কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৪ ডিসেম্বর ২০১৬, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

আবারও ইনিংস ব্যবধানে জয়ের পথে ঢাকা

প্রকাশিত : ১১ ফেব্রুয়ারী ২০১৫
  • জাতীয় ক্রিকেট লীগ, ঢাকা মেট্রো-বরিশাল, সিলেট-রাজশাহী, রংপুর-খুলনা ম্যাচ ড্র’র পথে

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ঢাকা বিভাগ যে কী শুরু করেছে। একের পর এক ম্যাচে ইনিংস ব্যবধানে জয় তুলে নিচ্ছে। প্রথম দুই রাউন্ড ইনিংস ব্যবধানে জেতার পর তৃতীয় রাউন্ডও চট্টগ্রামের বিভাগে ইনিংস ব্যবধানে জয়ের পথেই আছে। দ্রুত চট্টগ্রামের হাতে থাকা ৪ উইকেট নিতে পারলেই হলো। বরিশালের বিপক্ষে ঢাকা মেট্রো ৩৩২ রানে এগিয়ে থেকে শক্ত অবস্থানে আছে। তবে ম্যাচটি ড্র’র পথেই আছে। সিলেট-রাজশাহী ম্যাচও ড্র’র দিকেই এগিয়ে চলেছে। সিলেট ১১৬ রানে এগিয়ে রয়েছে। রংপুর-খুলনা ম্যাচও একই পথে এগিয়ে চলেছে। রংপুর এগিয়ে রয়েছে ৩১৫ রানে। জিততে হলে আজ চতুর্থদিনে খুলনাকে অলআউট করতে হবে।

তৃতীয় দিন শেষে চট্টগ্রাম বিভাগ পিছিয়ে রয়েছে আরও ২১৬ রানে। ঢাকা দ্বিতীয় দিনে ১২২ ওভারে ৪ উইকেট ৫১৮ রান সংগ্রহ করে দিন শেষ করেছিল। তৃতীয় দিন তারা আরও ৯৮ রান যোগ করেছে, হারিয়েছে একটি উইকেট। আগের দিন রনি তালুকদার ২০১ এবং আব্দুল মজিদ ১১৩ রান করেছেন। তৃতীয় দিন সেঞ্চুরির দেখা পেয়েছেন শুভাগত হোম। তিনি ১১৯ রান করে সাজঘরে ফিরেছেন। এছাড়া রকিবুল হাসান ৮৯ ও তাইবুর পারভেজ অপরাজিত ৫০ রান করেছেন। শেষ অবধি ঢাকা বিভাগ ৫ উইকেটে ৬১৬ রান করে ইনিংস ডিক্লিয়ার করেছে। ৪৬১ রানে পিছিয়ে থেকে চট্টগ্রাম বিভাগ তাদের দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করেছিল। কিন্তু প্রথম ইনিংসের মতো দ্বিতীয় ইনিংসেও ব্যাটিং বিপর্যয়ে পড়েছে চট্টগ্রাম। তৃতীয় দিন শেষে ৮১ ওভারে ৬ উইকেট হারিয়ে ২৪৫ রান সংগ্রহ করেছে চট্টগ্রাম। চট্টগ্রামের হয়ে তাসামুল হক সর্বোচ্চ ১১৪ রান করেছেন। এছাড়া ইরফান শুকুর ৭৪ রান করেছেন। ঢাকার বোলারদের মধ্যে মোশারফ হোসেন সর্বোচ্চ ৩টি এবং দেওয়ান সাব্বির ও তাইবুর পারভেজ একটি করে উইকেট নিয়েছেন।

সাদমান ইসলামের প্রথম ইনিংসে ১৪০ ও দ্বিতীয় ইনিংসে অপরাজিত ৬৯ রানের কল্যাণে শক্ত অবস্থানে রয়েছে ঢাকা মেট্রো। সেই সঙ্গে বরিশালকে ২৬১ রানে বেঁধে ফেলতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছেন ঢাকা মেট্রোর ৭ উইকেট শিকারি বোলার ইলিয়াস সানি। প্রথম ইনিংসে ঢাকা মেট্রো সংগ্রহ করেছিল ৪০০ রান। জবাবে খেলতে নেমে বরিশাল বিভাগ ইলিয়াস সানির বোলিং নৈপুণ্যে ২৬১ রানে থেমেছে। বরিশালের হয়ে সর্বোচ্চ ৯১ রান এসেছে শাহরিয়ার নাফিসের ব্যাট থেকে। এছাড়া সাইফ হাসান ৬৩ ও সোহাগ গাজী ৩২ রান করেছেন। ১৩৯ রানে এগিয়ে থেকে ঢাকা মেট্রো তাদের দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করেছিল। তৃতীয় দিন শেষে ঢাকা মেট্রো ৪৫ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে সংগ্রহ করেছে ১৯৩ রান।

স্কোর ॥ ঢাকা-চট্টগ্রাম ম্যাচ-

চট্টগ্রাম বিভাগ : প্রথম ইনিংস ১৫৫/১০, ৬৯ ওভার (নাজিম উদ্দিনের ৩০, নাঈম ইসলাম জুনিয়র ২৯, ইরফান শুকুর ২৭; মোশারফ হোসেন ৫/৩৭, শুভাগত হোম ২/২৭) ও দ্বিতীয় ইনিংস ২৪৫/৬, ৮১ ওভার (তাসামুল হক ১১৪, ইরফান শুকুর ৭৪; মোশারফ রুবেল ৩/৬৮)।

ঢাকা বিভাগ : প্রথম ইনিংস, ৫১৬/৫, ইনিংস ঘোষণা ১৪০.৩ ওভার (রনি তালুকদার ২০১, আব্দুল মজিদ ১১৩, রকিবুল হাসান ৮৯, শুভাগত হোম ১১৯; নাঈম ইসলাম ২/৬৮, ইউনুস ২/১৫৫)।

ঢাকা মেট্রো-বরিশাল ম্যাচ-

ঢাকা মেট্রো : প্রথম ইনিংস ৪০০/১০, ১৪১.৩ ওভার (সাদমান ইসলাম ১৪০, আসিফ আহমেদ ৮৬, মার্শাল ৫৬; আল আমিন২ ৫/৪৯, কামরুল ২/৮৪, নাসুম ২/১১১) ও দ্বিতীয় ইনিংস ১৯৩/৪, ৪৫ ওভার (সাদমান ৬৯*, আসিফ আহমেদ ৫৩; নুরুজ্জামান ১/১১)।

বরিশাল বিভাগ : প্রথম ইনিংস ২৬১/১০, ৮২ ওভার (শাহরিয়ার ৭৯*, সাইফ ৫৫*; ইলিয়াস সানি ৭/৭৩, শহীদ ২/৪৫)।

রাজশাহী-সিলেট বিভাগ ম্যাচ-

রাজশাহী বিভাগ : প্রথম ইনিংস ৪৮২/১০, ১৪৯.৩ ওভার (মাইশুকুর ১৫৮, জুনায়েদ ১১৮, ফরহাদ হোসেন ৮৭; এনামুল হক ৪/১৩৭, রাহাতুল ফেরদৌস ২/৪৭)।

সিলেট বিভাগ : প্রথম ইনিংস ৩২৪/১০, ১০৯.২ ওভার (অলক কাপালি ৮২, রোমান আহমেদ ৭৮, আহমেদ সিদ্দিকুর ৫৬; সানজামুল ইসলাম ৫/৮৪, সাকলাইন সজিব ২/১১৪, ফরহাদ হোসেন ২/৪৫) ও দ্বিতীয় ইনিংস ৪২/০, ১৩ ওভার (সায়েম ১৫*, ইমতিয়াজ ২৫*)।

রংপুর বিভাগ : প্রথম ইনিংস ৩১০/১০, ১০৬.২ ওভার (আরিফুল হক ৬৮, তারিক ৬৩, নাইম ৪৪, মাহামুদুল ৪৬, ধীমান ৩১; রবিউল ইসলাম ২/২৪, জিয়াউর রহমান ২/১৭, মোস্তাফিজুর রহমান ২/৪২)

রংপুর-খুলনা ম্যাচ-

রংপুর বিভাগ : প্রথম ইনিংস ৩১০/১০, ১০৬.২ ওভার (আরিফুল হক ৬৮, তারিক ৬৩, নাইম ৪৪, মাহামুদুল ৪৬, ধীমান ৩১; রবিউল ইসলাম ২/২৪, জিয়াউর রহমান ২/১৭, মোস্তাফিজুর রহমান ২/৪২) ও দ্বিতীয় ইনিংস ২১৮/৮, ৯০ ওভার (তানভীর হায়দার ৮৩, ধীমান ঘোষ ৬১; মোস্তাফিজুর রহমান ৪/৩৩, জিয়াউর রহমান ১/২৮)।

খুলনা বিভাগ : প্রথম ইনিংস ২১৩/১০, ৬৬ ওভার (ইমরুল কায়েস ৯৪, অমিত মজুমদার ৪৭; মাহমুদুল হাসান ৫/৭৬, সঞ্জিব সাহা ৪/৩৫)।

প্রকাশিত : ১১ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

১১/০২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: