কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৫ ডিসেম্বর ২০১৬, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

পিডিদের পারফরম্যান্স মূল্যায়ন করে ব্যবস্থা ॥ পরিকল্পনামন্ত্রী

প্রকাশিত : ১৬ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ এখন থেকে প্রকল্প পরিচালকদের (পিডি) ব্যক্তিগত পারফরম্যান্স মূল্যায়ন করে ব্যবস্থা নেয়া হবে। এক্ষেত্রে যাদের অবস্থা ভাল হবে তাদের অধিকতর গুরুত্বপূর্ণ প্রকল্পে অথবা একজনকে একাধিক প্রকল্প পরিচালক পদে নিয়োগ দেয়া হবে বলে জানিয়েছে পরিকল্পনামন্ত্রী আহম মুস্তফা কামাল। সেই সঙ্গে উন্নয়ন প্রকল্পে বরাদ্দকৃত বৈদেশিক সাহায্যের পুরোটাই ব্যবহারের নির্দেশনা দিয়েছেন তিনি। যেসব প্রকল্পে এ অর্থবছরে যে পরিমাণ অর্থ ব্যয় করা সম্ভব হবে না তা আগামী মার্চের মধ্যে সমর্পণের জন্য প্রকল্প পরিচালকদের নির্দেশনাও দিয়েছেন। রবিবার প্রায় ৭০০ প্রকল্প পরিচালকদের সঙ্গে দুটি আলাদা আলাদা বৈঠকে পরিকল্পনামন্ত্রী এ নির্দেশনা দেন।

রাজধানীর শেরেবাংলানগরের এনইসি সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত এ বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন পরিকল্পনামন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল। দিনব্যাপী সভায় অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান, পরিকল্পনা বিভাগের ভারপ্রাপ্ত সচিব সফিকুল আজম, আইএমইডি ভারপ্রাপ্ত সচিব মোঃ শহিদ উল্লাহ খন্দকারসহ উর্ধতন কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। ১ হাজার ২৮৭টি প্রকল্পের প্রকল্প পরিচালকদের সঙ্গে পরিকল্পনামন্ত্রীর ধারাবাহিক বৈঠকের অংশ হিসেবে এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।

সূত্র জানায়, গুণগতমান বজায় রেখে নির্ধারিত মেয়াদে প্রকল্প শেষ করতেই এ বৈঠকের আয়োজন করে পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়। এ বিষয়টিকে তুলে ধরে বৈঠকের শুরুতেই পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, প্রকল্পের মেয়াদ কমে আসলে ব্যয়ও কমে আসবে। এজন্য যে প্রকল্পগুলোতে প্রয়োজনীয় অর্থ বরাদ্দ দিলে এ বছরই শেষ হবে সেসব প্রকল্পগুলোতে আমরা প্রয়োজনীয় অর্থ বরাদ্দ দেব। তবে যেসব প্রকল্পে বৈদেশিক সাহায্য রয়েছে সেসব প্রকল্পের প্রকল্প পরিচালকগণ বরাদ্দকৃত অর্থ পুরোপুরি ব্যয় করতে পারছেন না উল্লেখ করে পরিকল্পনামন্ত্রী এ সময় বলেন, প্রকল্প অর্থব্যয়ে আমরা একটা ধারা দেখছি তা হলো- আমাদের প্রকল্প পরিচালকগণ সরকারী অর্থব্যয়ে যতটা স্বচ্ছন্দবোধ করেন ঠিক ততটাই অস্বস্তিবোধ করেন বরাদ্দকৃত বৈদেশিক অর্থ ব্যয়ের ক্ষেত্রে। এটা কখনই কাম্য হতে পারে না। আমরা খুব দ্রুত এ সম্পর্কে অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগকে (ইআরডি) সঙ্গে নিয়ে একটি কার্যকর পন্থা হাতে নেব।

প্রকল্প বাস্তবায়ন কিভাবে সময় মতো শেষ কার যায় তার একটি দিকনির্দেশনা দিয়ে পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, অর্থবছরের শুরুতেই ক্রয়সংক্রান্ত কার্যক্রম শুরু করলে প্রথম তিন মাসেই তা শেষ হবে। এছাড়া অর্থবছরের শুরুতেই সামগ্রিক কর্মপদ্ধতি বিশ্লেষণ করলে সহজে বুঝা যাবে বাস্তবায়ন চ্যালেঞ্জটা কোথায়। এ কাজগুলো মাঝপথে শুরু করলে স্বাভাবিকভাবে প্রকল্প বাস্তবায়ন বিলম্বিত হয়।

প্রকাশিত : ১৬ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

১৬/০২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

অর্থ বাণিজ্য



ব্রেকিং নিউজ: