মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
৯ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শুক্রবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

দক্ষিণ আফ্রিকা-জিম্বাবুইয়ে লড়াই আজ

প্রকাশিত : ১৫ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ হ্যামিল্টনে পুল- ‘বি’র প্রথম ম্যাচে আজ তুলনামূলকভাবে খর্ব শক্তির দল জিম্বাবুইয়ের মুখোমুখি হবে দক্ষিণ আফ্রিকা। বিশ্বকাপের আগে জিম্বাবুইয়ের পারফর্মেন্স একেবারেই বাজে। শেষ পাঁচ ম্যাচের সবই পরাজয় দেখেছে তারা। আর এদিক দিয়ে এগিয়ে রয়েছে প্রোটিয়াসরা। কেননা শেষ পাঁচ ম্যাচের চারটিতেই জয়ের দেখা পেয়েছে তারা। যে কারণে জিম্বাবুইয়ের বিপক্ষে মাঠে নামার আগে রোমাঞ্চিত দক্ষিণ আফ্রিকা। এ বিষয়ে দেশটির সাবেক তারকা ক্রিকেটার এবং বর্তমান বোলিং কোচ এ্যালান ডোনাল্ড বলেন, ‘দলের প্রত্যেকেই বেশ রোমাঞ্চিত। জিম্বাবুইয়ের বিপক্ষে মাঠে নামার জন্য আমরা সব দিক দিয়েই প্রস্তুত। তাদের বিপক্ষে লড়াইয়ের আগে গত কয়েকদিন আমরা নিজেদের কাজটা সেরে নিয়েছি। খেলোয়াড়দের নিয়ে ফলপ্রসূ আলোচনাও হয়েছে এই সময়। আশা করি মাঠে তারা তা কাজে লাগাতে সক্ষম হবে।’

প্রোটিয়াসদের বিপক্ষে ম্যাচের আগে আশাবাদী জিম্বাবুইয়ের অধিনায়ক এল্টন চিগুম্বুরাও। বিশেষ করে প্রস্তুতি ম্যাচে ভাল করায় বিশ্বকাপের প্রত্যাশা অনেকাংশেই বেড়ে গেছে তাদের। নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে বৃষ্টি বিঘিœত প্রথম অনুশীলন ম্যাচে ভাল পারফর্মেন্স উপহার দিয়েছে জিম্বাবুইয়ে। নিউজিল্যান্ডের করা ১৫৭ রানের বিপরীতে ৭ উইকেট তুলে নিয়েছিল জিম্বাবুইয়ে। পরের ম্যাচে তো শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ৭ উইকেটের জয় তুলে নিয়ে অঘটন ঘটানোর পাশাপাশি বিশ্বকাপের মূল লড়াইয়ে প্রতিপক্ষের জন্য সতর্কবার্তা ছুড়ে দেয় তারা। এ বিষয়ে বিশ্বকাপের মূল মঞ্চে লড়াইয়ের আগে চিগুম্বুরা বলেন, ‘অনুশীলন ম্যাচের পারফর্মেন্স আমাদের অনেক আত্মবিশ্বাসী করে তুলেছে। এই পারফর্মেন্স আমাদের মধ্যে এতটাই বিশ্বাস জোগাচ্ছে যে বড় দলকে যে কোন সময় হারানো সম্ভব। আমরা মূল লড়াইয়ের অপেক্ষায় আছি। বিশেষ করে দলের ব্যাটসম্যানরাই আমাদের মূল ভরসা।’ জিম্বাবুইয়ের মূল দুই ব্যাটিং স্তম্ভ ১৯৯৬ শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে রান পেয়েছেন। এর মধ্যে হ্যামিল্টন মাসাকাদজা অপরাজিত সেঞ্চুরি করার পরে ব্রেন্ডন টেইলরের ব্যাট থেকে আসে ৬৩ রান। গত বছরের নবেম্বরে বাংলাদেশের বিপক্ষে এ্যাওয়ে সিরিজে ৫-০ ব্যবধানে বিধ্বস্ত হয় জিম্বাবুইয়ে। এই পরাজয়ের পরই বিশ্বকাপের জন্য ডেভ হোয়াটমোরকে কোচ হিসেবে নিয়োগ দেয় তারা। দ্বিতীয় মেয়াদে দলের অধিনায়কের দায়িত্ব পাওয়া চিগুম্বুরা বলেন, হোয়াটমোর আসায় দলে উল্লেখযোগ্য পরিবর্তন হয়েছে। অস্ট্রেলিয়ার সাবেক ব্যাটসম্যান হোয়াটমোরের অধীনে শ্রীলঙ্কা ১৯৯৬ সালের বিশ্বকাপ জয় করে। এছাড়া ২০০৭ সালে তার অধীনে ক্যারিবীয় বিশ্বকাপে বাংলাদেশ ভারতকে পরাজিত করে সুপার এইটে জায়গা করে নিয়েছিল। হোয়াটমোর প্রসঙ্গে মন্তব্য করতে গিয়ে চিগুম্বুরা বলেন, ‘সে একজন অভিজ্ঞ কোচ। তার সঙ্গে কাজ করতে পেরে খেলোয়াড়রা বেশ স্বাচ্ছ্যন্দ অনুভব করছে। ইতোমধ্যেই তার কাজ আমাদের ম্যাচে প্রভাব ফেলেছে। একটি বিষয় অন্তত স্পষ্ট যে আমরা সঠিক পথেই আছি।’ হ্যামিলটনে বাংলাদেশ সময় সকাল ৭টায় শুরু হবে ম্যাচটি। তবে প্রতিপক্ষ হিসেবে দক্ষিণ আফ্রিকা যে বেশ কঠিন হবে সেটা স্বীকার করে নিয়েছেন জিম্বাবুইয়ের অধিনায়ক। এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে খেলাটা অবশ্যই চ্যালেঞ্জিং। তবে নিজেদের প্রমাণের একটি ভাল সুযোগও সামনে এসেছে। আশা করি দলের সব খেলোয়াড়ই নিজেদের সেরাটা দিতে চেষ্টা করবে। দিনের শেষে যে দল ভাল ক্রিকেট খেলবে তারাই জিতবে।’ প্রতিবেশী দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ৩৭টি একদিনের ম্যাচ খেলেছে জিম্বাবুইয়ে। আর তাদের মধ্যে জিম্বাবুইয়ের জয় মাত্র দুইটিতে। এর মধ্যে অন্যতম স্মরণীয় ছিল ১৯৯৯ ইংল্যান্ড বিশ্বকাপে নেইল জনসনের দুর্দান্ত অলরাউন্ড নৈপুণ্যে জেতা ম্যাচটি। ইতিহাসের পুনরাবৃত্তি করতে এবার অলরাউন্ডার চিগুম্বুরাকে জ্বলে উঠতে হবে। তবে চিগুম্বুরা মনে করেন, প্রতিটি দিনই নতুন, প্রতিটি ম্যাচই নতুন, তাই নিজেদের প্রমাণ করতে হলে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সেরাটাই উপহার দিতে হবে।

প্রকাশিত : ১৫ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

১৫/০২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: