কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

তারকার দৌড়ে এগিয়ে স্টিভেন স্মিথ

প্রকাশিত : ৭ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ কোন দেশ হতে যাচ্ছে ১১তম বিশ্বকাপের চ্যাম্পিয়নÑ এমন প্রশ্নের পাশাপাশি চুলচেড়া বিশ্লেষণ হচ্ছে সম্ভাব্য তারকা নিয়েও। যেখানে সর্বাগ্রে এবি ডি ভিলিয়ার্সের নাম। সেই প্রোটিয়া ‘ড্যাশিং হিরো’ই বললেন, সবাইকে টেক্কা দিয়ে এবারের আসরে তারকা দ্যুতিতে ঝলমলে হয়ে উঠতে পারেন অস্ট্রেলিয়ান ব্যাটসম্যান স্টিভেন স্মিথ। ‘আপনি হয়ত ডেভিড ওয়ার্নার, এ্যারন ফিঞ্চ, গ্লেন ম্যাক্সওয়েল বা মাইকেল ক্লার্কের কথা বলবেন, কিন্তু আমার মনে হচ্ছে এবারের আয়োজনে ভিন্ন মাত্রা যোগ করতে পারেন স্টিভেন স্মিথ। ব্যাট হাতে যে কোন পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এনে সেরাটা দেয়ার অবিশ্বাস্য ক্ষমতা রয়েছে ওর। ভাগ্যিস গ্রুপ পর্বে আমাদের তার মুখোমুখি হতে হচ্ছে না। অসাধারণ এক ব্যাটসম্যান স্মিথ।’ বলেন প্রোটিয়া সেনাপতি।

ভিলিয়ার্স কি একটু বাড়িয়ে বলছেন? ক্রিকেটের খোঁজ রাখা সবাই জানেন ২৫ বছর বয়সী স্মিথ আসলে প্রতিনিয়ত নিজেকে ছাড়িয়ে যাওয়ার খেলায় মেতেছেন। কী টেস্ট, কী ওয়ানডেÑ সর্বত্র ব্যাট হাতে অবিশ্বাস্য রকমের ধারাবাহিক আর সফল এই নিউসাউথওয়েলস প্রতিভা। যার বড় উদাহরণ ওয়ার্নার-মিচেল জনসনদের টপকে অস্ট্রেলিয়ার বর্ষসেরার পুরস্কার ছিনিয়ে নেয়া। ২০১০ সালে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে আসা স্মিথের স্বভাবতই এটি প্রথম বিশ্বকাপ। ওয়ানডেতে ৩৬ গড়ে রান ১১৪৭, আহামরি নয়। তবে স্মিথকে এগিয়ে রাখছে সাম্প্রতিক ফর্ম। ত্রিদেশীয় সিরিজে অধিনায়ক হিসেবে অভিষেকেই হাঁকিয়েছেন সেঞ্চুরি। এর আগে টেস্টেও ভারতের বিপক্ষে নেতৃত্বের শুরুতে সেঞ্চুরিÑ ইতিহাসের প্রথম ব্যাটসম্যান যিনি দুই ঘারনায় অধিনায়ক হিসেবে জীবনের প্রথম ম্যাচেই পেয়েছেন সেঞ্চুরি।

শেষ ১১ ওয়ানডে ইনিংস ১০১, ১২, ৭৭, ১০, ৭৩*, ১০৪, ৬৭, ৩৭, ৪৭, ১০২* ও ৪০!! শেষ নয় টেস্ট ইনিংসÑ ৯৭, ১৬২*, ৫২*, ১৩৩, ২৮, ১৯২, ১৪, ১১৭ ও ৭১! সত্যি অবিশ্বাস্য বলে কিছু আর থাকছে না। ২০১৪ সালে ৯ টেস্টের ১৭ ইনিংসে ৮২ গড়ে ১১৪৬ রান সংগ্রহ করেন স্মিথ। সেঞ্চুরি ৫ ও হাফ সেঞ্চুরি ৪টি। সে ধারা অব্যাহত থাকে ঘরের মাটিতে ভারতের বিপক্ষে সিরিজেও। নিজের শেষ ২২ ইনিংসে ৬৮ গড়ে মোট রান ১৭৫৬, সেঞ্চুরি ৭ ও হাফ সেঞ্চুরি ৮টি!! তার ওপর ইনজুরিগ্রস্ত মাইকেল ক্লার্কের অনুপস্থিতিতে সামনে থেকে নেতৃত্ব দিয়ে হন ম্যাচসেরা। সিরিজে চার টেস্টে চারটিতেই সেঞ্চুরি হাঁকান! চলমান কার্লটন মিড ত্রিদেশীয় সিরিজে ওয়ানডে অধিনায়ক হিসেবে অভিষেকেও সেঞ্চুরি উপহার দিয়ে হন ম্যাচসেরা। অস্ট্রেলিয়ার মতো একটি দলের ভবিষ্যত অধিনায়কের রেসে ভালমতোই এগিয়ে তরুণ স্টিভেন স্মিথ।

২৬ টেস্টে ৫২৪ গড়ে তার মোট রান ২৩০৪, সেঞ্চুরি ৮ ও হাফ সেঞ্চুর ১০টি। ৪৯ ওয়ানডেতে ৩৬ গড়ে রান ১১০৭, সেঞ্চুরি ও হাফ সেঞ্চুরি ৩টি করে। বিশ্বকাপের মতো বড় আসরে সবাইকে টেক্কা দেয়ার মতো দুরন্ত ফর্মে রয়েছেন স্মিথ। কী টেস্ট, কী ওয়ানডে ঠা-া মাথায় প্রতিপক্ষ বোলারদের ক্ষুণœ করে চলেছেন ‘বেবি ফেসের’ অধিকারী এই অসি সেনসেশন। ডি ভিলিয়ার্সের ব্যাখ্যার সঙ্গে স্মিথের চাওয়া যোগ করলে যে কেউই ছবিটা আঁকতে পারবেন। ‘এটি অনেক বড় সম্মানের। আমার আগে কিংবদন্তি অস্ট্রেলিয়ানরাই কেবল একসঙ্গে তিন তিনটি বিভাগে সেরা হতে পেরেছেন। সত্যি ভাল লাগছে। তবে এখানেই থেমে থাকতে চাই না। এখন আমার একমাত্র লক্ষ্য বিশ্বকাপ পুনরুদ্ধারে দলকে সাহায্য করা।’ বুঝুন, মনের চাওয়াটাকে বাস্তাবে রূপ দিলে ঠিকই তারকাদের তারকা হয়ে উঠবেন স্টিভেন পিটার ডেভেরাক্স স্মিথ।

প্রকাশিত : ৭ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

০৭/০২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: