মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১১ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

হুতিদের ক্ষমতা দখলে জাতিসংঘ নিষেধাজ্ঞা আরোপের হুঁশিয়ারি

প্রকাশিত : ৮ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

ইয়েমেনের শিয়া বিদ্রোহী গ্রুপ হুতি মিলিশিয়ারা যদি গণতান্ত্রিক উপায়ে ক্ষমতা হস্তান্তরে জাতিসংঘ নেতৃত্বাধীন আলোচনায় শীঘ্রই ফিরে না আসে তাহলে জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদ নতুন করে নিষেধাজ্ঞা আরোপের মতো পদক্ষেপ নিতে প্রস্তুত বলে হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেছে। সংস্থাটি শুক্রবার বিকেলে দেয়া এক বিবৃতিতে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছে। এর আগে হুতিরা আরব উপদ্বীপের দরিদ্র দেশটির রাষ্ট্রীয় ক্ষমতা দখল করে নেয় এবং পার্লামেন্ট ভেঙ্গে দেয়। খবর আলজাজিরা ও বিবিসির।

রাজধানী সানায় রিপাবলিকান প্যালেস থেকে দেয়া এক টেলিভিশন বিবৃতিতে হুতি বিদ্রোহীরা বলেছে, পার্লামেন্ট ভেঙে দিয়ে দেশ চালাতে তারা একটি প্রেসিডেন্সিয়াল কাউন্সিল গঠন করেছে। বর্তমান আইনসভার স্থানে তারা ৫৫১ সদস্যের একটি জাতীয় পরিষদ গঠন করবে। এক ‘সাংবিধানিক ঘোষণা’ অনুষ্ঠানে বলা হয়, পাঁচ সদস্যের প্রেসিডেন্সিয়াল কাউন্সিল দুই বছর দেশ চালাতে অন্তর্বর্তী সরকার গঠন করবে। ইয়েমেনের প্রেসিডেন্ট ও প্রধানমন্ত্রী গত মাসে পদত্যাগের প্রস্তাব দেয়ার পর দেশটিতে ক্ষমতার শূন্যতা নিয়ে সৃষ্ট জটিলতা নিরসনে রাজনৈতিক দলগুলোকে হুতি মিলিশিয়াদের তিন দিনের সময় বেঁধে দেয়া সময় বুধবার শেষ হওয়ার পর তারা এ পদক্ষেপ নিল। জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের সদস্যরা নিউইয়র্কে বলেছে, তারা গভীরভাবে উদ্বিগ্ন এবং তারা ইয়েমেনের সকল রাজনৈতিক দলকে জাতিসংঘের নেতৃত্বাধীন আলোচনায় ফিরে আসার আহ্বান জানিয়েছে। গৃহবন্দী থাকা ইয়েমেনের প্রেসিডেন্ট, প্রধানমন্ত্রী ও মন্ত্রিসভার সব সদস্যকে ছেড়ে দেয়ারও আহ্বান জানিয়েছে তারা। এদিকে উপসাগরীয় দেশগুলো বাহরাইন, ওমান, কাতার, সংযুক্ত আরব আমিরাত, সৌদি আরব ও কুয়েত দেশটির এমন পরিস্থিতিতে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছে। আরও বেশি ক্ষমতার ভাগ চাওয়া হুতিরা গত সেপ্টেম্বরে উত্তরের শক্ত ঘাঁটি থেকে রাজধানীতে এসে চড়াও হয়। গত মাসে তারা প্রেসিডেন্ট প্রাসাদসহ বিভিন্ন সরকারী দফতর দখল করে নেয়। ইরান হুতিদের আর্থিক ও সামরিকভাবে সহায়তা করছে বলে অভিযোগ উঠেছে। যদিও উভয়পক্ষ এ বিষয়টি অস্বীকার করেছে।

প্রকাশিত : ৮ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

০৮/০২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: