মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১০ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

যুদ্ধাপরাধী বিচার ॥ রাজাকার আব্দুল জব্বারের রায় অবিলম্বে

প্রকাশিত : ২২ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

বিকাশ দত্ত ॥ একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধের সময় মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগে অভিযুক্ত পিরোজপুরের পলাতক ইঞ্জিনিয়ার জাতীয় পার্টির সাবেক সংসদ সদস্য রাজাকার কমান্ডার আবদুল জব্বারের মামলার রায় অবিলম্বে ঘোষণা করা হবে বলে প্রসিকিউশন পক্ষ আশা করছে। বিচারিক কার্যক্রম শেষে ২০১৪ সালের ৩ ডিসেম্বর রায় ঘোষণার জন্য সিএভি রাখা হয়। বর্তমানে ্আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালে একটি মামলাই সিএভি রাখা হয়েছে। এর আগে ট্রাইব্যুনাল-২ মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগে জামায়াতের নায়েবে আমির আব্দুস সুবহানের বিরুদ্ধে রায় ঘোষণা করেছে। ওই রায়ের মধ্য দিয়ে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল এ তারকা খচিত আসামিদের মামলার রায় শেষ হয়েছে। এখন যাদের মামলা রয়েছে তারা জেলা-উপজেলা পর্যায়ের আসামি। ট্রাইব্যুনাল গঠনের পর এ পর্যন্ত ১৬টি মামলায় ১৭ জনের দ- প্রদান করেছে। এ ছাড়া আপীল বিভাগে তিনটি মামলা নিষ্পত্তি হয়েছে। এর মধ্যে চূড়ান্ত বিচার শেষে কাদের মোল্লা রায় কার্যকর করা হয়েছে। কামারুজ্জামানের মামলা এখন রিভিউয়ের পর্যায়ে রয়েছে। দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদীকে মৃত্যুদ- কমিয়ে আমৃত্যু কারাদ- প্রদান করা হয়েছে। বর্তমানে ৭টি মামলা নিষ্পত্তির অপেক্ষায় রয়েছে। আর চার জন পলাতক থাকায় তাদের সাজা চূড়ান্ত হয়েছে। গোলাম আযম ও আব্দুল আলীম মারা যাওয়ায় আপীল বিভাগ তাদের আপীল অকার্যকর করেছে।

একেএম ইউসুফের মামলাটি চলাকালীন তিনি মারা যাওয়ায় তার মামলাটি স্থগিত করে ট্রাইব্যুনাল। ট্রাইব্যুনাল ১৭টি মামলায় জামায়াতের ১২ জন শীর্ষ নেতার বিরুদ্ধে দ- প্রদান করেছে। এক জনের মৃত্যুর কারণে তার মামলাটি না চালানোর সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। অন্যদিকে দ-প্রাপ্তদের মধ্যে বিএনপির রয়েছে ৩ জন, আওয়মাী লীগ থেকে বহিষ্কৃত ১ জন, জাতীয় পার্টির ১ জন। বর্তমানে আরও ৯ জনের বিরুদ্ধে বিচারিক কার্যক্রম চলছে। পাশাপাশি ডজনখানেক মামলার তদন্তও চলছে।

আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের প্রসিকিউটর জাহিদ ইমাম জনকণ্ঠকে জানিয়েছেন, আমরা আশা করছি অবিলম্বে আব্দুল জব্বারের মামলার রায় ঘোষণা করা হতে পারে। এর মধ্যে সুবহানের মামলার রায় হয়ে গেছে। জব্বারের মামলার বিচারিক কার্যক্রম শেষে গত বছরের ৩ ডিসেম্বর রায় ঘোষণার জন্য সিএভি রাখা হয়েছে। সিএভি রাখার পর ইতোমধ্যে ৮০ দিন পার হয়ে গেছে। সে কারণেই আমি মনে করছি অবিলম্বে ট্রাইব্যুনাল-১ আবদুল জব্বারের বিরুদ্ধে রায় ঘোষণা করবেন। আবদুল জব্বারের পক্ষে আইনী পয়েন্টে যুক্তিতর্ক উপস্থাপন করেন রাষ্ট্রনিযুক্ত আইনজীবী মোঃ আবুল হাসান। আর প্রসিকিউশন পক্ষে যুক্তিতর্ক উপস্থাপন করেন প্রসিকিউটর জাহিদ ইমাম ও তাপস কান্তি বল।

প্রকাশিত : ২২ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

২২/০২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

শেষের পাতা



ব্রেকিং নিউজ: