আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৭ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বুধবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

তুরাগের বগিতে আগুন দিয়ে পালানোর সময় গুলি করে যুবককে আটক

প্রকাশিত : ৬ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

নিজস্ব সংবাদদাতা, গাজীপুর, ৫ ফেব্রুয়ারি ॥ জয়দেবপুর স্টেশনে বৃহস্পতিবার সকালে তুরাগ ট্রেনে আগুন দিয়েছে হরতাল-অবরোধকারীরা। এ সময় ট্রেন থেকে নেমে পালানোর সময় রেলওয়ে পুলিশ গুলি করে এক যুবককে আটক করে। আহতাবস্থায় তাকে প্রথমে গাজীপুরের শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পরে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তার নাম মমিন (২২)। সে পেশায় টাইলস মিস্ত্রি এবং শহরের জোড়পুকুর পাড় বরুদা এলাকার নূরুন্নবীর ছেলে।

কমলাপুর রেলওয়ে থানার ওসি এমএ মজিদ জানান, বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে ঢাকা থেকে তুরাগ-১ কমিউটার ট্রেনটি গাজীপুরের জয়দেবপুর রেলওয়ে জংশন স্টেশনে প্রবেশ করার সঙ্গে সঙ্গে যাত্রীবেশে কয়েক দুর্বৃত্ত ধীরগতিতে চলন্ত ট্রেনের পেছন থেকে দ্বিতীয় বগিতে ওঠে। তারা ওই বগির সিটে পেট্রোল ঢেলে আগুন ধরিয়ে ট্রেন থেকে দ্রুত নেমে পালানোর চেষ্টা করে। এ সময় স্টেশনের পুলিশ ও রেল কর্মচারীরা তাদের ধাওয়া করে এবং পুলিশ ৭-৮ রাউন্ড শটগানের গুলি ছোড়ে। এতে মামুন নামে এক দুর্বৃত্ত দু’পায়ে গুলিবিদ্ধ হয়ে মাটিতে পড়ে যায়। আহতাবস্থায় তাকে প্রথমে গাজীপুরের শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ও পরে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। স্টেশনের কর্মচারী ও যাত্রীদের সহায়তায় বগির আগুন নেভানো হয়। আগুনে বগির দু’টির সিট পুড়ে গেছে। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে আধা লিটার পেট্রোলসহ কোকাকোলার বোতল উদ্ধার করেছে। জয়দেবপুরের স্টেশন মাস্টার শহিদুল ইসলাম বাদী হয়ে কমলাপুর থানায় মামলা দায়ের করেছেন। এ ঘটনার পর ট্রেনটি যথারীতি কমলাপুরের উদ্দেশে যাত্রী নিয়ে জয়দেবপুর স্টেশন ত্যাগ করে।

প্রকাশিত : ৬ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

০৬/০২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

শেষের পাতা



ব্রেকিং নিউজ: