কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৪ ডিসেম্বর ২০১৬, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

প্রত্যাশা পূরণে প্রস্তুত হচ্ছে টাইগাররা

প্রকাশিত : ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০১৫
প্রত্যাশা পূরণে প্রস্তুত হচ্ছে টাইগাররা
  • বুধবার নিজেদের প্রথম ম্যাচে প্রতিপক্ষ আফগানিস্তান

মোঃ মামুন রশীদ ॥ বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের কাছে অনেক বেশি প্রত্যাশা দেশবাসীর। এবার নিজেদের পঞ্চম বিশ্বকাপ খেলতে অস্ট্রেলিয়া যাওয়ার আগে কোয়ার্টার ফাইনাল খেলার প্রত্যয় ব্যক্ত করে গেছে বাংলাদেশ দল। এবার মূল লড়াইয়ের সময় এসে গেছে। নিজেদের সামর্থ্য ও যোগ্যতা প্রমাণের জন্য নামতে হবে ময়দানী লড়াইয়ে। তবে প্রস্তুতি ম্যাচে আয়ারল্যান্ডের কাছেও বড় পরাজয়ের পর এবার শঙ্কা তৈরি হয়েছে মূল লড়াইয়ে বাংলাদেশ দল কেমন করবে সেটা নিয়ে। দলের প্রধান কোচ হাতুরাসিংহে মনে করছেন দলের ভাল করার জন্য এখন জরুরী বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসানের জ্বলে ওঠা। দলের অপরিহার্য এ ক্রিকেটারের ভূয়সী প্রশংসা করেছেন তিনি। বিশ্বকাপে দারুণ কিছু করার জন্য সাকিবের দিকেই তাকিয়ে আছেন তিনি।

২০০৯ সাল থেকেই ব্যাটে-বলে সমান নৈপুণ্য দেখিয়ে দলের অন্যতম ভরসার প্রতীক হয়ে উঠেছেন সাকিব। অনেক আগেই তিনি বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার হিসেবে র‌্যাংকিংয়ের শীর্ষস্থান দখল করেছেন। আর গত মাসে বিশ্ব ক্রিকেটের ইতিহাসে প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে তিনি তিন ফরমেটেই অলরাউন্ডার র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষে উঠে বিশ্ববাসীকে চমকে দেন। এবার বিশ্বকাপ স্কোয়াডে থাকা ক্রিকেটারদের মধ্যে অধিকাংশেরই অস্ট্রেলিয়া কিংবা নিউজিল্যান্ডের মাটিতে খেলার কোন অভিজ্ঞতা নেই। যে কয়েকজন ক্রিকেটার অস্ট্রেলিয়াতে ক্রিকেট খেলেছেন তার মধ্যে অন্যতম সাকিব। আবার তিনি গত বছর এবং এবারও অস্ট্রেলিয়ার অন্যতম জনপ্রিয় আসর বিগব্যাশ লীগে খেলার অভিজ্ঞতা সম্পন্ন। সব মিলিয়ে এসব কারণে সাকিবের কাছে বাংলাদেশের ক্রিকেটপ্রেমীদের প্রত্যাশা অনেক বেশি। কোচ হাতুরাসিংহেও চান সাকিবের জ্বলে ওঠা দেখতে। সাকিবকে ‘বিস্ফোরক’ ব্যাটসম্যানের পাশাপাশি ‘খুবই চতুর বোলার’ হিসেবে আখ্যা দিয়ে তিনি বলেন, ‘আমাদের কিছু বিশ্বমানের ক্রিকেটার আছে। এর মধ্যে সবচেয়ে বড় কথা হচ্ছে আমাদের তিন ফরমেটেই বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার আছে। আমি তরুণ উদীয়মান ক্রিকেটারদের দিকেও তাকিয়ে আছি। তাকিয়ে আছি তাদের দিকে এতবড় একমঞ্চে তাঁরা আমাদের কি উপহার দেয় দেখার জন্য। আমাদের অনেক খেলোয়াড়েরই এবার অস্ট্রেলিয়াতে প্রথম আসা। যদিও এর মধ্যে কয়েকজন আছে যারা এখানে খেলেছে।’ তবে দলকে ভাল একটা অবস্থানে নিয়ে যেতে পারেন কেবল সাকিব। একই সঙ্গে ব্যাটিং-বোলিং দিয়ে পাল্টে দিতে পারেন ম্যাচের পরিস্থিতি। এসব কারণেই তাঁর ওপর বাড়তি আস্থা হাতুরাসিংহের। তিনি বলেন, ‘আমি প্রত্যাশা করছি সাকিব ভাল নৈপুণ্য দেখাবে এবং সামনে থেকে বড় ভূমিকা রাখবে। আমার ধারণা মেলবোর্ন রেনেগেডসের হয়ে তিনি যখন খেলেছেন সবাই তাঁকে দেখেছেন। তিনি একজন বিস্ফোরোন্মুখ ব্যাটসম্যান, যে কিনা ম্যাচের ভাগ্যটাকে নিয়ন্ত্রণ করতে পারেন। আর এর পাশাপাশি বল হাতে তিনি খুবই চতুর।’ ২০১৫ সালটা বাংলাদেশ আন্তর্জাতিক ক্রিকেট শুরু করবে বিশ্বকাপ দিয়েই। গত বছরটা বাংলাদেশ দলের জন্য সর্বশেষ ৫ বছরের মধ্যে সবচেয়ে বাজেভাবে কেটেছে। পুরো বছরে দেশের মাটিতে ক্রিকেট আয়োজন করেও জিততে পারেনি বড় কোন দলের বিরুদ্ধে। এমনকি হেরে গেছে আফগানিস্তানের কাছেও। এবার তাদের বিরুদ্ধেই বিশ্বকাপের উদ্বোধনী ম্যাচ বাংলাদেশের আগামী বুধবার। বিশ্বকাপের আগে প্রস্তুতি ম্যাচগুলোয় দলের দৈন্যতা ফুটে উঠেছে বেশ ভালভাবেই। দুটি অনুশীলন ম্যাচে অস্ট্রেলিয়া একাদশের বিরুদ্ধে এবং আইসিসি নির্ধারিত দুটি অফিসিয়াল প্রস্তুতি ম্যাচেও হেরে গেছে বাংলাদেশ দল। এমনকি আয়ারল্যান্ডের বিরুদ্ধেও হারতে হয়েছে।

এবার ‘এ’ গ্রুপে আইসিসির দুই সহযোগী সদস্য দেশ স্কটল্যান্ড ও আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে খেলতে হবে বাংলাদেশ দলকে। সে কারণে সার্বিকভাবেই একটা আতঙ্ক চেপে বসছে দেশের ক্রিকেটপ্রেমীদের মনে। যদিও গত বছরের শেষটা খুব ভাল হয়েছে। জিম্বাবুইয়েকে হোয়াইটওয়াশ করে নিজেদের ফিরে পেয়েছে বাংলাদেশ দল। তবে প্রস্তুতি ম্যাচের ফলাফলগুলো শঙ্কা তৈরি করেছে। এবার দেখার পালা ম্যাচের ভাগ্য পরিবর্তন করে দিতে পারেন কিনা সাকিব?

প্রকাশিত : ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

১৭/০২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: