঠিন লড়াইয়ে। ভক্ত অনুরাগীদের অপেক্ষা এখন সেটাই দেখার।

প্রকাশিত : ২২ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

২২/০২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: