আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৭ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বুধবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

শিল্পকলা একাডেমি ফিল্ম সেন্টার প্রতিষ্ঠায় মতবিনিময়

প্রকাশিত : ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০১৫
  • সংস্কৃতি সংবাদ

স্টাফ রিপোর্টার ॥ চলচ্চিত্র কার্যক্রম ব্যাপকভাবে সম্প্রসারিত করার লক্ষে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি ফিল্ম সেন্টার গঠন করার পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে। আধুনিক ও যুগপোযোগী ফিল্ম সেন্টার প্রতিষ্ঠার লক্ষে চলচ্চিত্র পরিচালক, প্রযোজক, গবেষক ও চলচ্চিত্র কর্মীদের অংশগ্রহণে একাডেমির জাতীয় নাট্যশালার সেমিনার কক্ষে এক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয় সোমবার বিকেলে। শিল্পকলা একাডেমির মহাপরিচালক লিয়াকত আলী লাকীর সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য রাখেনÑ ফেডারেল অব ফিল্ম সোসাইটি অব বাংলাদেশের সভাপতি নাইনুল নাহার স্বেমি, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষক সাবরিনা সুলতানা চৌধুরী ও ড. ফাহমিদুল হক, চলচ্চিত্র গবেষক ও পরিচালক সৈয়দ সাজেদুর রহমান ফিরোজ, সাজেদুল আউয়াল, মুনিরা মোর্শেদ মুন্নী, চলচ্চিত্র গবেষক অনুপম হায়াত, চলচ্চিত্র পরিচালক রাকিবুল হাসান, ম্যুভিয়ানা ফিল্ম সোসাইটির সভাপতি বেলায়াত হোসেন মামুন, ঢাকা ডিজিটাল মুভি সেন্টারের সভাপতি গাজী ফিরোজ, চলচ্চিত্র ও টিভি নাটক পরিচালক নোমান রবিন এবং চলচ্চিত্র সংসদ কর্মী সুনীল সূত্রধর প্রমুখ। বক্তারা বলেন, চলচ্চিত্র হচ্ছে একটি জাতির গুরুত্বপূর্ণ শিল্প মাধ্যম। আমাদের জাতীয় উন্নতি ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে সমুন্নত রাখতে চলচ্চিত্র আমাদের অগ্রণী ভূমিকা রেখে চলেছে। এর চর্চার অব্যাহত রাখা আমাদের অন্যতম

দায়িত্ব। আমরা চাই শিল্পকলা একাডেমিতে যে ফিল্ম স্টোর হতে যাচ্ছে তা যেন সর্বজনগ্রাহ্য হয়। চলচ্চিত্রকে এগিয়ে নিতে একাডেমিতে অন্যান্য ভবনের মতো একটি চলচ্চিত্র ভবন নির্মাণ করা জরুরী, এটা হতে পারে জাতীয় চলচ্চিত্রশালা অথবা চলচ্চিত্র সদন। যেখানে থাকবে একটি আধুনিক প্রেক্ষাগৃহ, সেমিনার কক্ষ, কর্মশালা কক্ষ, চলচ্চিত্র পাঠ কেন্দ্রসহ বিভিন্ন কার্যক্রম চলার জায়গা। এবং এখানে জাতীয় ও আন্তর্জাতিকভাবে অনুষ্ঠিত হবে চলচ্চিত্র উৎসব।

বেঙ্গলে চলছে ‘দ্য প্যারাডক্সিক্যাল নাউ’ শীর্ষক দলীয় চিত্র প্রদর্শনী ॥ ফিরোজ মাহমুদ, আনিসুজ্জামান সোহেল ও ইয়াসমিন জাহান নুপুরের শিল্পকর্ম নিয়েই বেঙ্গল গ্যালারিতে চলছে ‘দ্য প্যারাডক্সিক্যাল নাউ’ শীর্ষক প্রদর্শনী। তিন শিল্পীর ৩৬টি শিল্পকর্ম নিয়ে এ প্রদর্শনী। সোমবার গ্যালারিতে ঢুকে প্রথমদিকে মনে হলো এ তিন শিল্পীর শিল্পকর্মের মধ্যে কোন মিল নেই। কিন্তু পরক্ষণেই মনে হলো বেদনা ও স্মৃতির অভিন্ন সুরই বাজছে এখানে।

ফিরোজ মাহমুদের ‘ডিসট্যান্স অব দ্য পাস্ট’ শিরোনামের চিত্রকর্মগুলোতে উজ্জ্বল রঙে তিনি এঁকেছেন ঔপনিবেশকালীন নাবাবদের দুর্ভাগ্য ও ইংরেজদের কাছে পরাজয়ের কাহিনী। ‘ডিসট্যান্স অব দ্য কার্ভিং পাস্ট’ শিরোনামের কাজ চিত্রগুলোতেও একই কথা বলতে চেয়েছেন তিনি। তবে সেগুলো কাঠের ওপর খোঁদাই করে।

আনিসুজ্জামান সোহেল এঁকেছেন বর্তমানের সংকট ও সংঘাতকে উপজীব্য করে তার চিত্রকর্ম। আংশিক বিমূর্ত হলেও সহজেই বোঝা গেল তিনি কী বলতে চান। তার একটি চিত্রে দেখা যায় মানুষই সন্ত্রাস করছে এবং তাতেই আর এক মানুষের মৃত্যু যন্ত্রণার বয়ান। ভোগবাদে মত্ত মানুষের বুকে তিনি এঁকে দিয়েছেন বারকোড।

ইয়াসমিন জাহান নুপুর এঁকেছেন পৃথিবীর স্মৃতি। তাতে সূর্য, পৃথিবীর ওপর তার ছায়া আছে। আছে পৃথিবীর জন্মের যন্ত্রণা।

কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে একুশে অনুষ্ঠানমালার নবম দিন ॥ ‘বুকের খুনে যুদ্ধ জারি অমর একুশে ফেব্রুয়ারি’ সেøাগানে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের পাদদেশে চলছে সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট আয়োজিত একুশে অনুষ্ঠানমালা। সোমবার ছিল এ অনুষ্ঠানমালার নবম দিন। এদিন বিকেলে শিল্পী ক্রিস্টোফার গমেজ পল্লবের একক পরিবেশনা দেশের গান দিয়ে শুরু হয় অনুষ্ঠান। এরপর দলীয় সঙ্গীত পরিবেশন করে বিরোহী সাংস্কৃতিক সংগঠন। পরে কেন্দ্রীয় খেলাঘর আসরের শিশু শিল্পীদের অংশগ্রহণে পরিবেশিত হয় দলীয় নৃত্য।

ডা. বদরুল আলম : এক মহান স্থাপত্যের স্থপতি গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠান ॥ শহীদ মিনারের স্থপতি ডাঃ বদরুল আলমকে নিয়ে প্রকাশিত হলো গবেষণা ধর্মী গ্রন্থ। লিপি প্রকাশন থেকে প্রকাশিত ‘ডাঃ বদরুল আলম : এক মহান স্থাপত্যের স্থপতি’ শিরোনামের গ্রন্থটির মোড়ক উন্মোচন ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির সাগর-রুনি মিলনায়তনে সোমবার সকালে অনুষ্ঠিত হয়। ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ ইতিহাস সংরক্ষণ প্রকল্প ও ভাষা আন্দোলন গবেষণা কেন্দ্র ও জাদুঘর আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি ডাঃ দীপুমনি। ১৭৬ পৃষ্ঠার এ বইটির মূল্য ৩৭৫ টাকা। লিপি প্রকাশন থেকে প্রকাশিত এ বইটির প্রচ্ছদ করেছেন ফায়জুল কবীর। বইটিতে দেশের বিশিষ্টজনের ৩৯টি লেখা রয়েছে।

প্রকাশিত : ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

১৭/০২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

শেষের পাতা



ব্রেকিং নিউজ: